kalerkantho

পোশাক কারখানা শ্রমিকদের অবস্থান

নিজস্ব প্রতিবেদক   

২১ মার্চ, ২০১৯ ০০:০০ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



কারখানা খুলে দেওয়া ও বকেয়া পাওনা আদায়ের দাবিতে কলকারখানা অধিদপ্তরের সামনে অবস্থান নিয়েছে দুটি পোশাক কারখানার শ্রমিকরা।

গতকাল বুধবার দুপুরে কারওয়ান বাজারে অধিদপ্তরের সামনে অবস্থান নেন গাজীপুরের বকুল অ্যাপারেলস ও ঢাকার নাব ফ্যাশনের কয়েক শ শ্রমিক।

বিকেলে কলকারখানা ও প্রতিষ্ঠান পরিদর্শন অধিদপ্তরের মহাপরিদর্শক শিবনাথ রায় সংকট নিরসন ও শ্রমিকদের পাওনা আদায়ে কঠোর পদক্ষেপ গ্রহণ করার আশ্বাস দিলে ঘেরাও কর্মসূচি স্থগিত করা হয়।

গার্মেন্ট শ্রমিক ট্রেড ইউনিয়ন কেন্দ্র গাজীপুরের সভাপতি আজিজুল ইসলাম বলেন, কর্তৃপক্ষ কোনো ঘোষণা না দিয়েই ১০ মার্চ থেকে বকুল গার্মেন্টসের উৎপাদন বন্ধ করে দেয়। কারখানা আবার চালু হবে কি না তা স্পষ্ট করে বলছে না।

আজিজুল ইসলাম বলেন, ‘আমরা জেলা প্রশাসককে জানিয়েছি, গাজীপুরের পুলিশ কমিশনারকে জানিয়েছি। কোনো সাড়া না পেয়ে এখন কলকারখানা অধিদপ্তরের সামনে অবস্থান নিয়েছে শ্রমিকরা। অবস্থান কর্মসূচিতে গার্মেন্ট শ্রমিক ট্রেড ইউনিয়ন কেন্দ্রের সাধারণ সম্পাদক জলি তালুকদার, কার্যকরী সভাপতি কাজী রুহুল আমিন, গাজীপুর জেলার সাধারণ সম্পাদক জালাল হাওলাদার উপস্থিত ছিলেন।’

বকুল অ্যাপারেলসের ব্যবস্থাপক মোস্তাফিজুর রহমান বলেন, ফিনিশিং সেক্টরে কাজ না থাকায় ওই বিভাগের শ্রমিকদের এক দিনের ছুটি দেওয়া হয়েছিল। কিন্তু সুইং বিভাগে কাজ থাকা সত্ত্বেও এখানকার শ্রমিকরা জোর করে এক দিনের ছুটি ভোগ করেছে। তাদের এই জোরপূর্বক ছুটি ভোগ করার কারণেই একটি শিপমেন্ট বাতিল হয়ে গেছে।

এ অবস্থায় আমরা শ্রম আইনের ১৩ এর ১ ধারা অনুযায়ী (নো ওয়ার্ক-নো পে) কারখানা বন্ধ ঘোষণা করেছি।

মন্তব্য