kalerkantho


ভিডিও চ্যাট করে গ্রেপ্তার হলেন সৌদি ইউটিউব স্টার

কালের কণ্ঠ অনলাইন   

২৯ সেপ্টেম্বর, ২০১৬ ১৪:১৩



ভিডিও চ্যাট করে গ্রেপ্তার হলেন সৌদি ইউটিউব স্টার

সম্প্রতি অনলাইনে এক মার্কিন ব্লগারের সঙ্গে ভিডিও চ্যাট করে গ্রেপ্তার হলেন সৌদি আরবের আবু সিন নামে ২১ বছর বয়সী এক তরুণ ইউটিউব তারকা। তার বিরুদ্ধে ভিডিও চ্যাটে অনৈতিক আচরণের অভিযোগ করেছে পুলিশ। এক প্রতিবেদনে বিষয়টি জানিয়েছে ইন্ডিপেনডেন্ট।
মূলত অনলাইনে লাইভ ভিডিওতে মার্কিন সেই তরুণীর সঙ্গে সংযুক্ত হন সৌদি সেই তরুণ। আর মার্কিন তরুণী ক্রিস্টিনা ক্রকেট ক্যালিফোর্নিয়া থেকেই তার সঙ্গে ভিডিও চ্যাট করেন। তবে সে ভিডিও চ্যাটের দৃশ্য রেকর্ড করে ইউটিউবে ছাড়াতেই শুরু হয় বিপত্তি।
উভয়ের লাইভ ভিডিওর সেই দৃশ্য বহু মানুষ অনলাইনে দেখে এবং তা ব্যাপকভাবে আলোচিত-সমালোচিত হয়। এতে ভিডিওটিতে নজর পড়ে সৌদি আরবের সরকারেরও। তারা বিষয়টিকে অনৈতিক আখ্যা দিয়ে সে তরুণকে গ্রেপ্তার করে।
মূলত ভিডিওটিতে দুই ভাষাভাষী মানুষের মাঝে পারস্পরিক ভাব বিনিময়ের ছিল। আর এতে তারা একে অপরকে পছন্দ করার অভিনয় করছিলেন।


এ বিষয়ে সৌদি আরবের রিয়াদ পুলিশের মুখপাত্র কর্নেল ফাওয়াজ আল-মায়ম্যান বলেন, আবু সিনকে অনৈতিক কর্মকাণ্ডের জন্য গ্রেপ্তার করা হয়েছে।
তিনি আরও বলেন, ‘তার ভিডিওতে বহু মন্তব্য এসেছে সাধারণ মানুষের কাছ থেকে। তাতে তারা তাকে শাস্তির আওতায় আনার দাবি জানিয়েছে। ’
সৌদি আরবের এক আইনজীবী বলেন, আইন অনুযায়ী আবু সিনের তিন বছরের জেল হতে পারে।
সৌদি আরবের এ তরুণকে গ্রেপ্তারের প্রতিবাদে অনলাইনে সোচ্চার হয়েছেন অনেকেই। তবে এ গ্রেপ্তারের বিষয়ে বিউটি ও লাইফস্টাইল ব্লগার ক্রিস্টিনা  কিংবা ইউটিউব কর্তৃপক্ষের এখনও কোনো মন্তব্য পাওয়া যায়নি।
অবশ্য যে ভিডিওর কারণে আবু সিন গ্রেপ্তার হয়েছেন তা এখনও অনলাইনে রয়েছে-


মন্তব্য