kalerkantho

মঙ্গলবার । ৬ ডিসেম্বর ২০১৬। ২২ অগ্রহায়ণ ১৪২৩। ৫ রবিউল আউয়াল ১৪৩৮।


হজ ব্যবস্থাপনাকে স্বচ্ছ করতে শিগগিরই প্রাক-নিবন্ধন শুরু হবে

কালের কণ্ঠ অনলাইন   

৩ মার্চ, ২০১৬ ২১:১৪



হজ ব্যবস্থাপনাকে স্বচ্ছ করতে শিগগিরই প্রাক-নিবন্ধন শুরু হবে

চলতি ২০১৬ বছরের পবিত্র হজ ব্যবস্থাপনাকে অধিকতর স্বচ্ছ ও সুষ্ঠুভাবে সম্পন্ন করতে খুব শিগগিরই প্রাক-নিবন্ধন কার্যক্রম শুরু হবে। প্রাক-নিবন্ধনের জন্য প্রথম ধাপ সম্পন্ন করে সরকারি ব্যবস্থাপনার জন্য ৩০ হাজার টাকা ও বেসরকারি ব্যবস্থাপনার জন্য ৩০ হাজার ৭৫২ টাকা ব্যাংকে জমা দিতে হবে।


ধর্মমন্ত্রণালয়ের হজ ব্যবস্থাপনা অফিসের পরিচালক ড. আবু সালেহ মোস্তফা কামাল বাসসকে জানান, হজ চুক্তি মোতাবেক এবার বাংলাদেশ থেকে সরকারি ও বেসরকারি ব্যবস্থাপনায় হজ পালনের জন্য মোট ১ লাখ ১ হাজার ৭৫৮ জন হজযাত্রী হজ পালনের জন্য সউদী আরব গমন করতে পারবেন। চাঁদ দেখা সাপেক্ষে চলতি বছরের ১০ সেপ্টেম্বর সউদী আরবে পবিত্র হজ অনুষ্ঠিত হবে।
মোস্তফা কামাল আরো জানান, হজে যাওয়ার জন্য প্রথম ধাপে প্রাক্-নিবন্ধন করতে হবে। সউদী ‘ই-হজ সিস্টেমের’ সঙ্গে সমন্বয়ের জন্য এ বছর থেকে হজযাত্রীদের জন্য প্রাক্-নিবন্ধন পদ্ধতি চালু করা হয়েছে। নিজে অথবা ধর্ম বিষয়ক মন্ত্রণালয়ের অনুমোদিত বৈধ হজ এজেন্সির মাধ্যমে প্রাক-নিবন্ধনের জন্য প্রথম ধাপ সম্পন্ন করে প্রায় ৩০ হাজার টাকাও বেসরকারি ব্যবস্থাপনার জন্য ৩০ হাজার ৭৫২ টাকার পেমেন্ট ভাউচারসহ ব্যাংকে টাকা জমা দিতে হবে ।
ধর্ম মন্ত্রণালয়ের সিনিয়র তথ্য কর্মকর্তা আনোয়ার হোসেন জানান , সর্বমোট হজযাত্রীর সংখ্যা ১ লাখ ১ হাজার ৭৫৮ জন অতিক্রম করলে নিয়ম মত হজযাত্রীরা অপেক্ষমাণ তালিকায় থাকবেন এবং পরবর্তী বছরে তারা হজে যেতে পারবেন। জাতীয় পরিচয়পত্রের মাধ্যমে হজযাত্রীরা প্রাক-নিবন্ধন করতে পারবেন। ১৮ বছরের নিচে যাদের বয়স এবং যাদের জাতীয় পরিচয়পত্র নেই সে ক্ষেত্রে অভিভাবকের সঙ্গে জন্ম নিবন্ধন সনদ দিয়ে তারা প্রাক নিবন্ধন করতে পারবেন। এ ছাড়া প্রাক নিববন্ধনের পাসপোর্ট সাইজের রঙিন ছবি, এমআরপি পাসপোর্ট ও মোবাইল ফোন নম্বর বাধ্যতামূলক করা হয়েছে বলে তিনি জানান।
দেশের প্রতিটি ইউনিয়ন তথ্য সেবা কেন্দ্রে, জেলা প্রশাসকের কার্যালয়, ইসলামিক ফাউন্ডেশনের কার্যালয়,ধর্ম বিষয়ক মন্ত্রণালয়ের অনুমোদিত বৈধ হজ এজেন্সি, ঢাকার আশকোনায় হজ অফিস পরিচালকের কার্যালয়ে প্রাক নিবন্ধন করা যাবে। হজযাত্রী নিজে অথবা তার প্রতিনিধি প্রাক্-নিবন্ধন করতে পারবেন।
ইতোমধ্যে প্রাক্-নিবন্ধন করার জন্য সংশ্লিষ্ট কর্মকর্তা-কর্মচারীদের প্রশিক্ষণ কার্যক্রম শুরু হয়েছে। জাতীয় হজ নীতির আলোকে প্রাক্-নিবন্ধন নম্বর চলতি বছর হজে যাওয়ার জন্য নির্বাচিত হলে হজযাত্রীর মোবাইলে এসএমএস দেওয়া হবে। এসএমএস পাওয়ার পর ৩০ মে ২০১৬ মধ্যে সরকারি ব্যবস্থাপনায় ৩ লাখ ৬০ হাজার ২৮ টাকা ও বেসরকারি ব্যবস্থাপনার ৩ লাখ ৪ হাজার ৯০৩ টাকা জমা দেয়া হলে চূড়ান্ত নিবন্ধন কার্যক্রম শুরু হবে।
প্রাক-নিবন্ধন তথ্য ভান্ডার থেকে হজ যাত্রীদের আবেদন অনলাইনে গ্রহণ করে প্যাকেজের সম্পূর্ণ টাকা পরিশোধ পরিশোধিত মর্মে হজ অফিস/ সংশ্লিষ্ট হজ এজেন্সি নিশ্চিত করলে পিলগ্রিম আইডি তৈরি হবে। হজে যাওয়ার জন্য এই পিলগ্রিম আইডি অত্যাবশক হবে বলে হজ কর্মকর্তা বাসসকে জানান।
প্রাক্-নিবন্ধনে প্রাপ্ত তথ্যাদি পুলিশের বিশেষ শাখার মাধ্যমে যাচাই করা হবে। প্রাক্-নিবন্ধন করে কেউ যদি হজে গমণ না করেন তাহলে হজযাত্রীর অগ্রীম জমাকৃত জামানত থেকে সার্ভিস চার্জ ২ হাজার এবং প্রসেসিং ফি বাবদ ৩ হাজার মোট ৫ হাজার টাকা বাদ দিয়ে বাকি টাকা ফেরত পাবেন। চলতি বছর ১ আগস্ট হজযাত্রীদের সম্ভাব্য ফ্লাইট পরিচালিত হতে পারে বলে সংশ্লিষ্ট কর্মকর্তারা আশা প্রকাশ করছেন।


মন্তব্য