kalerkantho

রবিবার। ৪ ডিসেম্বর ২০১৬। ২০ অগ্রহায়ণ ১৪২৩। ৩ রবিউল আউয়াল ১৪৩৮।


ঘর গোছাতে যখন সঙ্গীর পছন্দ ভালো লাগে না...

কালের কণ্ঠ অনলাইন   

১২ সেপ্টেম্বর, ২০১৬ ১৮:৫০



ঘর গোছাতে যখন সঙ্গীর পছন্দ ভালো লাগে না...

সঙ্গী-সঙ্গিনীকে অনেক ভালোবাসেন। কিন্তু বাড়ি গোছানোতে তাদের রুচিকে অপছন্দ করেন? এক ছাদের নিচে যখন বাস করছেন তখন বাড়ি গোছাতে দুজন মিলে জিনিসপত্র পছন্দ করেন।

কিন্তু সঙ্গীর বাজে পছন্দের কারণে আপনি হতাশ। এ ক্ষেত্রে করণীয় প্রসঙ্গে পরামর্শ দিয়েছেন বিশেষজ্ঞরা।

বাজে দেখতে টেবিল ল্যাম্প, আপত্তিকর চিত্রকর্ম কিংবা বেডরুমের বিচ্ছিরি বালিশগুলো বাদ দিতে কোনো কূটনৈতিক উপায় থাকলেই সমাধান মেলে।

দ্য ইন্টেরিয়র ডিজাইন একাডেমির সিনিয়র ডিজাইনার সিমোন সাভেজ জানান, হালকা ওজনের আসবাবের ব্যবহার সত্যিকার অর্থে অনেক ঝামেলা মিটিয়ে দেয়। কিন্তু যখন বিছানা বা সোফার কুশন বা সাজানো কোনো বিষয় আসে, তখনই সমস্যা দেখা দেয়। এগুলো বাছাই করতে দুজনের আলোচনা অনেক সমস্যা মিটিয়ে দিতে পারে। দুজন যাই কেনেন না কেন মনে রাখবেন, অর্থ ব্যয় কেন করছেন?

আবার দুজনেরই অপরের চাহিদা ও পছন্দের বিষয়ে ছাড় দেওয়া উচিত। একজন যদি পুরো নিয়ন্ত্রণ নিয়ে ফেলেন, তবে অপরজন সবকিছু থেকে নিজেকে আলাদা করে নেবেন। বিশেষ করে দুজনের ব্যক্তিগত স্মৃতিময় জিনিস বা পারিবারিক ঐতিহ্যবাহী বিষয়গুলোকে সম্মান জানানো উচিত।

খুব সাধারণ আলোচনার মাধ্যমে দুজন সমমতে উপনীত হতে পারেন। এটা মোটেও কঠিন কোনো কাজ নয়। অন্যান্য সম্পর্কের মতোও এই আলোচনা ক্ষতিকর করে তোলা উচিত নয়।

ধরুন, স্ত্রীর কেনা কোনো টেবিল ল্যাম্প আপনার পছন্দ হলো না। সে ক্ষেত্রে মনে হবে, কেউ যদি এটাকে দুর্ঘটনাক্রমে ভেঙে ফেলতো, মজা করে বলেন সাভেজ। কিংবা বুদ্ধি করে আপনি নিজেই একটি উপহার দিতে পারেন। এতে আপনার পছন্দেরটিই স্থান পাবে। আবার অপছন্দের জিনিসটিকে অন্যান্য অ্যাকসেরসরিজের সমন্বয়ে আরো সুন্দর করে তুলতে পারেন।

ডিজাইন প্লাটফর্ম হাউজ অস্ট্রেলিয়ার এডিটর জেনি ড্রিউ জানান, এক জরিপে দেখা গেছে, এক তৃতীয়াংশ মানুষ তার বাড়ি সাজাতে নিজের পছন্দকে স্পষ্ট করতে পারেন না। আবার অনেকে সঙ্গীর রুচির ওপরই নির্ভর করে থাকেন।

কিন্তু টাইলসের ডিজাইন কি হবে, কোন ধরনের আসবাব কেনা হবে, ডাইনিং টেবিল কোথায় থাকবে ইত্যাদি সব বিষয়ে বিতর্ক চলতেই থাকে। তবে বিতর্ক থেকে বাঁচতে নানা ধরনের জিনিসের সমন্বয় ঘটানো যেতে পারে। দুজনের আলাদা আলাদা পছন্দের জিনিস কেনা যেতে পারে।

আসলে এ বিষয়ে দুজনের মতামত ও আলোচনা ছাড়া সমস্যা থেকে পরিত্রাণের পথ থাকে না। সূত্র : ডোমেইন

 


মন্তব্য