kalerkantho


টুইটারে ভারতীয়দের তোপে আফ্রিদি: কাশ্মির নিয়ে বলার তুমি কে!

কালের কণ্ঠ অনলাইন   

৬ ফেব্রুয়ারি, ২০১৭ ২১:০৭



টুইটারে ভারতীয়দের তোপে আফ্রিদি: কাশ্মির নিয়ে বলার তুমি কে!

ভক্তের বাহুতে অটোগ্রাফ দিচ্ছেন আফ্রিদি -ফাইল ফটো

৫ ফেব্রুয়ারিকে কাশ্মির দিবস হিসেবে পালন করে থাকে পাকিস্তান। এবার সেই দিবসে টুউট নিয়ে ভারতীয়দের তোপের মুখে পড়েছেন পাকিস্তানি ক্রিকেট তারকা শহিদ আফ্রিদি।

প্রথম টুইটে আফ্রিদি লেখেন, ‘গত কয়েক দশক ধরে কাশ্মির নিষ্ঠুরতার শিকার হয়ে চলেছে। এখন সময় এসেছে এই সমস্যার সমাধানের- এ নিয়ে অনেক প্রাণ ঝরে গেছে। ’

পরের টুইটে আফ্রিদি লেখেন, ‘কাশ্মির হচ্ছে দুনিয়ার জান্নাত। আর তাই এখানকার নিরপরাধ মানুষের চিৎকারে চোখ-কান বন্ধ করে থাকা যায় না। ’ এই দুটি টুইট বক্তব্যের সঙ্গে ‘আই স্ট্যান্ড উইথ কাশ্মির’ এবং ‘কাশ্মির সলিডারিটি ডে’ হ্যাশ ট্যাগ যোগ করেন তিনি।

তবে আফ্রিদির এই টুইট পাকিস্তানিদের বে-শক মনপসন্দ হলেও ভারতীয়রা বেশ খাপ্পা হয়। তাই সঙ্গে সঙ্গে পাল্টা টুইটাঘাত শুরু হয়- যেন ভীমড়ুলের মতো ঝেঁকে বসে ভারতীয়রা আফ্রিদির টুইটকে আক্রমণ করতে। মোট কথা- টুইটবাজীর মাধ্যমে একখান জোশ ভারত-পাকিস্তান যুদ্ধ শুরু হল আরকি।

আফ্রিদির টুইটের জবাবে ইরশাদ আহমাদ নামের টুইট অ্যাকাউন্ট থেকে তাকে উদ্দেশ্য করে বলা হয়, দুধ চাইলে ক্ষির দেব/ কাশ্মির নিয়ে কথা বললে ছিরে দেব! তোরা আর কতো যুদ্ধ হারবি!

ঘটক নামে একজনের টুইট ছিল- কাশ্মির ইস্যু নিয়ে বলার তুমি কে? নিজের দেশই তো সামলাতে পারো না, কাশ্মিরকে সামলাতে চাও?

আরেকজন লেখেন, বেলুচিস্তানও পাকিস্তানি সেনাদের নৃশংসতার শিকার হচ্ছে।

আশা করছি তুমি বেলুচস্তানের স্বাধীনতার পক্ষে সরব হবে।

আরেকজন বলেন, ভাই, তুই এখন ক্রিকেট থেকে নিজের অবসরের দিকে নজর দে, পলিটিক্স অবসরের পর করিস।
 
শুধু ক্রিকেটের ময়দানে অলরাউন্ড পারফর্মেন্সেই নয়, বেমক্কা আর ঝুঁকিপূর্ণ মন্তব্য করে দেশে-বিদেশে পরিস্থিতি উত্তপ্ত করে তোলার রেকর্ড আফ্রিদির আগেও আছে। গত বছর টি-২০ বিশ্বকাপ খেলতে পাকিস্তানি দল ভারতে অবস্থানকালে আফ্রিদির মন্তব্য ভারতীয়দের মারাত্মক খেপিয়ে তুলেছিল। সেবার মোহালি ম্যাচের পর তিনি বলেন, মাঠে পাকিস্তান দলকে সমর্থন করতে কাশ্মিরের জনগণ এসেছে।

পরে তাকে এমন বক্তব্যের ব্যাখা দিতে হয়েছিল।

    

       

 


মন্তব্য