kalerkantho

মঙ্গলবার। ২১ ফেব্রুয়ারি ২০১৭ । ৯ ফাল্গুন ১৪২৩। ২৩ জমাদিউল আউয়াল ১৪৩৮।


একের পর এক বিয়ে করাই পেশা ইয়াসমিনের

কালের কণ্ঠ অনলাইন   

২০ সেপ্টেম্বর, ২০১৬ ১৮:০৯



একের পর এক বিয়ে করাই পেশা ইয়াসমিনের

সন্ধ্যা রায় মেয়ে, উত্পল দত্ত বাবা এবং রবি ঘোষ ছিলেন চাকরের চরিত্রে। কালজয়ী বাংলা সিনেমা 'ঠগিনী'র আদলে পরবর্তীতেও তৈরি হয়েছে বহু সিনেমা। সম্প্রতি 'ডলি কি ডোলি'-র কথাও বলা যেতে পারে। তবে ভারতের বেঙ্গালুরুর এই 'ঠগিনী'র কোনও পার্শ্ব চরিত্রের প্রয়োজন নেই। তিনি 'একাই একশো'। নয় নয় করে ৮টি বিয়ে করে ফেলেছেন। প্রত্যেকটি বিয়ের পর টাকা-গয় লুঠ করে পরের গন্তব্যের দিকে পা বাড়িয়েছেন ইয়াসমিন।

সোমবার ঘটনাটি সামনে আছে, যখন ইয়াসমিন বানু-র অষ্টম স্বামী ইমরান থানায় গিয়ে স্ত্রীর বিরুদ্ধে মামলা করেন। তিনি থানায় গিয়ে জানান, ইয়াসমিন তাঁকে রোজই টাকার জন্য চাপ দিতেন। এমনিতে বাড়ির বহু জিনিসই এক এক করে বিক্রি করেছেন তিনি। তার পরেও নানা ভাবে টাকার জন্য ইমরানকে চাপ দিত।

প্রায় একই রকম ঘটা ঘটেছিল আরও ২ জনের সঙ্গেও। তবে তা অন্য থানায়। কে জি হাল্লি থানার ওসি-র সন্দেহ হওয়ায় তিনি শহরেরই অন্য কয়েকটি থানায় ফোন করে খোঁজ নেন। তার ফলেই জানা যায় প্রায় একই ভাবে আরও ২ জন মামলা দায়ের করেন। শোয়েব এবং আফজল নামে ওই দুই ব্যক্তিকে থানায় ডেকে জিজ্ঞাসাবাদ করা হয়। তাতে দেখা যায় এঁদের স্ত্রী-ও ইয়াসমিন। অফজাল জানান, মোটা টাকার আবদার মেটাতে না পারায় ইয়াসমিন তাঁকে ছেড়ে চলে যান। আপাতত ৮ জন ব্যক্তির খোঁজ পেয়েছে পুলিশ যাঁদের বিয়ের পর এ ভাবেই লুট করে পালিয়েছে সে।  


মন্তব্য