kalerkantho

বৃহস্পতিবার । ৮ ডিসেম্বর ২০১৬। ২৪ অগ্রহায়ণ ১৪২৩। ৭ রবিউল আউয়াল ১৪৩৮।


জেনে নিন, কেন বাড়ছে পরকীয়া?‌

কালের কণ্ঠ অনলাইন   

১৭ সেপ্টেম্বর, ২০১৬ ০০:১৩



জেনে নিন, কেন বাড়ছে পরকীয়া?‌

গতির যুগে সম্পর্ক ভাঙছে প্রতিনিয়ত। আর সেই সম্পর্ক যদি হয় স্বামী-‌স্ত্রীর তাহলে সংকট বাড়ে আরও।

দেখা গেছে, মতের অমিল হওয়ার পাশাপাশি বিবাহবহির্ভূত সম্পর্কও বিয়ে ভাঙার একটা বড় কারণ। কেন কেউ জড়ান পরকীয়ায়। একনজরে দেখে নেয়া যাক কারণগুলো।

❏‌ পরকীয়ার সবচেয়ে বড় কারণ হিসাবে দেখা গেছে তুলনামূলকভাবে কম বয়সে বিয়ে হওয়া। দেখা গেছে, বিবাহবহির্ভূত সম্পর্কে যাঁরা জড়াচ্ছেন। তাঁদের বেশিরভাগই ২৫-‌এর কম বয়সে বিয়ে করেছেন। মধ্যত্রিশের মাঝামাঝি গিয়ে অনেকেই সম্পর্কের নতুনত্ব খুঁজে পাচ্ছেন না। ফলে জড়িয়ে পড়েন পরকীয়ায়।

❏ মানসিকতার ফারাক বিবাহবহির্ভূত সম্পর্কে জড়ানোর আরও একটা কারণ। দেখা গেছে সম্বন্ধ করে বিয়ের ক্ষেত্রে অনেক সময়েই স্বামী স্ত্রী একে অপরের সম্পর্কে না জেনে বিয়ে করে নেন। পরে দেখা যায়, তাঁদের মধ্যে মানসিকতার বিরাট ফারাক। তার থেকে বাড়তে থাকে দূরত্ব। স্বামী, স্ত্রীর মধ্যে চলে আসেন তৃতীয় কেউ।

❏ বিয়ের পরে জীবনে অনেক পরিবর্তন আসে। দায়িত্ব বাড়ে। পারিপার্শ্বিক পরিস্থিতিও বদলে যায়। কিন্তু এই বদলকে মেনে নিতে পারেন না অনেকেই। তাঁরা ভুলে যান বিয়ের আগের মতো পরিবেশ পরিস্থিতি আর পাওয়া সম্ভব নয়। তার থেকে দাম্পত্য কলহ। বাড়ে মানসিক দূরত্ব। সেটাও পরকীয়ার একটা বড় কারণ।

❏ সন্তান হওয়ার পরে অনেক দম্পতির মধ্যে মানসিক দূরত্ব বাড়ে। সন্তানের অধিকার, তাকে লালনপালনে কে কতটা দায়িত্ব নেবে এসব নিয়েও চলে বচসা। এতেও তিক্ততা বাড়ে। আর তিক্ততা বাড়া মানেই পরকীয়ার সম্ভাবনা বাড়া।

❏ যৌনতায় অতৃপ্তি যে বিবাহবহির্ভূত সম্পর্কে জড়ানোর সবচেয়ে বড় কারণ সেটা মানেন সকলেই। শারীরিক তৃপ্তি যে কোনো সুস্থ মানুষের জীবনে গুরুত্বপূর্ণ চাহিদা। স্বামী বা স্ত্রীর কাছ থেকে সেটা না পেলে পরকীয়ায় জড়ান অনেকে।

❏ বিয়ে মানে শুধু যৌনতা তো আর নয়। আবেগ এবং মূল্যবোধও কাজ করে এক দম্পতির মধ্যে। সেটা শেষ হলে সম্পর্কও শেষ। শুরু হয় পরকীয়া।

❏ শুনতে আশ্চর্য লাগলেও সত্যি যে অনেকে স্রেফ অ্যাডভেঞ্চারের নেশায় পরকীয়ায় জড়ান। কারণ কে না জানে, নিষিদ্ধ কাজের ‘‌মজা’‌ই আলাদা।

❏ টাকা পয়সাও পরকীয়ায় জড়িয়ে পড়ার আর একটা কারণ। অনেক সময় দেখা গেছে, স্বামী স্ত্রীর হাতে গোনাগুন্তির বেশি টাকা দেন না। এদিকে গৃহবধূ স্ত্রী নিজের সাধ মেটানোর জন্য তাই বাইরে খুঁজে নেন অন্য কোনও প্রেমিক, যিনি ওই নারীর ছোটখাট সাধ আহলাদ পূরণ করবেন।

❏ বিবাহ বহির্ভূত সম্পর্ককে কেরিয়ারের উন্নতির সিঁড়ি হিসাবে ব্যবহার করেন অনেকে। পদোন্নতি কিংবা মাইনে বাড়িয়ে নেয়ার লক্ষ্যে কর্মক্ষেত্রে নতুন সম্পর্কে জড়িয়ে পড়ার ঘটনা বিরল নয়। ‌

সূত্র: আজকাল


মন্তব্য