kalerkantho


জামানত নগ্ন ছবি, ঋণ পরিশোধে ব্যর্থ হলেই প্রকাশ করবে সংস্থা

কালের কণ্ঠ অনলাইন   

১ ডিসেম্বর, ২০১৮ ২০:০৯



জামানত নগ্ন ছবি, ঋণ পরিশোধে ব্যর্থ হলেই প্রকাশ করবে সংস্থা

স্বল্প সময়ের মধ্যে ঋণ চাই? দু’টি শর্ত পূরণ করলেই চলবে। প্রথমত, হতে হবে তরুণী আর দ্বিতীয়ত, একটি নগ্ন সেলফি পাঠাতে হবে ঋণদাতা সংস্থার কাছে।

জানা গেছে, চীনের বেশ কিছু মাইক্রোলোন সংস্থা চালু করেছে ‘নেকেড লোন সার্ভিস’। আর এই শর্তগুলোতে রাজি হচ্ছেন দলে দলে তরুণী।

খবরে প্রকাশ, চীনে তরুণ প্রজন্মের কাছে নগদ টাকার চাহিদা অনেক। সে কারণেই এমন বিচিত্র শর্তে রাজি হচ্ছেন ঝাঁকে ঝাঁকে তরুণী। ‘নেকেড লোন সার্ভিস’-এর মূল জায়গাটি হলো, ঝণগ্রহিতা যদি ঋণ পরিশোধে ঝঞ্ঝাট পাকান, তাহলে তার নগ্ন সেলফি প্রকাশ করে দেবে সংস্থা।

২০১৬ সাল নাগাদ ১৬১ জন তরুণীর এমন নগ্ন ছবি অনলাইনে প্রকাশ করে দেয় মাইক্রোলোন সংস্থাগুলো। এই সব তরুণীদের বয়স ১৯ থেকে ২৩ বছরের মধ্যে। এদের নেওয়া ঋণের পরিমাণ ছিল এক হাজার থেকে দুই হাজার মার্কিন ডলারের মধ্যে।

‘চায়না ইউথ ডেইলি’-র খবর অনুযায়ী, ২০১ সালে নেকেড লোন সার্ভিস এর ব্যবসা ছিল রমরমা। বলাই বাহুল্য এই ধরনের ঋণ ব্যবসা বেআইনি।

‘নেকেড লোন সার্ভিস’-এর বাড়বাড়ন্ত চিন্তায় ফেলেছে চীনের সরকারকে। ভোগ্যপণ্যের প্রতি তরুণ প্রজন্মের ক্রমবর্ধমান চাহিদাই যে এই কাণ্ডের পেছনের রহস্য, সেটাও জানিয়েছেন চীনা অর্থনীতিবিদরা। আপাতত এই ধরনের সংস্থার বিরুদ্ধে আইনি পদক্ষেপ করার চেষ্টায় রয়েছে চীন সরকার।



মন্তব্য