kalerkantho


ক্লান্তিমোচনের জন্য ফরাসি যোগ বিশেষজ্ঞের পরামর্শ

কালের কণ্ঠ অনলাইন   

১১ ফেব্রুয়ারি, ২০১৭ ১৮:১১



ক্লান্তিমোচনের জন্য ফরাসি যোগ বিশেষজ্ঞের পরামর্শ

সারাদিন পরিশ্রমের কাজ কিংবা অফিস শেষে বাসায় ফিরে শরীরটা বিছানায় এলিয়ে দিতে ইচ্ছে করে। কিন্তু ইচ্ছে থাকলেই তো আর তা সম্ভব নয়। কারণ বাসায় রয়েছে হাজারটা সাংসারিক কাজ। এদিকে শরীর ভেঙে পড়ছে ক্লান্তিতে। কী করবেন? ফরাসি যোগ গবেষকরা আবিস্কার করেছেন কিছু নিয়ম। দেখে নিন এক নজরে:

১.‌ চোখকে বিশ্রাম দিন

অফিসের ডেস্কে বসে টানা অনেকক্ষণ কাজ করছেন। সামনে রাখা ডেস্কটপ। স্ক্রিনে লাগাতার চোখ রাখছেন?‌ মশাই, নয়ন যুগলকেও একটু বিশ্রাম দিন!‌ চেয়ারে বসা অবস্থায় মাথা বিশেষ নড়াচড়া না করে নিজের চোখের ব্যায়াম করে নিন!‌ কীভাবে?‌ কম্পিউটারের পর্দা থেকে চোখ সরিয়ে নিন। কল্পনা করুন সামনে রাখা একটা কাগজ। তার বড় হরফ আর ছোট হরফে লেখা কল্পিত অক্ষরগুলোর ওপর চোখ বোলাচ্ছেন যেন। তারপর কয়েক মুহুর্তের জন্য চোখদুটো বন্ধ করুন।

আর গভীরভাবে লম্বা শ্বাস নিন।

.‌কাঁধকে রাখুন চাপমুক্ত

শরীরে পিছনদিকের পেশিগুলোকে আরাম দেওয়াটা খুব জরুরি। কাঁধ ও কোমরের অংশের সঞ্চালনা এক্ষেত্রে প্রয়োজন। হাত দুটোকে হাঁটুর ওপর এনে বসা অবস্থায় চেয়ারের ওপর একটু এগিয়ে আসুন। বুকের অংশকে ফুলিয়ে নিয়ে পিঠ ও ঘাড়কে কৌনিক অবস্থানে রাখুন। তারপর নিঃশ্বাস নেওয়ার ভঙ্গিতে মাতাটাকে ওপরে তুলুন। পরের ধাপে বসা অবস্থায় পিছিয়ে যান। এরপর পিঠের মাঝ অংশের পশ্চাদপসরন এবং থুতনিকে সামনে ঝুঁকিয়ে বুকের ওপর নিয়ে আসা। একবার নয় অন্তত ৫ বার করুন। কাঁধের ব্যথা ও কাঠিন্যের জন্য আদর্শ এক কসরত। এটির নিয়মিত অনুশীলনে ভালোভাবে শ্বাস-‌প্রশ্বাসও নিতে পারা যাবে।

৩.‌ বাহুর যত্ন নিন!‌

কম্পিউটারের সামনে বসে অনেকক্ষণ ধরে টাইপ করেই যাচ্ছেন?‌ হাত, হাতের বাহু, চেটো ও আঙুলগুলোয় একটা সময় অসারতা টের পাবেনই!‌ উপায়?‌ চেয়ারে বসে বসেই সেরে নিন ব্যায়াম। দু হাতের বাহুকে সামনে প্রসারিত করুন। আঙুলগুলোকে ছড়িয়ে দিন। তারপর লম্বা শ্বাস নিন। কখনও দুই হাতের বাহুকে এমন লম্বালম্বিভাবে রাখুন যেন সামনের কোনও দেওয়ালে হাত দিয়ে রেখেছেন। তারপর শ্বাস ছাড়ুন। আর হাতের আঙুলগুলোকে এমন অবস্থানে নিয়ে আসুন যেন সেগুলো আপনার দিকেই তাক করে রয়েছে।

৪.‌আরাম কিন্তু কোমরেরও প্রাপ্য!‌

অনেকক্ষণ ধরে চেয়ারে বসে কাজ করলে কোমর সহ শরীরের নিম্নাঙ্গে প্রভাব পড়তে বাধ্য। সমস্যা কাটানোর পন্তা রয়েছে বৈ কী!‌ আপনার ডান পা’‌টিকে বাঁ পায়ের হাঁটুরওপর রাখুন। আর জান হাঁটুকে ক্রমাগত নীচের দিকে ঠেলে দেওয়ার চেষ্টা করে যান। মেরুদন্ড যতটা সম্ভব সোজা করে বসুন। চোখ বন্ধ করে নিঃশ্বাস নিতে থাকুন। খেয়াল রাখবেন আপনার ডান উরু যেন যেন আরও প্রসারিত হয়।

৫.‌ পায়ের সঞ্চালনাও জরুরি

কাজের ফাঁকে বিশ্রামটা আবশ্যক খুব সত্যি কথা। তবে, এটাও দেখতে হবে যেন অফিসের ডেস্কে বসে যখন কাজ করছেন তখন যেন পায়ের রক্ত সঞ্চালনে কোনও ব্যাঘাত নাঘটে। সেজন্য কী করা জরুরি?‌ নিঃশ্বাস নেওয়ার সময় ডান পা’‌টিকে সামনে বাড়িয়ে দিন। এরপর গোড়ালিকে নিজের দিকে নিয়ে আসুন যতক্ষণ না তা ঘরের সিলিং অভিমুখী হয়। এই অবস্থায় দশবার করে শ্বাস নিন। শ্বাস ছাড়ুন। ডান পায়ের কসরত শেষ হওয়ার পর বাঁ পায়ের ক্ষেত্রেও একইরকম করতে হবে।


মন্তব্য