kalerkantho


‘মূল পরিকল্পনাকারীই ছিলেন তারেক’

নিজস্ব প্রতিবেদক   

১২ সেপ্টেম্বর, ২০১৮ ০০:০০



‘মূল পরিকল্পনাকারীই ছিলেন তারেক’

২১ আগস্ট গ্রেনেড হামলা মামলায় আইনগত যুক্তিতর্ক উপস্থাপন করে রাষ্ট্রপক্ষ বলেছে, জঙ্গিদের সঙ্গে তারেক রহমানের সুসম্পর্ক থাকায় তারা সম্মিলিতভাবে আওয়ামী লীগের সমাবেশে হামলা চালায়। চারদলীয় জোট সরকারের আমলে দেশ পরিচালিত হতো হাওয়া ভবন থেকে। হাওয়া ভবনের নেতৃত্বে ছিলেন তারেক রহমান। তিনি যেভাবে চালাতেন, দেশ সেভাবে চলত।

গতকাল মঙ্গলবার ২১ আগস্ট গ্রেনেড হামলার ঘটনায় হত্যা ও বিস্ফোরকদ্রব্য আইনের দুটি মামলায় আইনগত বিষয়ে যুক্তিতর্ক উপস্থাপনের সময় রাষ্ট্রপক্ষের আইনজীবী মোশাররফ হোসেন কাজল এসব কথা বলেন।

রাজধানীর নাজিমুদ্দীন রোডে পুরনো কেন্দ্রীয় কারাগারের পাশে স্থাপিত ঢাকার ১ নম্বর দ্রুত বিচার ট্রাইব্যুনালে মামলার আইনগত যুক্তিতর্ক শুনানি চলছে। বিচারক শাহেদ নূর উদ্দিন দুটি মামলার বিচারকাজ একসঙ্গে চালাচ্ছেন।

এর আগে আসামিপক্ষ যুক্তিতর্ক উপস্থাপনের সময় এ মামলার অধিকতর তদন্ত নিয়ে প্রশ্ন তুলেছিল। ওই সব যুক্তি খণ্ডন করে মোশাররফ হোসেন কাজল বলেন, অধিকতর তদন্তের মাধ্যমে এ মামলায় মূল রহস্য উদ্ঘাটন হয়েছে। এতে ঘটনার পরিকল্পনাকারীরা সম্পৃক্ত হয়েছে। জোট সরকার এ মামলার ঘটনা ভিন্ন খাতে প্রবাহিত করার চেষ্টা করেছিল। সেগুলো স্পষ্ট হয় পরে তদন্তে। রাষ্ট্রপক্ষের আইনজীবী বলেন, ফৌজদারি মামলায় যেকোনো সময় অধিকতর তদন্তে আইনি কোনো বাধা নেই।

অ্যাডভোকেট কাজল অধিকতর তদন্ত সঠিক হয়নি দেখিয়ে আসামিপক্ষের দাখিল করা উচ্চ আদালতের পাঁচটি নজির বা সিদ্ধান্ত খণ্ডন করেন। অধিকতর তদন্ত সঠিক হয়েছে মর্মে তিনিও উচ্চ আদালতের রায়ের বিভিন্ন নজির তুলে ধরেন। তিনি বলেন, মামলা চলাকালে যেকোনো সময় মামলার তথ্য উদ্ঘাটিত হতে পারে।

এ মামলায় আসামিদের বিরুদ্ধে অভিযোগ গঠন বিষয়ে রাষ্ট্রপক্ষের আইনজীবী কাজল বলেন, অভিযোগ গঠনও যেকোনো সময় পরিবর্তন হতে পারে। আসামিদের বিরুদ্ধে অভিযোগ গঠন সঠিক হয়েছে উল্লেখ করে তিনি বলেন, যদি কোথাও ভুল হয়ে থাকে আদালত অভিযোগ সংশোধন করতে পারেন।

আগের দিনের মতো গতকালও কাজল বলেন, আওয়ামী লীগকে নিশ্চিহ্ন করতে তৎকালীন বিরোধীদলীয় নেতা শেখ হাসিনাকে হত্যার চেষ্টা করা হয়েছিল। টার্গেটও ছিলেন তিনি। তারেক রহমান তাঁদের ক্ষমতা পাকাপোক্ত করতেই জঙ্গিদের প্রতি সহযোগিতার হাত বাড়িয়ে দেন। মূল পরিকল্পনাকারীই ছিলেন তারেক রহমান।

গত বছর ২৩ অক্টোবর এ মামলার যুক্তিতর্ক শুনানি শুরু হয়। আসামিপক্ষের যুক্তিতর্ক শুনানি শেষ হয়েছে। গতকাল ১১৬তম কার্যদিবসের যুক্তিতর্ক শুনানি চলছিল। আজ আবার শুনানির দিন ধার্য রয়েছে। দ্রুত বিচার ট্রাইব্যুনাল-১-এর সরকারি কৌঁসুলি আবু আব্দুল্লাহ ভূঁইয়া রাষ্ট্রপক্ষে যুক্তিতর্ক শুনানি করবেন।



মন্তব্য