kalerkantho


ফ্লাইটে একটি ইঁদুরের কারণেই ২৫ লাখ পাউন্ড ক্ষতি!

কালের কণ্ঠ অনলাইন   

২ মার্চ, ২০১৭ ১৬:৩৬



ফ্লাইটে একটি ইঁদুরের কারণেই ২৫ লাখ পাউন্ড ক্ষতি!

প্লেনে ইঁদুর খুবই বিপজ্জনক। কারণ এটি বিমানের অভ্যন্তরের বৈদ্যুতিক তার কেটে ফেলতে পারে কিংবা আরও মারাত্মক কোনো অঘটন ঘটাতে পারে, যা মারাত্মক প্রাণহানির কারণ হতে পারে।

আর এ কারণে উড়োজাহাজে যেন ইঁদুর প্রবেশ করতে না পারে সেজন্য বাড়তি সতর্কতা অবলম্বন করতে হয়।
সম্প্রতি ব্রিটিশ এয়ারওয়েজের এক উড়োজাহাজ ইঁদুরের কারণে ২৫ লাখ পাউন্ডের ক্ষতির মুখোমুখি হয়েছে। তবে উড়োজাহাজটি কোনো দুর্ঘটনা ঘটায়নি। তার আগেই ধরা পড়েছে ইঁদুরটি।
আকাশপথে যাতায়াতের সময় যদি প্লেনে কোনো ইঁদুর দেখা যায় তাহলে তা অত্যন্ত গুরুত্ব দিয়ে দেখতে হয়। আর সে বিপদের হাত থেকেই যেন বাঁচল ব্রিটিশ এয়ারওয়েজ। অবশ্য এতে আর্থিক ক্ষতিও হয়েছে প্রচুর।
যুক্তরাজ্যের হিথরো বিমানবন্দর থেকে মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের স্যান ফ্রান্সিসকোতে যাচ্ছিল ব্রিটিশ এয়ারওয়েজের একটি ফ্লাইট। আর সে ফ্লাইটেই পাওয়া যায় ইঁদুরটি।
বোয়িং ৭৭৭ বিমানটিতে ইঁদুর পাওয়ার পর সঙ্গে সঙ্গে সব যাত্রীদের নামিয়ে দিতে হয়। এরপর নিয়ম অনুযায়ী প্রকৌশলীদের খবর দেওয়া হয় ইঁদুরটি ইতোমধ্যেই উড়োজাহাজের কোনো ক্ষতি করেছে কি না।
ফ্লাইট বিএ২৮৫ উড়োজাহাজটি তখন টার্মিনাল ৫-এ ছিল। ইঁদুর দেখা যাওয়ার পর সেটি দূর করার পর যাত্রীদের নামিয়ে দিয়ে পরীক্ষা-নিরীক্ষা করতে বেশ সময় নষ্ট হবে। এ কারণে ভিন্ন একটি ফ্লাইটে প্রায় দুইশ যাত্রীদের পাঠিয়ে দেওয়ার ব্যবস্থা করা হয়। কিন্তু এ কাজে প্রায় সোয়া এক ঘণ্টা সময় নষ্ট হয়। আর এ কারণে যাত্রীদের ইউরোপিয় ইউনিয়নের নিয়ম অনুযায়ী ৬০০ ইউরো করে ক্ষতিপূরণ দিতে হয়। এছাড়া আরও কিছু ব্যয়ও করতে হয়। সব মিলিয়ে প্রায় ২৫ লাখ পাউন্ড ব্যয় হয় ব্রিটিশ এয়ারওয়েজের।
ব্রিটিশ এয়ারওয়েজের এক মুখপাত্র এ ঘটনায় যাত্রীদের ভোগান্তি ও বিলম্বের কারণে দুঃখ প্রকাশ করেছেন। তবে এত নিরাপত্তা ব্যবস্থার মধ্য দিয়ে ফ্লাইটে কিভাবে ইঁদুর প্রবেশ করল সে বিষয়ে এখনও কোনো তথ্য পাওয়া যায়নি। সূত্র : ইন্ডিপেনডেন্ট।


মন্তব্য