kalerkantho


মানহানি মামলায় মেলানিয়া ট্রাম্পের সঙ্গে আপস করলেন সেই ব্লগার

কালের কণ্ঠ অনলাইন   

৮ ফেব্রুয়ারি, ২০১৭ ১৬:৪৬



মানহানি মামলায় মেলানিয়া ট্রাম্পের সঙ্গে আপস করলেন সেই ব্লগার

মার্কিন ফার্স্ট লেডি মেলানিয়া ট্রাম্পের বিরুদ্ধে অভিযোগটি উঠিয়েছিলেন এক ব্লগার। অভিযোগটি ছিল নিঃসন্দেহে গুরুতর। ওয়েবস্টার টারপ্লে নামে সে ব্লগার দাবি করেছিলেন, মেলানিয়া একসময় এসকর্ট বা যৌনকর্মী হিসেবে কাজ করতেন।
পরবর্তীতে অবশ্য সেই ব্লগারের বিরুদ্ধে আদালতে অভিযোগ করে দেন মেলানিয়া। সুনাম নষ্ট হয়েছে, এ দাবিতে তিনি মানহানির মামলাও করেন। তবে মার্কিন আদালতের এ মানহানি মামলাটি আদালতের বাইরেই নিষ্পত্তি করা হলো।
মার্কিন ফার্স্ট লেডির আইনজীবী চার্লস হার্ডার জানিয়েছেন, মামলাটি নিষ্পত্তি হয়ে গিয়েছে। আর এজন্য মার্কিন ব্লগার যথাযথ ক্ষতিপূরণও দিয়েছেন বলে তিনি জানিয়েছেন। অবশ্য এক্ষেত্রে কত টাকার বিনিময়ে বিষয়টির নিষ্পত্তি হয়েছে, তা প্রকাশ করেনি কোনো পক্ষই।
তবে শুধু ওই ব্লগারই নন, জনপ্রিয় বৃটিশ ট্যাবলয়েড ডেইলি মেইলের বিরুদ্ধেও একই অভিযোগে মামলা করেছেন মেলানিয়া ট্রাম্প। সে মামলাটি এখন পর্যন্ত নিষ্পত্তি হওয়ার কোনো খবর পাওয়া যায়নি।


মেলানিয়া ট্রাম্পের সঙ্গে আপসের পর এক বিবৃতিতে বিষয়টির জন্য দুঃখ প্রকাশ করেছেন ব্লগার ওয়েবস্টার। তিনি স্বীকার করেছেন যে, গত বছরের ২ আগস্ট প্রকাশিত তার পোস্টটি ভুল তথ্যের ওপর ভিত্তি করে প্রকাশিত হয়েছিল এবং এতে তার জন্য মানহানিকর বক্তব্য ছিল।
তিনি আরও লিখেছেন, ‘আমি স্বীকার করছি যে, সেই ভুল তথ্য মিসেস ট্রাম্প ও তার পরিবারের জন্য খুবই ক্ষতিকর ও আঘাত দেওয়ার মতো ছিল। আর এজন্য আমি মিসেস ট্রাম্প, তাঁর ছেলে, তাঁর স্বামী ও তাঁর পিতা-মাতার কাছে ক্ষমাপ্রার্থী। ’
এছাড়া তিনি লিখেছেন, ‘আমার বৈধ তথ্যসংক্রান্ত কোনো ভিত্তি ছিল না তার সম্পর্কে এসব তথ্য লেখার। ’
অভিযোগে বলা হয়, ৯০ দশকে মেলানিয়া যৌনকর্মী ছিলেন এমন লেখার অভিযোগে মামলায় ১৫ কোটি ডলার ক্ষতিপূরণ দাবি করেছিলেন মেলানিয়া।
মেলানিয়ার আইনজীবী চার্লস হার্ডার বলেন, ‘এসব দাবি ডাহা মিথ্যা কথা। মামলার বিবাদিরা মিসেস ট্রাম্পকে নিয়ে অনেকগুলো উক্তি করেছেন যেগুলো শতভাগ মিথ্যা আর এতে তার ব্যক্তিগত ও পেশাদারী সুনাম মারাত্মকভাবে ক্ষুন্ন হয়েছে। ’


মন্তব্য