kalerkantho

শুক্রবার । ২ ডিসেম্বর ২০১৬। ১৮ অগ্রহায়ণ ১৪২৩। ১ রবিউল আউয়াল ১৪৩৮।


গয়নার পরিষ্কারের উপায়

কালের কণ্ঠ অনলাইন   

২৮ সেপ্টেম্বর, ২০১৬ ০১:২৫



গয়নার পরিষ্কারের উপায়

প্রায় সব মেয়েরই কম বেশি জুয়েলারির কালেকশন থাকে৷ কিন্ত্ত জুয়েলারি শুধু থাকলেই তো চলবে না, দরকার সেগুলো পরিষ্কার রাখা৷ আর ঠিক ভাবে গুছিয়ে রাখা৷ বিভিন্ন ধরনের গয়না পরিষ্কারের ধরন যেমন আলাদা ঠিক তেমনই তা গুছিয়ে রাখার কায়দাও ভিন্ন৷

হীরার গয়না- দামি স্টোনের মধ্যে হীরে অন্যতম৷ তবে এই দামি রত্নটি পরিষ্কার করার জন্য খুব বেশি ঝক্কি পোয়াবার প্রয়োজন নেই৷ সামান্য ঈষৎ উষ্ণ পানিতে কয়েক ফোটা লিকুইড সোপ ফেলে তার মধ্যে ঘণ্টা খানেক হীরের গয়না রেখে দিন৷ এরপর কোনও নরম ব্রাশ দিয়ে গয়নার ভেতরের দিক, উপরের দিক আর সাইড ভালো করে ঘষে নিলেই পরিষ্কার হয়ে যাবে৷ তারপর পরিষ্কার পানিতে ধুয়ে ১০ সেকেন্ড মতো টিস্যু পেপার দিয়ে মুড়ে রাখুন, এর ফলে জল টেনে যাবে৷ ব্যাস, সহজেই আপনার হীরের গয়না ফিরে পাবে আবার নতুন অবস্থার ঔজ্জ্বল্য৷

কীভাবে রাখবেন- হীরের গয়না সব সময় আলাদা রাখাই শ্রেয়৷ একসঙ্গে রাখলে অন্য গয়নার সঙ্গে ঘষা লেগে দাগ সৃষ্টি হওয়ার আশঙ্কা থাকে৷

রুপার গয়না- রুপার গয়না খুব কালচে হয়ে গেলে দোকানে দিয়ে পলিশ করার প্রয়োজন পড়ে৷ এছাড়া বাড়িতে পরিষ্কার করতে হলে গয়নাতে টুথপেস্ট লাগিয়ে বেশ খানিকক্ষণ রেখে দিন, এরপর পরিষ্কার, নরম কোনও কাপড় দিয়ে ভালো করে মুছে নিলেই গয়না একদম ঝকঝকে হয়ে যাবে৷

সোনা এবং প্ল্যাটিনামের গয়না- রুপার মতো সোনার গয়নাও খুব পুরনো হয়ে গেলে একবার দোকানে দিয়ে পলিশ করালেই আগের ঔজ্জ্বল্য ফিরে পাবে৷ তাছাড়া বাড়িতে পরিষ্কার করতে হলে ঈষৎ উষ্ণ জলে কয়েক ফোটা লিকুইড সোপ আর সামান্য একটু হলুদ গুঁড়া মিশিয়ে তারমধ্যে সোনার গয়না খানিকক্ষণ ভিজিয়ে রাখুন তারপর পরিষ্কার, শুকনো কাপড় দিয়ে ভালো করে মুছে নিন৷ প্ল্যাটিনামের গয়নার ক্ষেত্রে পরিষ্কার সুতির কাপড় দিয়ে ভালো করে মুছে পরিষ্কার করতে পারেন৷

নানা ধরনের রত্ন- সব ধরনের রত্ন একভাবে পরিষ্কার করা যায় না যেমন-ওপাল বা পান্না বাড়িতে পরিষ্কার করা মুশকিল৷ এক্ষেত্রে দোকানে দিয়ে পরিষ্কার করানোই ভালো৷

কীভাবে রাখবেন- সোনা, রূপা বা প্ল্যাটিনাম, একেক ধরনের গয়না আলাদা আলাদা ভাবে রাখাই ভালো৷ নরম কাপড়ের ব্যাগে ভরে বা গয়নার নিজস্ব বক্সে ভরে গয়না রাখুন৷ সব গয়না একটা বক্সে কখনওই রাখবেন না৷

মুক্তা- মুক্তা খুব ডেনিলকেট একটা জিনিস৷ তাই এটা পরিষ্কার বা রাখার ক্ষেত্রেও সতর্ক থাকা প্রয়োজন৷ মুক্তো অল্পতেই ক্ষতিগ্রস্ত হয়৷ এমনকী আপনার যদি খুব অয়েলি স্কিন হয়, তাতেও কিন্ত্ত মুক্তো ড্যামেজ হতে পারে৷ তাই মুক্তার ক্ষেত্রে বলা হয় ‘লাট অন ফাস্ট অফ’৷ মানে কোথাও যাওয়ার সময় আপনি একেবারে রেডি হয়ে সব শেষে মুক্তোর গয়না পরবেন এবং ফিরে এসে সবার আগে তা খুলে রাখবেন৷ মুক্তোর গয়না পরার পর বডি স্প্রে, পারফিউম, হেয়ার স্প্রে এসব কিছুই ব্যবহার করা উচিৎ নয়৷ প্রত্যেকবার ব্যবহার করার পর মুক্তো নরম কাপড় দিয়ে ভালো করে মুছে রাখা প্রয়োজন৷

কীভাবে রাখবেন- মুক্তার গয়না নরম কাপড় দিয়ে মুড়ে বক্সে করে রাখতে পারেন৷ এতে মুক্তো ভালো থাকবে৷ মুক্তার গয়না কখনওই ঝুলিয়ে রাখবেন না৷

কস্টিউম জুয়েলারি- এই ধরনের গয়না নানা ধরনের মেটেরিয়াল দিয়ে তৈরি করা হয়৷ তাই এই ধরনের গয়নাতে জল লাগানো উচিৎ নয়৷ ব্যবহারের পরে নরম, শুকনো কাপড় দিয়ে মুছে রাখলে গয়না ভালো থাকবে৷

কীভাবে রাখবেন- চুড়ি, হার, ব্রোচ সব আলাদা আলাদা করে একসঙ্গে বক্সে রাখতে পারেন৷ সব মিলিয়ে মিশিয়ে একসঙ্গে না রাখারই চেষ্টা করবেন৷

সূত্র: এই সময়


মন্তব্য