kalerkantho


টেক সাপোর্ট চাইতে গিয়ে যে ভুল আমরা সবাই করি

কালের কণ্ঠ অনলাইন   

১৭ অক্টোবর, ২০১৬ ১২:৩৯



টেক সাপোর্ট চাইতে গিয়ে যে ভুল আমরা সবাই করি

প্রযুক্তিগত বিষয়ে নানা ধরনের সমস্যায় আমরা প্রায়ই পড়ি। আর এর সমাধান চাইতে হয় অন্য কোনো ব্যক্তির কাছে।

তবে তার কাছে সমস্যাটি সঠিকভাবে না বলার কারণে তা নির্ণয় করা সম্ভব হয় না। এতে ভোগান্তি অনেকাংশে বেড়ে যায়। এ ভুলটি বাদ দিতে পারলে আমাদের টেক সাপোর্টের জটিলতা অনেকাংশে কমে যায়। এক প্রতিবেদনে বিষয়টি জানিয়েছে সিনেট।
ধরুন আপনার ইন্টারনেট নেই বলেই মনে হলো। এ পরিস্থিতিতে আপনি টেক সাপোর্টে জানাবেন, এটাই স্বাভাবিক। আর এ পরিস্থিতিতে স্বাভাবিকভাবে টেক সাপোর্টের যে কাজ তাই করতে হবে। যেমন প্রথমেই মডেম রিস্টার্ট করা। ওয়াইফাই সংযোগ বিচ্ছিন্ন করে নতুন করে সংযোগ দেওয়া। এরপর নেটওয়ার্কের লাইটগুলো জ্বলছে কি না, সংযোগের তার ঠিক আছে কি না, আইকনে কোনো ক্রস আছে কি না তা পরীক্ষা করা হবে। ইত্যাদি পরীক্ষার পর সবই যদি ঠিক পাওয়া যায় তাহলে তার পর আরও কিছু বিষয় নিয়ে পরীক্ষার প্রয়োজন হবে। কিন্তু বহু পরীক্ষার পর যদি দেখা যায় আদতে নেট ছিল না তা নয়। এটি একটি নির্দিষ্ট ওয়েবসাইটের সমস্যা।
টেক সাপোর্টদাতা যখন জিজ্ঞাসা করলেন, আপনি কিভাবে বুঝলেন যে ইন্টারনেট নেই? তখনই বিষয়টি জানা গেল। তিনি ভুল ঠিকানা টাইপ করেছিলেন। আর এ কারণে ব্রাউজারে কোনো তথ্য প্রদর্শিত হয়নি। আর ইরর মেসেজ দেখেই তিনি ধরে নিয়েছেন ইন্টারনেট সংযোগ নেই।
সমস্যাটি সঠিকভাবে উপস্থাপন করুন
একটি সমস্যাকে অন্য সমস্যা বলে মনে করা টেক সাপোর্টের ক্ষেত্রে বড় সমস্যা। আর এ সমস্যার কারণে প্রচুর সময় ও শ্রম নষ্ট হয়। এক্ষেত্রে একটি উপায় অবলম্বন করলে সমস্যাটি অনেকাংশে দূর করা যায়।
এক্ষেত্রে ‘আমার কম্পিউটারে ইন্টারনেট নেই’, এ কথা আপনার সমস্যা সমাধান করার জন্য যথেষ্ট নয়। তাহলে কী বলতে হবে?
দ্রুত সমাধানের জন্য সমস্যাটি সঠিকভাবে বলতে হবে। যেমন আমার ওমুক সাইটটা আসছে না। এছাড়া বলা যেতে পারে ওমুক ইরর মেসেজটি এসেছে। এতে সমস্যাটি বুঝতে সুবিধা হবে টেক সাপোর্টদাতাদের।
সঠিকভাবে সমস্যা নির্ণয় করতে পারলে তা সমাধান করাও সহজ। আর এ কারণে বিষয়টি সঠিকভাবে উপস্থাপন করা খুবই গুরুত্বপূর্ণ বিষয়। আর বিষয়টি সঠিকভাবে উপস্থাপন করতে পারলে তা সমাধানও সহজ হয়।


মন্তব্য