kalerkantho


লম্বা গলার প্রাণীটির একটি নয়, চারটি প্রজাতি রয়েছে!

কালের কণ্ঠ অনলাইন   

১৪ সেপ্টেম্বর, ২০১৬ ১৭:০৫



লম্বা গলার প্রাণীটির একটি নয়, চারটি প্রজাতি রয়েছে!

একাধিক জিরাফের ছবি দেখে অনেকেই পার্থক্য করতে পারেন না। কিন্তু বিশেষজ্ঞরা বলছেন, জিরাফ একরকম মনে হলেও মূলত চারটি প্রজাতির জিরাফ রয়েছে, যা দেখে আমরা অনেকেই একই প্রজাতি বলে মনে করি।

এক প্রতিবেদনে বিষয়টি জানিয়েছে ফক্স নিউজ।
গবেষকরা সম্প্রতি ডিএনএ বিশ্লেষণ করে জিরাফের চারটি প্রজাতির কথা জানিয়েছেন। এ গবেষণায় সমগ্র আফ্রিকার ১৯০টি জিরাফের ডিএনএ বিশ্লেষণ করেন গবেষকরা।
গবেষকরা জানিয়েছেন, অনেকেই জিরাফের একটি প্রজাতি পৃথিবীতে রয়েছেন বলে মনে করতেন। তবে বাস্তবে জিরাফের চারটি প্রজাতি রয়েছে।
জিরাফের বিষয়ে গবেষকরা গুরুত্বপূর্ণ তথ্য সংগ্রহ করেছিলেন বহু আগেই। তবে শুধু চারটি প্রজাতিই নয়, জিরাফের আরও নয়টি উপ-প্রজাতি রয়েছে বলে জানিয়েছিলেন গবেষকরা। ১৭৫৮ থেকে ১৯১১ সাল পর্যন্ত ধারণা করা হত জিরাফের এ নয়টি উপ-প্রজাতি রয়েছে। এছাড়া গবেষকরা জানিয়েছিলেন জিরাফ আফ্রিকান নয়টি দেশে বাস করে। সে দেশগুলো হলো দক্ষিণ সুদান, ইথিওপিয়া, কেনিয়া, সোমালিয়া, উগান্ডা, দক্ষিণ আফ্রিকা ও জিম্বাবুয়ে।
জিরাফ নিয়ে সাম্প্রতিক গবেষণাটি প্রায় পাঁচ বছরে সমাপ্ত হয়েছে।   যে চারটি প্রজাতির সন্ধান পাওয়া গেছে, তাদের মধ্যে আফ্রিকার দক্ষিণের জিরাফগুলোই সবচেয়ে লম্বা বলে জানিয়েছেন গবেষকরা। এর পরের অবস্থানে রয়েছে উত্তরের জিরাফ। অন্য প্রজাতির জিরাফেরা এর পরের অবস্থানে রয়েছে।
অতীতে গবেষকরা যে নয় প্রজাতির জিরাফের কথা জানিয়েছিলেন, সেগুলোর সবই এখন এ চার প্রজাতির অন্তর্ভুক্ত বলে জানিয়েছেন গবেষকরা।
বর্তমানে বিশ্বে প্রায় এক লাখেরও কম জিরাফ রয়েছে। ৩০ বছর আগেই জিরাফের সংখ্যা প্রায় দেড় লাখ ছিল।
গবেষকরা জিরাফ নিয়ে নতুন গবেষণার ফলাফল প্রকাশ করেছেন কারেন্ট বায়োলজি জার্নালে।


মন্তব্য