kalerkantho


ইতিবাচক চেতনার প্রতিফলন চাই

১২ জানুয়ারি, ২০১৯ ০০:০০



১৬ কোটি মানুষের কণ্ঠস্বর ধারণে পত্রিকাটি নিজ গুণে সহায়ক হবে, আমরা তেমনই আশা করি। জনগণ ও সরকারের জন্য পত্রিকাটি আলোকবর্তিকার কাজ করুক।  এ দেশের আবহাওয়া-জলবায়ু মানুষের বাসোপযোগী, হিংসা-কলহ-বিবাদ পরিহার করে পবিত্র মন নিয়ে জীবন যাপনের জন্য সঠিক নির্দেশনার প্রচারণা পত্রিকাটিতে আশা করি। আন্তর্জাতিক যেকোনো চক্রান্ত পত্রিকাটি তুলে ধরুক। সমাজের অবহেলিত দুর্বল জনগণের কণ্ঠস্বর হিসেবে পত্রিকাটি প্রশংসিত হোক—এটা আমি চাই। জ্ঞানপাপী, বিদেশে অর্থ পাচারকারী, ঘুষখোর, চোর-ডাকাত ও ভণ্ডদের আসল চরিত্র পত্রিকাটি তুলে ধরুক। প্রত্যেক মানুষের শান্তিময় জীবন যাপন ও পূর্ণ বিকাশের সুযোগ এবং দেশের উন্নয়নের বাধা দূর করার কৌশলও বাতলে দিক পত্রিকাটি। সমাজে ধনী-দরিদ্র আকাশচুম্বী ভেদাভেদ দূর করার পথ দেখিয়ে দিক। ১৬ কোটি জনগণ এই পত্রিকার আলোয় দিশা পাক। বেকার যুবশক্তিকে কারিগরি প্রশিক্ষণের মাধ্যমে দক্ষ জনশক্তিতে রূপান্তরের পথ দেখিয়ে দিক। জ্বরাতুর পিতা যেমন তাঁর ১০ বছর বয়সী সন্তানের কাছে প্রত্যাশা করে, তেমনি দেশমাতৃকার সেবার জন্য পত্রিকাটি ঝাঁপিয়ে পড়ুক। ইতিবাচক চেতনা নিয়ে পত্রিকাটি এগিয়ে চলুক।

এইচ কে নাথ

পাহাড়তলী, চট্টগ্রাম।



মন্তব্য