kalerkantho


সাত ব্যাংকে ৩২২ নিয়োগ

কালের কণ্ঠ অনলাইন   

৮ আগস্ট, ২০১৮ ১১:৪৫



সাত ব্যাংকে ৩২২ নিয়োগ

ব্যাংকার্স সিলেকশন কমিটির সদস্যভুক্ত ছয় ব্যাংক ও এক আর্থিক প্রতিষ্ঠানে ৩২২ জন নিয়োগের জন্য তিনটি বিজ্ঞপ্তি প্রকাশিত হয়েছে। বাংলাদেশ ব্যাংক ওয়েবসাইটের মাধ্যমে পদগুলোতে আবেদন করা যাবে। জানাচ্ছেন আহমদ শুভ 

বিভিন্ন পদে লোক চেয়ে তিনটি বিজ্ঞপ্তি দিয়েছে ব্যাংকার্স সিলেকশন কমিটি। অ্যাসিস্ট্যান্ট মেইনটেন্যান্স ইঞ্জিনিয়ার/অ্যাসিস্ট্যান্ট হার্ডওয়্যার ইঞ্জিনিয়ার/অ্যাসিস্ট্যান্ট ইঞ্জিনিয়ার (আইটি) পদে সোনালী ব্যাংকে ৪৫ জন, রূপালী ব্যাংকে ৬৯ জন, বাংলাদেশ কৃষি ব্যাংকে ১১ জন, রাজশাহী কৃষি উন্নয়ন ব্যাংকে ১ জন এবং ইনভেস্টমেন্ট করপোরেশন অব বাংলাদেশে ১ জনসহ মোট ১২৭ জনকে নিয়োগ দেওয়া হবে। ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তা (আইটি/আইসিটি) পদে সোনালী ব্যাংকে ২২ জন, জনতা ব্যাংকে ৭৪ জন, বাংলাদেশ কৃষি ব্যাংকে ১৬ জন এবং বাংলাদেশ ডেভেলপমেন্ট ব্যাংক লিমিটেডে ৮ জনসহ মোট ১২০ জন নিয়োগ পাবেন। সহকারী প্রগ্রামার পদে সোনালী ব্যাংকে ৪৩ জন, রূপালী ব্যাংকে ২৮ জন ও বাংলাদেশ কৃষি ব্যাংকে ৪ জনসহ মোট ৭৫ জন নেওয়া হবে।

আবেদনের যোগ্যতা
ব্যাংকার্স সিলেকশন কমিটির সদস্যসচিব ও বাংলাদেশ ব্যাংকের মহাব্যবস্থাপক মো. মোশাররফ হোসেন খান জানান, অ্যাসিস্ট্যান্ট মেইনটেন্যান্স ইঞ্জিনিয়ার/অ্যাসিস্ট্যান্ট হার্ডওয়্যার ইঞ্জিনিয়ার/অ্যাসিস্ট্যান্ট ইঞ্জিনিয়ার (আইটি) পদে কম্পিউটার ইঞ্জিনিয়ারিং, ইলেকট্রিক্যাল, ইলেকট্রনিকস ইঞ্জিনিয়ারিং বা ইনফরমেশন সিস্টেমস অ্যান্ড কমিউনিকেশন ইঞ্জিনিয়ারিংয়ে স্নাতক হতে হবে। ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তা (আইটি/আইসিটি) পদে কম্পিউটারবিজ্ঞান, কম্পিউটারবিজ্ঞান ও প্রকৌশল, ইনফরমেশন অ্যান্ড কমিউনিকেশন টেকনোলজি, ইলেকট্রিক্যাল অ্যান্ড ইলেকট্রনিকস ইঞ্জিনিয়ারিং, পদার্থ বা ফলিত পদার্থ বিষয়ে স্নাতকোত্তর বা চার বছর মেয়াদি স্নাতক হতে হবে। সহকারী প্রগ্রামার পদে কম্পিউটারবিজ্ঞান, কম্পিউটারবিজ্ঞান ও প্রকৌশল, ইনফরমেশন অ্যান্ড কমিউনিকেশন টেকনোলজি, ইলেকট্রিক্যাল অ্যান্ড ইলেকট্রনিকস ইঞ্জিনিয়ারিং, সফটওয়্যার ইঞ্জিনিয়ারিং বা টেলিকমিউনিকেশন ইঞ্জিনিয়ারিং বিষয়ে স্নাতকোত্তর অথবা চার বছর মেয়াদি স্নাতক বা স্নাতক সম্মান ডিগ্রি থাকলে আবেদন করা যাবে। শিক্ষাজীবনে কমপক্ষে দুটি প্রথম শ্রেণি বা সমমানের সিজিপিএ থাকতে হবে। এসএসসি ও এইচএসসি পর্যায়ে গ্রেডিং পদ্ধতিতে প্রকাশিত ফলের ক্ষেত্রে এসএসসি ও এইচএসসি পরীক্ষায় জিপিএ ৩.০০ বা তার বেশি প্রথম বিভাগ, জিপিএ ২.০০ বা তার বেশি কিন্তু ৩.০০-এর কম দ্বিতীয় বিভাগ ধরা হবে। বিশ্ববিদ্যালয়ের ক্ষেত্রে ৪ পয়েন্ট স্কেলে সিজিপিএ ৩.০০ বা বেশি হলে প্রথম বিভাগ বা শ্রেণি, ২.২৫ বা তার বেশি কিন্তু ৩.০০-এর কম দ্বিতীয় বিভাগ বা শ্রেণি ধরা হবে। ১ জুলাই ২০১৮ তারিখে সাধারণ প্রার্থীদের বয়স হতে হবে অনূর্ধ্ব ৩০ বছর। তবে মুক্তিযোদ্ধার সন্তান ও প্রতিবন্ধীদের বয়সসীমা সর্বোচ্চ ৩২ বছর।

আবেদনের নিয়ম
আবেদন করতে হবে অনলাইনে। বাংলাদেশ ব্যাংকের ওয়েবসাইটের (বত্বপত্ঁরঃসবহঃ.নন.ড়ত্ম.নফ) মাধ্যমে আবেদন করা যাবে। বিজ্ঞপ্তিও পাওয়া যাবে এতে। যাঁরা এরই মধ্যে বাংলাদেশ ব্যাংক ওয়েবসাইটের রিক্রুটমেন্ট পোর্টালে রেজিস্ট্রেশন করেছেন, তাঁরা লগইন করেই আবেদন করতে পারবেন। আগে রেজিস্ট্রেশন করা না থাকলে নতুন করে রেজিস্ট্রেশন করে আবেদন করতে হবে। আবেদনের সময় কোন ব্যাংকে চাকরি করতে ইচ্ছুক, তার ধারাবাহিক পছন্দক্রম উল্লেখ করতে হবে। আবেদনের জন্য কোনো ফি লাগবে না। অনলাইন আবেদন সাবমিট করার পর ট্র্যাকিং নম্বরযুক্ত ফরমটি সংরক্ষণ করতে হবে। আবেদনের সময় কোনো কাগজপত্র লাগবে না। লিখিত পরীক্ষায় উত্তীর্ণ হলে প্রয়োজনীয় কাগজপত্রের কপি জমা দিতে হবে। চাকরিরতদের প্রতিষ্ঠানের অনুমতি নিয়ে আবেদন করতে হবে। বিজ্ঞপ্তিভেদে আবেদন করা যাবে ৯ ও ২০ আগস্ট পর্যন্ত।

পরীক্ষা পদ্ধতি
অ্যাসিস্ট্যান্ট মেইনটেন্যান্স ইঞ্জিনিয়ার/অ্যাসিস্ট্যান্ট হার্ডওয়্যার ইঞ্জিনিয়ার/অ্যাসিস্ট্যান্ট ইঞ্জিনিয়ার (আইটি) এবং ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তা (আইটি/আইসিটি) পদে এমসিকিউ, লিখিত ও মৌখিক পরীক্ষায় অংশ নিতে হবে। প্রথমে নেওয়া হবে ১০০ নম্বরের এমসিকিউ পরীক্ষা। উত্তীর্ণদের ২০০ নম্বরের লিখিত পরীক্ষা দিতে হবে। লিখিত পরীক্ষায় উত্তীর্ণদের মৌখিক পরীক্ষার জন্য ডাকা হবে। সহকারী প্রগ্রামার পদে এমসিকিউ, স্ট্যান্ডার্ড অ্যাটিচ্যুট টেস্ট এবং মৌখিক পরীক্ষা নেওয়া হবে।

ব্যাংকার্স সিলেকশন কমিটির অধীনে সম্প্রতি অনুষ্ঠিত বিভিন্ন প্রশ্নপত্র বিশ্লেষণে দেখা গেছে, এমসিকিউ পরীক্ষায় বাংলা, ইংরেজি, গণিত, সাধারণ জ্ঞান, অ্যানালিটিক্যাল অ্যাবিলিটি এবং তথ্য-প্রযুক্তি বিষয়ে প্রশ্ন করা হয়। বেশির ভাগ পরীক্ষায় বাংলা বাদে বাকি প্রশ্ন ইংরেজিতে থাকে। লিখিত পরীক্ষায় গণিত, ইংরেজি ও বাংলা থেকে প্রশ্ন আসে। তবে টেকনিক্যাল পদের পরীক্ষায় পদসংশ্লিষ্ট বিষয়ে বেশি প্রশ্ন করা হয়।

নিয়োগ প্রস্তুতি
এমসিকিউ পরীক্ষায় বাংলা অংশে ব্যাকরণ ও সাহিত্য থেকে প্রশ্ন করা হয়। ব্যাকরণ থেকেই বেশির ভাগ প্রশ্ন থাকে। ব্যাকরণে সন্ধি বিচ্ছেদ, কারক-বিভক্তি, সমাস নির্ণয়, প্রকৃতি-প্রত্যয়, শুদ্ধিকরণ, বিপরীত শব্দ, সমার্থক শব্দ, এক কথায় প্রকাশ, বাগধারা থেকে প্রশ্ন আসে। সাহিত্য অংশে বাংলা সাহিত্যের ইতিহাস, সাহিত্যিকদের উপাধি, ছদ্মনাম, জন্ম-মৃত্যু সাল ও সাহিত্যকর্ম থেকে প্রশ্ন হতে পারে। ইংরেজিতে গ্রামার ও লিটারেচার থেকে প্রশ্ন করা হয়। Right form of Verbs, Parts of Speech, Tense, Voice, Narration, Phrase and Idioms, Correct Spelling, Sentence Correction, Sentence Completing, Synonym, Antonym, Analogy থেকে প্রশ্ন আসে।

গণিতের জন্য পাটিগণিত, বীজগণিতের মৌলিক নিয়মগুলো জানলেই হবে। অ্যানালিটিক্যাল অ্যাবিলিটির প্রশ্নও থাকে। গণিতে ভালো করতে হলে বারবার চর্চা করতে হবে। সাধারণ জ্ঞান অংশে জাতীয় ও আন্তর্জাতিক গুরুত্বপূর্ণ ঘটনাবলি জানতে হবে। অর্থনীতি, ব্যাংকিং, ফিন্যান্সসম্পর্কিত বিষয়ে জোর দিতে হবে। তথ্য-প্রযুক্তি অংশে কম্পিউটারের মৌলিক বিষয়াবলি, ইন্টারনেট, হার্ডওয়্যার, সফটওয়্যার—এসব বিষয়ে প্রশ্ন করা হয়।

লিখিত পরীক্ষায় বাংলা ও ইংরেজিতে সাম্প্রতিক বিষয়ের ওপর অনুচ্ছেদ লিখতে বলা হয়। আসে ইংরেজি থেকে বাংলা বা বাংলা থেকে ইংরেজি অনুবাদ। গণিতে কয়েকটি প্রশ্নের সমাধান করতে হয়। অ্যানালিটিক্যাল অ্যাবিলিটির প্রশ্নও আসতে পারে। টেকনিক্যাল পদের পরীক্ষায় কোনো বিষয়ে বিশদ বর্ণনা বা কোনো সমস্যার সমাধান জানতে চাওয়া হতে পারে।

বেতন-ভাতা
পদগুলোতে জাতীয় বেতন স্কেল ২০১৫ অনুযায়ী ২২০০০-৫৩০৬০ টাকা স্কেলে বেতন দেওয়া হবে। সঙ্গে সরকারি নিয়ম অনুযায়ী অন্যান্য ভাতা ও সুযোগ-সুবিধা পাওয়া যাবে। 



মন্তব্য