kalerkantho


কুড়ানো খোলায় লুকিয়ে ছিল ভয়ংকর অক্টোপাসটি

কালের কণ্ঠ অনলাইন   

৬ ডিসেম্বর, ২০১৮ ১৪:৫৪



কুড়ানো খোলায় লুকিয়ে ছিল ভয়ংকর অক্টোপাসটি

সমুদ্র সৈকতে বেড়াতে গিয়েছিল কিশোরী মেয়েটি। পশ্চিম অস্ট্রেলিয়ার রাজধানী শহরের পাশে অবস্থিত সৈকতে খেলা করছিল সে। পরের দিন বাড়ি ফেরার সময় কুড়িয়ে নিয়েছিল সামুদ্রিক প্রাণির কয়েকটি খোলা।

বাড়িতে ওই কিশোরীকে গোসল করানোর সময় তার চাচি লক্ষ্য করেন কুড়িয়ে আনা একটি খোলার ভেতর লুকিয়ে রয়েছে ভয়ংকর অক্টোপাস। এ ঘটনা সমস্ত পিতা-মাতার কাছে একটি সতর্কবার্তা। 

অস্ট্রেলিয়ার কোগি বিচ ডাবলুএইচ সার্ফ লাইফ সেভিং ক্লাব'র পক্ষ থেকে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেসবুকে বিপজ্জনক প্রাণিটির ছবিসহ একটি পোস্ট দেওয়া হয়েছে। উদ্দেশ্য এই যে, প্রত্যেক বাবা-মা যেন খেয়াল রাখেন তাদের সন্তানরা সৈকতে কী করছে এবং এ বিষয়ে সতর্ক থাকেন।

পোস্টে লেখা হয়, 'এই কিশোরী আজ সকালে সমুদ্র সৈকতে আমাদের ক্লাব ভবন স্যান্ডক্যাসলসের সামনে ছিল এবং সে শেল সংগ্রহ করছিল। তার আন্টি বাড়িতে শেলের ভেতরের অংশ পরিষ্কার করছিলেন। এ সময় তিনি দেখতে পান এগিয়ে আসছে একটি ভয়ংকর প্রাণি।

পোস্টে আরো লেখা হয়, 'প্রাণিটি দেখতে সুন্দর .... কিন্তু একটি কামড় অত্যন্ত মারাত্মক হতে পারে।'

নীল রিংযুক্ত এই অক্টোপাস অত্যন্ত বিষাক্ত এবং সাধারণত জোয়ারভাটার সময় পুল এবং প্রবাল প্রাচীরে দেখতে পাওয়া যায়।

ব্লু রিংড অক্টোপাস নাম হয়েছে এর শরীরে নীল বৃত্তাকার চিহ্ন থাকার কারণে। তবে এই চিহ্ন সবসময় দেখা যায় না। সাধারণত প্রাণিটি যখন নিজের জীবন হুমকিস্বরূপ মনে করে এবং শরীরের বিষ প্রয়োগ করতে থাকে।

অস্ট্রেলিয়ান ইনস্টিটিউট অব মেরিন সায়েন্সের মতে, বিপদ দেখতে অক্টোপাস টেট্রোডোটক্সিন নামের রাসায়নিক প্রয়োগ করে, লক্ষ্য ল্যাকেল করতে লক্ষ্য শত্রুকে পক্ষাঘাতগ্রস্ত করে দেওয়া। এতে শিকারের মৃত্যু হতে পারে। 

সূত্র : ফক্স নিউজ 



মন্তব্য