kalerkantho


সবিশেষ

‘ব্ল্যাক ডেথে’র দায় ইঁদুরের নয়!

কালের কণ্ঠ ডেস্ক   

১৭ জানুয়ারি, ২০১৮ ০০:০০



‘ব্ল্যাক ডেথে’র দায় ইঁদুরের নয়!

গত শতাব্দীর চৌদ্দ থেকে উনিশের দশকে ইউরোপজুড়ে কয়েক দফায় মহামারি আকার ধারণ করে প্লেগ। মৃত্যু হয় লাখ লাখ মানুষের। মূলত ওই মহামারিই ইতিহাসে পরিচিত ‘ব্ল্যাক ডেথ’ হিসেবে। বিজ্ঞানীদের মধ্যে একটা বড় অংশের ধারণা, ইঁদুরের মাধ্যমে ওই রোগ ছড়িয়েছিল। কিন্তু আজ এসে নতুন দাবি তুলেছেন নরওয়ে ও ইতালির বিজ্ঞানীরা। তাঁরা বলছেন, ইঁদুরের মাধ্যমে নয়, প্লেগ ছড়িয়েছিল উকুন ও এক ধরনের মাছির মাধ্যমে, যেগুলো প্রতিনিয়ত মানবশরীরের সংস্পর্শে আসে।

গবেষণাটি যৌথভাবে করেছেন নরওয়ের ইউনিভার্সিটি অব অসলো এবং ইতালির ইউনিভার্সিটি অব ফেরারার একদল বিজ্ঞানী। ইউনিভার্সিটি অব অসলোর অধ্যাপক নিলস স্টেনসেথ বিবিসিকে বলেন, ‘আমরা ইউরোপের ৯টি শহরের প্লেগের ধরন নিয়ে কাজ করেছি। আমাদের কাছে যে নথি ছিল, তা ধরে ওই ৯টি শহরের প্লেগের ব্যাপ্তি ও রকমফের বের করা আমাদের জন্য সহজ ছিল।’

স্টেনসেথ জানান, মোট তিনটি পূর্বানুমান ধরে গবেষণাটি এগিয়েছে। প্রথমত, ইঁদুরের মাধ্যমে প্লেগ ছড়িয়েছে; দ্বিতীয়ত, বাতাসের মাধ্যমে এবং তৃতীয়ত, মাছি ও উকুনের মাধ্যমে, যা মানুষের সংস্পর্শে আসে।

গবেষকরা বলেন, একেকটি মাধ্যমে ছড়ানো রোগের ধরন স্বাভাবিকভাবেই আলাদা হয়। এ কারণে এই ধরন ধরেই গবেষণা চালান তাঁরা। তাতে দেখা গেছে, ৯টির মধ্যে সাতটি শহরে প্লেগের ধরন ছিল মাছি এও উকুনের মাধ্যমে ছড়ানো রোগের মতো। সূত্র : বিবিসি।



মন্তব্য