kalerkantho


বহুরূপী দাউদ! পাকিস্তানে তার ২১টি ছদ্মনাম! করাচিতে তিন ঠিকানা!

কালের কণ্ঠ অনলাইন   

২৩ আগস্ট, ২০১৭ ১৪:৩৫



বহুরূপী দাউদ! পাকিস্তানে তার ২১টি ছদ্মনাম! করাচিতে তিন ঠিকানা!

দাউদ ইব্রাহিম। এক জীবন্ত ধাঁধা।

তিনি জীবিত, মাঝে মধ্যেই তাঁর উপস্থিতি টের পাওয়া যায়। বিভিন্ন সূত্র বলে দাউদ ইব্রাহিম পাকিস্তানের করাচি শহরেই রয়েছেন বহাল দবিয়তে। কিন্তু দাউদের খোঁজ লাগানোর কথা উঠলেই ঘিরে ধরে ধোঁয়াশা। দাউদ? তিনি কে? আপনি কি আব্দুল রেহমানের কথা বলছেন? নাকি কাসকার দাউদ হাসান ইব্রাহিমের কথা বলছেন?

বোঝা গেল না তো? বেশ আরও খানিক খোলসা করে বলতে হলে পাকিস্তানে দাউদের ২১টি নাম রয়েছে। সম্প্রতি যুক্তরাজ্যের রাজস্ব দপ্তরের প্রকাশিত রিপোর্ট অনুযায়ী মাফিয়া সম্রাট দাউদ ইব্রাহিম ২১টি ভিন্ন পরিচয়ে বসবাস করে পাকিস্তানে।  

যে সব নামে দাউদ ইব্রাহিম পাকিস্তানে পরিচিত সেগুলি হলো :

আব্দুল শেখ ইসমাইল, আব্দুল আজিজ, আব্দুল হামিদ, আব্দুল রহমান, শেখ মহম্মদ ইসমাইল, অনিস ইব্রাহিম শেখ মহম্মদ, ভাই বড়া, ভাই দাউদ, ভাই ইকবাল, দীলিপ আজিজ, এব্রাহিম দাউদ, ফারুকি শেখ, হাসান কাসকার দাউদ, হাসান দাউদ, ইব্রাহিম আনিস, ইব্রাহিম দাউদ, হাসান শেখ, কাসকার দাউড়, হাসান শেখ ইব্রাহিম, কাসকার দাউড় ইব্রাহিম মেমন, মেমন দাউদ ইব্রাহিম, সাবরি দাউদ, শাহাব হাজি, শেঠ বড়া।

যুক্তরাজ্য রাজস্ব দপ্তরের রিপোর্টে দাউদ ইব্রাহিমের জন্মস্থান হিসেবে লেখা রয়েছে মহারাষ্ট্রের রত্নাগিরি শহরের খের অঞ্চল। বাবার নাম শেখ ইব্রাহিম আলি কাসকার, মার নাম আমিনা, স্ত্রীর নাম মেহজাবিন শেখ। তিনি হিজরত নামেও পরিচিত।

নামের দীর্ঘ তালিকা দেখে যাঁরা খানিক ঘাবড়ে গেছেন, তাঁদের আরও একটি তথ্য দেওয়া যাক। গত ২৩ বছর ধরে পাকিস্তান বার বার অস্বীকার করেছে সে দেশে দাউদের উপস্থিতির কথা। কিন্তু যুক্তরাজ্য থেকে পাওয়া তথ্য অনুযায়ী পাকিস্তানে দাউদের তিনটি ঠিকানা রয়েছে। না, কোনো প্রত্যন্ত অঞ্চল নয়, বরং প্রশাসনের নাকের ডগায় বাস দাউদের। একটি বাড়ি রয়েছে করাচির ডিফেন্স হাউজিং অথরিটিতে, একটি বিলাসবহুল বাংলো রয়েছে করাচির নূরাবাদে এবং অন্য আরেকটি রয়েছে করাচি শহরের ক্লিফটনে সৌদি মসজিদের কাছে।
সূত্র : এই সময়


মন্তব্য