kalerkantho

শুক্রবার । ৯ ডিসেম্বর ২০১৬। ২৫ অগ্রহায়ণ ১৪২৩। ৮ রবিউল আউয়াল ১৪৩৮।


যে পাঁচ কারণে ভাঙন ধরতে পারে দীর্ঘদিনের সম্পর্কে

কালের কণ্ঠ অনলাইন   

১৪ অক্টোবর, ২০১৬ ০০:৫৮



যে পাঁচ কারণে ভাঙন ধরতে পারে দীর্ঘদিনের সম্পর্কে

সঙ্গীর সঙ্গে‌ সম্পর্কের আগের সেই মাধুর্য হঠাৎ করে উধাও। মাঝে-মধ্যেই খটাখটি লেগে থাকে।

জানেন কী দু’‌জনের কয়েকটি ছোট ছোট ভুলের কারণেই তৈরি হয় সমস্যা। যা যেকোনো সম্পর্ক তিক্ততার পর্যায়ে নিয়ে চলে যায়। চিড় ধরাতে পারে দীর্ঘদিনের সম্পর্কে।

❏‌ সঙ্গীকে অবিশ্বাস:‌ যে কোন সম্পর্কের মূল ভিত্তি বিশ্বাস। কিন্তু আপনি যদি নিজের সঙ্গীকে বিশ্বাস না করেন, তাহলেই সমস্যা তৈরি হতে পারে। যাদের আগের কোনো সম্পর্ক থেকে আঘাত পাওয়ার অভিজ্ঞতা রয়েছে, দেখা যায় নতুন সম্পর্কের ক্ষেত্রে তাঁরা মাঝে মধ্যেই সন্দেহবাতিকগ্রস্ত হয়ে পড়েন। বিশ্বাস করতে চান না সঙ্গীকে। এক্ষেত্রে আগের সম্পর্কে ভুলে সঙ্গীকে বিশ্বাস করুন। কারণ আগের বার যেটা আপনার সঙ্গে হয়েছে, ফের নাও হতে পারে।

❏‌ অন্যের সম্পর্কের সঙ্গে তুলনা:‌ কোনো সম্পর্কই একদম সঠিক হতে পারে না। তাই কখনোই নিজেদের সম্পর্কের তুলনা অন্য কারও সম্পর্কের সঙ্গে করবেন না। এতে আপনার সঙ্গীর মনে অন্যরকম প্রতিক্রিয়ার সৃষ্টি হতে পারে। সে সম্পর্ক নিয়ে অনিশ্চয়তায় ভুগতে থাকবে, সে আপনার জন সঠিক নয় এরকম ভাবনাও জন্মাতে পারে।

❏‌ অতিরিক্ত রাগ:‌ সঙ্গী কোনো ছোট ভুল করলেও আপনি বেশি প্রতিক্রিয়া দেখিয়ে ফেলছেন, অল্পতেই বেশি রাগ দেখাচ্ছেন। কিংবা অন্য কারোর সঙ্গে হেসে কথা বললেই আপনি রেগে যাচ্ছেন। জানেন কী, আপনার এই ব্যবহারের ফলে আখেরে ক্ষতি হচ্ছে সম্পর্কের। কারণ তাঁর মনে হবে, আপনি অযথা ঝগড়া করতে চাইছেন কিংবা তাঁর ওপর আপনার একদমই বিশ্বাস নেই।

❏‌ সবসময় নিজের কথা ভাবা:‌ মাঝেমধ্যে নিজের কথা ভাবা খারাপ না। কিন্তু কোনো সম্পর্কে থাকলে অপরজনের কথাও চিন্তা করা উচিত। কারণ একটি সম্পর্কে থাকা মানে, দু’‌জনকে সবসময় একে ‌অপরের পরিপূরক হতে হয়। কিন্তু আপনি যদি সারাদিন নিজেকে নিয়ে ব্যস্ত থাকেন তাহলে অপরজনেরও খারাপ লাগতে পারে। তাই নিজের কথা বাদ দিয়ে সঙ্গী সারাদিন কী করছেন, কীভাবে কাটালেন?‌ এই খোঁজ-খবরও নেয়া প্রয়োজন। এতে তিনিও একটু আশ্বস্ত হতে পারবেন।

❏‌ দু’‌জনের ঝামেলায় বন্ধুদের জড়ানো:‌ সঙ্গীর সঙ্গে ঝামেলা। কিন্তু তাঁর মাঝে আপনি বন্ধুদের টেনে আনলে ঝামেলা কমার বদলে আরও বেড়ে যাবে। কারণ দু’‌জনের ঝামেলার মাঝে তৃতীয় কোনো ব্যক্তির আসাটা সঙ্গীর পছন্দ নাও হতে পারে। তাই বন্ধুদের না ডেকে নিজেরাই ঝামেলা মেটানোর চেষ্টা করুন। ‌

সূত্র: আজকাল


মন্তব্য