kalerkantho


দ্রুত টাক পড়ে ফর্সা ও বেঁটেদের!

কালের কণ্ঠ ডেস্ক   

১১ মার্চ, ২০১৭ ০০:০০



দ্রুত টাক পড়ে ফর্সা ও বেঁটেদের!

অতিরিক্ত চুল পড়া কিংবা মাথা টাক হয়ে যাওয়ার সঙ্গে মানুষের উচ্চতা ও গায়ের রঙের সম্পর্ক রয়েছে। আর এটা কোনো কবিরাজি তত্ত্ব নয়, বরং গবেষণার ফল।

জার্মানির একদল গবেষক বলেছেন, বেঁটে ও ফর্সা মানুষদের চুল তাড়াতাড়ি পড়ে যায়।

গবেষকদলের সদস্যরা জার্মানির বন বিশ্ববিদ্যালয়ের। তাঁরা ৬৩ ধরনের জিন সংগ্রহ করে সেগুলোর ওপর পরীক্ষা-নিরীক্ষা চালিয়েছেন। তাতে দেখা গেছে, বেঁটে ও সাদা চামড়ার মানুষদের মধ্যে টাক পড়ার প্রবণতা সবচেয়ে বেশি। তবে প্রস্টেট ক্যান্সার বা অন্য কোনো রোগ, যার কারণে শরীরের মাপ ছোট হয়, সেখানেও দ্রুত চুল পড়ার লক্ষণ পাওয়া গেছে।

বন বিশ্ববিদ্যালয়ের গবেষকরা ২০ হাজার পুরুষের জিনের ওপর পরীক্ষা চালিয়েছিলেন। তাদের মধ্যে দেখা গেছে, সাত দেশের ১১ হাজার পুরুষেরই দ্রুত টাক পড়ে গেছে। সেই ১১ হাজার পুরুষের ওপর করা পরীক্ষা থেকে পাওয়া তথ্যের ভিত্তিতে গবেষকদের দাবি, যাদের আগে বয়ঃসন্ধি হয়েছে, অসুখের কারণে শরীরের বিভিন্ন অঙ্গের মাপ ছোট এবং বিভিন্ন ধরনের ক্যান্সারে আক্রান্ত, তাদেরই চুল পড়ার প্রবণতা বেশি।

এগুলো ছাড়াও যাদের হৃদযন্ত্রের সমস্যা রয়েছে, তারাও টাকজনিত সমস্যায় আক্রান্ত।

তবে ফর্সা লোকদের টাক পড়ার সমস্যা এড়াতে গবেষকরা সূর্যের আলো নেওয়ার পরামর্শ দিয়েছেন। এর ফলে শরীরে ভিটামিন ডি তৈরি হবে এবং চুল পড়ার সমস্যা কিছুটা হলেও কমবে। সূত্র : এবিপি আনন্দ।


মন্তব্য