kalerkantho


সিলেটের দুই যুবক রহস্যজনক নিখোঁজ

সিলেট অফিস   

৯ সেপ্টেম্বর, ২০১৮ ০০:০০



সিলেটের দুই যুবক রহস্যজনক নিখোঁজ

সিলেট নগরের টিলাগড় এলাকা থেকে ১২ ঘণ্টার ব্যবধানে দুই যুবক রহস্যজনকভাবে নিখোঁজ হয়েছেন। গত বুধবার সন্ধ্যায় ওই এলাকা থেকে প্রথমে নিখোঁজ হন ইমাদ উদ্দিন সুহিন (২৪) নামের এক তরুণ। পরদিন বৃহস্পতিবার সকাল ১০টার দিকে টিলাগড়ের শাপলাবাগ ২ নম্বর রোড থেকে কলেজ ক্যাম্পাসে যাওয়ার পথে নিখোঁজ হন সাজ্জাদ হোসেন (২৪) নামের আরেক যুবক। অনেক খোঁজাখুঁজি করেও পরিবার এবং আইন-শৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনীর সদস্যরা তাঁদের সন্ধান পায়নি।

নিখোঁজ সুহিন মৌলভীবাজার জেলার কমলগঞ্জের শংকরপুর গ্রামের মো. রফিজ মিয়ার ছেলে এবং সাজ্জাদ হবিগঞ্জ জেলার শায়েস্তাগঞ্জের পশ্চিম নোয়াগাঁও গ্রামের মুক্তিযোদ্ধা ইদ্রিছ আলীর ছেলে। সাজ্জাদ সিলেট এমসি কলেজের রাষ্ট্রবিজ্ঞান বিভাগের তৃতীয় বর্ষের শিক্ষার্থী।

ইমাদ উদ্দিনের পরিবারের সঙ্গে কথা বলে জানা গেছে, গত বুধবার বিকেলে মৌলভীবাজার উপজেলার ভানুগাছ থেকে পাহাড়িকা এক্সপ্রেস ট্রেনে চেপে সিলেট আসেন ইমাদ। সিলেট পৌঁছে পরিচিত একজনের সঙ্গে দেখা করতে নগরের টিলাগড় যান তিনি। এর পর থেকে তাঁর মোবাইল ফোনটি বন্ধ পাওয়া যায়। ইমাদের মামা হাফিজুর রহমান জানান, বুধবার সন্ধ্যা ৭টার পর থেকে ইমাদের সঙ্গে তাঁদের যোগাযোগ বিচ্ছিন্ন হয়। তিনি বলেন, ‘ইমাদ অনেক আগেই লেখাপড়া ছেড়ে দিয়েছিল। সিলেটে এক বড় ভাইয়ের সঙ্গে দেখা করতে গিয়ে সে নিখোঁজ হয়।’ পুলিশ ও র‌্যাবকে বিষয়টি জানানো হয়েছে জানিয়ে তিনি বলেন, ‘এর মধ্যে অপরিচিত একটি নম্বর থেকে ফোন করে ৫০ হাজার টাকা মুক্তিপণ চাওয়া হয়েছে।’

নগরের টিলাগড় এলাকার শাপলাবাগ ২ নম্বর রোড থেকে নিজ কলেজ ক্যাম্পাসে যাওয়ার পথে নিখোঁজ হন সাজ্জাদ আহমদ। সাজ্জাদের ভাই সুজায়েদ মিয়া বলেন, ‘বৃহস্পতিবার সকাল ১০টার পর থেকে তাকে পাওয়া যাচ্ছে না। তার খেঁজ না পেয়ে আমরা থানায় জিডি (সাধারণ ডায়েরি) করেছি।’ সাজ্জাদের রুমমেট হবিগঞ্জ জেলা ছাত্র সমন্বয় পরিষদ এমসি কলেজের সাধারণ সম্পাদক মোস্তাফিজুর রহমান জয় বলেন, ‘সাজ্জাদ শান্ত প্রকৃতির ছেলে। কারো সঙ্গে তার শত্রুতাও নেই। কী হয়েছে বুঝতে পারছি না।’

এ বিষয়ে যোগাযোগ করা হলে সিলেট মহানগর পুলিশের শাহপরান থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আখতার হোসেন কালের কণ্ঠকে বলেন, ‘এখনো তাদের কোনো সন্ধান পাওয়া যায়নি। তবে নিখোঁজ দুজনকে উদ্ধারে পুলিশ তৎপর রয়েছে।’ দুজন নিখোঁজের ঘটনায় মামলা হয়েছে বলে জানান এই পুলিশ কর্মকর্তা।

র‌্যাব-৯-এর সিনিয়র সহকারী পরিচালক (গণমাধ্যম) মো. মনিরুজ্জামান বলেন, ‘নিখোঁজ হওয়ার খবরগুলো আমাদের কাছে আছে। তাদের সন্ধান পাওয়ার চেষ্টা চলছে।’



মন্তব্য