kalerkantho

মঙ্গলবার । ২৪ জানুয়ারি ২০১৭ । ১১ মাঘ ১৪২৩। ২৫ রবিউস সানি ১৪৩৮।


কুকুর যেভাবে ডায়াবেটিস ও ক্যান্সার নির্ণয় করতে পারে

কালের কণ্ঠ অনলাইন   

২২ মার্চ, ২০১৬ ১৫:৩৫



কুকুর যেভাবে ডায়াবেটিস ও ক্যান্সার নির্ণয় করতে পারে

মানুষের দেহে কোনো কঠিন রোগ বাসা বাঁধলে তা নির্ণয় করার জন্য শুধু যন্ত্রই নয়, বিভিন্ন প্রাণীও যথেষ্ট কার্যকর। কুকুর ক্যান্সার কিংবা ডায়াবেটিসের মতো কঠিন রোগ সহজেই শনাক্ত করতে পারে, এমনটা কয়েকটি উদাহরণ দেখা গেছে।

এক প্রতিবেদনে বিষয়টি জানিয়েছে ন্যাশনাল জিওগ্রাফিক।

কুকুরকে প্রশিক্ষিত করলে তারা ঘ্রাণশক্তি ব্যবহার করে মানুষের কয়েকটি রোগ তাৎক্ষণিকভাবে নির্ণয় করতে পারে। এসব রোগের মধ্যে রয়েছে ডায়াবেটিস ও ক্যান্সার। এক উদাহরণে দেখা যায়, প্রশিক্ষিত ব্ল্যাক ল্যাব্রাডর কুকুর তার মনিবের রক্তের গ্লুকোজের মাত্রাবৃদ্ধি নির্ণয় করতে পারছে।

সাত বছর বয়সী এক শিশুর নাম লিউক নুটাল। তার এ বয়সেই টাইপ ওয়ান ডায়াবেটিস হয়েছে। এ অবস্থায় তার কুকুরটিকে প্রশিক্ষণ দেওয়া হয় তার দেহের গ্লুকোজের মাত্রা বেড়ে গেলে তা অন্যদের জানিয়ে দেওয়ার জন্য। এরপর থেকে লিউকের রক্তের গ্লুকোজের মাত্রা বেড়ে গেলে সে তার মাকে ডেকে নিয়ে আসে।
ক্যালিফোর্নিয়ার এ পরিবারটি সম্প্রতি কুকুরটির এ ডায়াবেটিস শনাক্ত করার ভিডিও অনলাইনে ছেড়েছে। যেখানে দেখা যায়, ঘ্রাণশক্তি ব্যবহার করেই রোগ নির্ণয় করতে পারছে কুকুরটি।
কুকুরের এ ক্ষমতার মূল কারণ হলো তার নাক। কুকুরের নাক অত্যন্ত সংবেদনশীল ও জটিল। প্রশিক্ষণ দেওয়া হলে এটি শুধু বোমা ও ড্রাগই খুঁজতে পারে না, এটি মানুষের নানা রোগও নির্ণয় করতে পারে।
কুকুর যেসব ক্যান্সার নির্ণয় করতে পারে তার মধ্যে রয়েছে প্রোস্টেট ক্যান্সার, কলোরেক্টাল ক্যান্সার ও মেলানোমা।

তবে কুকুর মানুষের দেহের কোন ধরনের গন্ধ থেকে এ রোগগুলো নির্ণয় করতে পারে, তা এখনও গবেষকরা নির্ণয় করতে পারেননি বলে জানান যুক্তরাষ্ট্রের ইউনিভার্সিটি অব পেনসিলভানিয়ার পেন ভেট ওয়ার্কিং ডগ সেন্টারের গবেষক সিন্ডি ওট্টো।

তবে ধারণা করা হয়, ডায়াবেটিস ও ক্যান্সারের কারণে মানুষের দেহে কিছু রাসায়নিক প্রতিক্রিয়া হয়, যাতে দেহের গন্ধ পাল্টে যায়। পাল্টে যাওয়া এ গন্ধ থেকেই কুকুর নির্ণয় করতে পারে রোগটি।

ভিডিওতে দেখুন আরও তথ্য :


মন্তব্য