kalerkantho


নারী নির্যাতনকারীদের নিয়ন্ত্রণ করবে জিপিএস ট্র্যাকার!

কালের কণ্ঠ অনলাইন   

২৩ এপ্রিল, ২০১৮ ১৭:২৩



নারী নির্যাতনকারীদের নিয়ন্ত্রণ করবে জিপিএস ট্র্যাকার!

ছবি অনলাইন

নারী নির্যাতনকারীরা প্রায়ই একই অপরাধ বারবার করে থাকে। এ কারণে তাদের অপরাধ প্রবণতার রাশ টেনে ধরতে যুক্তরাজ্যে এক অভিনব দাবি তোলা হয়েছে। নারী নির্যাতনকারীদের জিপিএস ট্র্যাকার বাধ্যতামূলক করার দাবি তোলা হয়েছে।

প্রযুক্তির মাধ্যমে অপরাধীদের নতুন করে নারী নির্যাতন ঠেকানো সম্ভব বলে মনে করছেন তারা। নারী নির্যাতনকারীদের যদি জিপিএস ট্র্যাকারের আওতায় আনা হয় তাহলে তাদের প্রতিটি পদক্ষেপই আইনশৃঙ্খলা রক্ষা বাহিনীর রেকর্ডে থাকবে। এতে তারা কোথাও অপরাধ করলেও তার জন্য পরবর্তীতে আইনের আওতায় নেওয়া যাবে। এছাড়া সে ব্যক্তির আচরণে সন্দেহ হলে আগেই প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নিতে পারবে পুলিশ। ফলে এড়ানো যাবে বহু অপরাধ।

অনেক নির্যাতনকারী একবার শাস্তি ভোগের পর ভুক্তভোগীকে ক্ষতি করতে চায়। এক্ষেত্রে নির্যাতনকারীর দেহে জিপিএস ট্র্যাকার স্থাপিত হলে পরবর্তীতে তার অবস্থান ভুক্তভোগীকে জানানো সম্ভব হবে যেন সে আর কোনো ক্ষতি করার আগেই সতর্ক হতে পারে।

প্রস্তাবনায় বলা হয়েছে, গৃহনির্যাতনের শিকার ব্যক্তিরাও এতে নিজেদের রক্ষা করতে পারবে সহজেই।

জিপিএস ট্র্যাকার বিভিন্ন গাড়িতে ব্যবহৃত হয় বহুদিন আগে থেকেই। এতে গাড়িটি কোথায় যাতায়াত করছে তা যেমন জানা যায় তেমন এটি চুরি হলে তা সহজেই উদ্ধার করা যায়। কিন্তু অপরাধীদের জিপিএস ট্র্যাকারের ধারণাটি অপেক্ষাকৃত নতুন। এটি অপরাধীদের দেহে ব্যান্ড বা অন্য কোনো উপায়ে আটকে দেওয়া হয়। অপরাধীরা কোথায় যাচ্ছে, কী করছে, তার একটি পরিষ্কার চিত্র এতে পাওয়া যায়।

যুক্তরাজ্যের হোম অ্যাফেয়ার্স মুখপাত্র লিজ স্যাভাইল-রবার্টস বলেন নির্মাতারা যদি সিম্পল ট্রান্সমিটার ও রিসিভার তৈরি করে তাহলে তা ঘটনার শিকারদের রক্ষা করতে সহায়ক হবে। এতে আক্রমণকারী ও নির্যাতনকারীদের নিয়ন্ত্রণ করাও সহজ হবে। এতে ঘটনার শিকাররা নিজেদের নিরাপত্তা ও আত্মবিশ্বাস ফিরে পাবে।



মন্তব্য