kalerkantho


সাগরের গভীরে মুখ লুকিয়ে ১১ হাজার বছরের প্রাচীন সভ্যতা

কালের কণ্ঠ অনলাইন   

১৬ মার্চ, ২০১৭ ২১:১২



সাগরের গভীরে মুখ লুকিয়ে ১১ হাজার বছরের প্রাচীন সভ্যতা

এগারো হাজার বছরের পুরনো সভ্যতা। ঘুমিয়ে ছিল বাল্টিক সাগরের নীচে।

অনুসন্ধানের ফলে এতদিন পরে ফের সেখানে মানুষের স্পর্শ পড়ল। এই আবিষ্কার সুইডেনের হ্যানো-তে।

সুইডেনের স্কেন কাউন্টি অঞ্চলে বালুকাময় উপকূলীয় অংশে ভূপৃষ্ঠ থেকে ৫২ ফিট নিচে অস্তিত্ব মিলেছে এই প্রাচীন সভ্যতার। পুরাবিদদের মতে, প্রস্তর যুগে এই সভ্যতা তৈরি হয়েছিল যাযাবর শ্রেণির মানুষের হাতে।

প্রায় ১১ হাজার বছর আগে সুইডেন জুড়ে এই যাযাবর শ্রেণির অস্তিত্ব ছিল। তারা যখন বাল্টিক সাগরের তীরে হ্যানো এলাকায় বাস করছিল তখন ওই স্থানটিকে ‘ডাস্টবিন’ হিসেবে ব্যবহার করত। ফলে তাদের ফেলে দেওয়া বহু ব্যবহৃত জিনিসের খোঁজ মিলেছে।

পাওয়া গিয়েছে কাঠের টুকরো, পশুদের হাড়, দড়ি, পশুদের হাড়ের তৈরি হারপুন এবং এমন এক ধরনের গবাদি পশুর কঙ্কাল, যে প্রজাতি বহু শতক আগে নিশ্চিহ্ন হয়ে গেছে।

পুরাবিদদের মতে, যাযাবর শ্রেণির ওই মানুষ ওই স্থানে তাদের ব্যবহৃত পরিত্যক্ত জিনিসপত্র ফেলে দিত।

প্রকৃতির খেয়ালে কোনওভাবে প্রস্তর যুগের ওই সভ্যতার চিহ্ন পুরোটাই গ্রাস করে বাল্টিক সাগর। সেগুলোই ১১ হাজার বছর ধরে ঘুমিয়ে ছিল জলের গহিনে।

- ইন্টারনেট


মন্তব্য