kalerkantho

শনিবার । ১০ ডিসেম্বর ২০১৬। ২৬ অগ্রহায়ণ ১৪২৩। ৯ রবিউল আউয়াল ১৪৩৮।


ব্যাপারটা স্বামী ও স্ত্রীর

ফারাজানা   

৪ অক্টোবর, ২০১৬ ০০:০০



ব্যাপারটা স্বামী ও স্ত্রীর

কেন ভালোবাসবেন স্বামীকে

 

♦ কিছুক্ষণ পরপরই আপনার স্বামী আপনাকে হুকুম করেন,

কখনো চা বানিয়ে দিতে বলেন, কখনো বা কফি। একবার মাথায় তেল দিয়ে দিতে বলেন তো আরেকবার দিতে বলেন ঠাণ্ডা পানি।

এর পরও আপনি তাঁকে ভালোবাসবেন। কারণ আপনার স্পর্শ ছাড়া তাঁর কোনো কাজই সম্পূর্ণ হয় না বলেই তো আপনাকে বারবার ফরমায়েশ করেন।

♦ আপনার স্বামী অন্য মেয়েদের দিকে তাকালেও আপনি তাঁকে ভালোবাসবেন, কারণ অন্য মেয়েদের দিকে তাকিয়ে তিনি এটা অনুভব করার চেষ্টা করেন যে তাঁর স্ত্রী এখনো অন্যদের চেয়ে কত সুন্দর।

♦ রাতে ঘুমালে অনর্গল নাক ডাকে আর সেই শব্দে আপনার একটুও ঘুম না আসুক, তার পরও আপনি আপনার স্বামীকে ভালোবাসুন। কারণ নাক ডেকে আপনার স্বামী প্রমাণ করতে চাইবেন যে আপনাকে বিয়ে করার পর তিনি কতটা সুখে আর শান্তিতে আছেন।

♦ কোনো বিশেষ দিন, যেমন জন্মদিন, বিয়েবার্ষিকী ইত্যাদিতে আপনার স্বামী আপনাকে গিফট দিতে ভুলে গেলেও আপনি তাঁকে ভালোবাসেন, কারণ আপনার ভবিষ্যতের কথা ভেবেই তো তিনি টাকাপয়সা কম খরচ করে কেবল জমাচ্ছেন।

 

বলুন তো বিবাহিত জীবনে কখন চেক মেট হয়?

যখন বাইরে থেকে আপনি এসে স্ত্রীর কাছে এসে গল্প করেন, আজ না একটা মেয়েকে দেখলাম ঠিক তোমার মতো?

স্ত্রী যদি জিজ্ঞেস করেন, ‘মেয়েটা অনেক আবেদনময়ী আর অ্যাট্রাকটিভ ছিল?’

আপনি তখন ‘হ্যাঁ’ও বলতে পারবেন না, বলতে পারবেন না ‘না’ও। একে বলে চেক মেট।

 

ভালোবাসুন স্ত্রীকে

স্ত্রীকে ভালোবাসুন, কারণ স্ত্রী ছাড়া জীবন অচল।

স্ত্রীর প্রতি থাকুন বিশ্বস্ত।

স্ত্রীকে উপহার দিন, ঘুরতে নিয়ে যান।

স্ত্রীর সব কথা শুনুন, তাঁর কথামতো শপিংয়ে নিয়ে যান মাসে তিনবার।

তাঁকেই উৎসর্গ করুন জীবনের সব কিছু।

খুশি রাখুন স্ত্রীকে। ভাবার দরকার নেই স্ত্রীটা কার।


মন্তব্য