kalerkantho


উকুন সমস্যার প্রাকৃতিক সমাধান

কালের কণ্ঠ অনলাইন   

২৮ ডিসেম্বর, ২০১৭ ১৭:১৬



উকুন সমস্যার প্রাকৃতিক সমাধান

ছবি অনলাইন

উকুনের সমস্যায় অনেকেই অস্থির হয়ে যান। চুল যাদের বড় তাদের এ সমস্যায় বেশি ভুগতে দেখা যায়। এছাড়া শিশুদেরও এ সমস্যা হতে পারে। একটি সহজ উপায়ে উকুন সমস্যা দূর করা যায়, যা তুলে ধরা হলো এ লেখায়।

উকুন দূর করার জন্য বিভিন্ন কোম্পানির মূল্যবান ওষুধ ও তেল-শ্যাম্পু পাওয়া যায়। সেগুলোর মাঝে অনেক কিছুই ভালো কাজ করে। কিন্তু এগুলোর ক্ষতিকর দিকও কম নয়।


আরো পড়ুন : চুল পড়া কমাতে কার্যকর ১৫টি ঘরোয়া দাওয়াই


কৃত্রিম রাসায়নিক উপাদানের কারণে উকুন দূর করতে গিয়ে চুল উঠিয়ে ফেলা কারোই কাম্য নয়। এ কারণে আমরা অনেকেই প্রাকৃতিক উপায়ের সন্ধান করি, যা ক্ষতি হয় না।

যা লাগবে- নিম পাতা

যেভাবে ব্যবহার করবেন

১. নিম পাতা মিহি করে বেটে নিন।

২. পরিষ্কার চুলে একদম আগাগোড়া নিম পাতার পেস্ট মেখে নিন। মাথায় তালু সহ সমগ্র চুলে, যেভাবে আমরা মেহেদি দিয়ে থাকি।


আরো পড়ুন : চুল স্ট্রেইট করছেন? ৫ ক্ষতি জেনে রাখুন


৩. এভাবে ২/৩ ঘণ্টা রাখুন, তারপর চুল ধুয়ে ভালো করে শ্যাম্পু করে নিন। শ্যাম্পু করার সময়ে বা করার পর উকুন নাশক চিরুনি দিয়ে চুল আঁচড়াবেন, দেখবেন যে বড় বড় উকুনেরা মরে ঝরে যাচ্ছে।

৪. প্রত্যেক সপ্তাহে ৩ বার করে এমন চালিয়ে যান টানা তিন সপ্তাহ।

৫. সবচাইতে ভালো হয় একদিন পর পর একদিন ব্যবহার করলে।

কয়েকটি নিয়ম মানুন

শুধু নিমপাতা মাখলেই হবে না, মেনে চলতে হবে কয়েকটি নিয়ম। এসব নিয়ম না মানলে নতুন করে উকুন আক্রমণ করবে।

 - একসাথে যারা থাকেন বা এক বিছানায় যারা ঘুমান, সকলেই একসাথে নিম পাতার পেস্ট ব্যবহার করবেন। কিংবা এক বাড়িতে যাদের যাদের মাথায় উকুন আছে, সকলকেই একসাথে ব্যবহার শুরু করতে হবে।

-যেদিন নিম ব্যবহার করবেন, সেদিনই বিছানার চাদর ও বালিশের ঢাকনা বদলে নেবেন।

- ভেজা চুল বেঁধে রাখবেন না বা চুলে ময়লা জমিয়ে রাখবেন না।

- অন্যের তোয়ালে, চিরুনি ইত্যাদি ব্যবহার ত্যাগ করতে হবে।

- মাথায় উকুন আছে, এমন কারো সাথে ঘনিষ্ঠ ভাবে বসে বা শুয়ে থাকবেন না, এক বিছানা শেয়ার করবেন না।  

 


মন্তব্য