kalerkantho


মিস ওয়ার্ল্ড বাংলাদেশ জান্নাতুল ফেরদৌস ঐশী

মাহতাব হোসেন   

১ অক্টোবর, ২০১৮ ০০:০৬



মিস ওয়ার্ল্ড বাংলাদেশ জান্নাতুল ফেরদৌস ঐশী

ছবি: কালের কণ্ঠ

ডায়মন্ড ওয়ার্ল্ড 'মিস ওয়ার্ল্ড বাংলাদেশ' ২০১৮ নির্বাচিত হয়েছেন জান্নাতুল ফেরদৌসী ঐশী। প্রথম রানার আপ নিশাত নাওয়ার সালওয়া এবং দ্বিতীয় রানার আপ হয়েছেন নাজিবা বুশরা। 

এ ছাড়া স্মিতা টুম্পা পেয়েছেন মিস ট্রেন্ডি অ্যাওয়ার্ড। বেশ বিহেভিয়ার অ্যাওয়ার্ড পেয়েছেন আফরিন লাবণী, মিস ইন্টিলিজেন্ট অ্যাওয়ার্ড নিশাত নাওয়ার সালওয়া, বেস্ট ফ্যাশন রানওয়ে মন্দিরা, মিস স্মাইলি অ্যাওয়ার্ড পেয়েছেন অনন্যা, মিস ফটোজেনিক অ্যাওয়ার্ড পেয়েছেন জান্নাতুল মাওয়া, মিস ট্যালেন্টেড অ্যাওয়ার্ড পেয়েছেন নাজিবা বুশরা,  মিস পারসোনালিটি অ্যাওয়ার্ড পেয়েছেন শিরীন শিলা, মিস স্পোর্টি ইশরাত জাহান সাবরিন, বেস্ট এপিয়ারেন্স অ্যাওয়ার্ড পেয়েছেন জান্নাতুল ফেরদৌস ঐশী।

রবিবার সন্ধ্যা সাড়ে ৭টায় রাজধানীর বসুন্ধরা ইন্টারন্যাশনাল কনভেনশন সিটির রাজদর্শন হল আলোকজ্জ্বল হয়ে ওঠে ১০ সুন্দরীর উপস্থিতিতে। 

বিচারকদের সামনে যখন একে একে সুন্দরী-নিশাত নাওয়ার সালওয়া, মনজিরা বাশার, ইশরাত জাহান সাবরিন, স্মিতা টুম্পা বাড়ৈ, আফরিন সুলতানা লাবণী, সুমনা নাথ অনন্যা, নাজিবা বুশরা, জান্নাতুল মাওয়া, শিরীন শিলা এবং জান্নাতুল ফেরদৌস ঐশী এসে সারিবদ্ধভাবে দাঁড়ালেন তখনও অনুমেয় ছিল না এবারের মুকুট কার মাথায় উঠতে যাচ্ছে।

ফাইনালের আইকন বিচারক মাইলস ব্যান্ডের শাফিন আহমেদ, হামিন আহমেদ এবং কোরিওগ্রাফার আনিসুল ইসলাম হিরু পারফর্মের আগেই এক ঝলক দেখে নেন প্রতিযোগীদের।

আয়োজনের শুরুতেই চিত্রনায়িকা অপু বিশ্বাসের নাচ মুগ্ধ করে দর্শকদের। মঞ্চে কণ্ঠ দিয়ে উচ্ছ্বাসের ঢেউ সৃষ্টি করেন তরুণ ক্রেজ মিনার। আহারে-পাহাড়ে, ঝুমসহ একের পর এক জনপ্রিয় গান পরিবেশন করেন তিনি। অবশ্য এর আগে ১০ প্রতিযোগী তাঁদের নাচের কারিশমা দেখিয়ে যান। গান পরিবেশ করেন এটিএন বাংলার চেয়ারম্যান ড. মাহফুজুর রহমান, নাচ পরিবেশ করেন চিত্রনায়িকা আঁচল। অনুষ্ঠানের শেষ অংশে গানে গানে মাতাতে আসেন প্রতীক হাসান ও প্রীতম হাসান। 

অনুষ্ঠান মঞ্চে নতুন একটি তথ্য জানান উপস্থাপক- নব্বই দশকের ব্যান্ড 'ড্রিম লাইন' নামে একটি ব্যান্ড ছিল। যার নেতৃত্বে ছিলেন স্বপন চৌধুরী। সেটি বিলুপ্ত হলেও এদিন 'বাংলার গান' নামে সেই ব্যান্ড মিস ওয়ার্ল্ড বাংলাদেশ মঞ্চে গান পরিবেশনের মাধ্যমে যাত্রা শুরু করে।

জনপ্রিয় কণ্ঠশিল্পী শুভ্রদেব, মডেল ও অভিনেতা খালেদ হোসেন সুজন, মডেল শাবনাজ সাদিয়া ইমি, ব্যরিস্টার ফারাবী অনুসন্ধিৎসু দৃষ্টিতে মূল বিচারকের দায়িত্ব পালন করেন। অবশ্য সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে আয়োজকেরা মূল বিচারক প্যানেলে অভিনেত্রী তারিনের নাম জানালেও তিনি এদিন উপস্থিত ছিলেন না।

বসুন্ধরা ইন্টারন্যাশনাল কনভেনশন সিটি বসুন্ধরা’র রাজদর্শন হল থেকে অনুষ্ঠানটি সরাসরি সম্প্রচার করে এটিএন বাংলা। গ্র‍্যান্ড ফাইনালের সম্পূর্ণ অনুষ্ঠানটি উপস্থাপনা করেন ডিজে সনিকা, আরজে নিরব ও আজরা মাহমুদ৷ 

মূল পর্বের আগে অন্তর শোবিজের আয়োজনে গুলশান ২-এর নবনির্মিত পাঁচ তারকা হোটেল রয়্যাল প্যারাডাইস-এ সেরা ১০ প্রতিযোগীকে এর মধ্যেই গ্রুমিং পর্ব শেষ করা হয়।

আগামী ৭ ডিসেম্বর চীনে মূল পর্বে যোগদানের উদ্দেশ্যে ঢাকা ত্যাগ করবেন মিসওয়ার্ল্ড জান্নাতুল ফেরদৌস ঐশী। আয়োজক সূত্রে জানা গেছে এবার মূল পর্বের আগে প্রায় তিন মাস সময় পাওয়া যাবে। ফলে চূড়ান্ত বিজয়ীকে তৈরি করার সময় পাওয়া যাবে বেশি।

বিশ্বখ্যাত গ্রুমার নয়নিকা চ্যাটার্জী তাকে তৈরি করাবেন। যার হাতে১৯৯৬ থেকে একাধিক প্রতিযোগী বিশ্বসুন্দরীর মুকুট জিতেছেন। 

অন্তর শোবিজের চেয়ারম্যান স্বপন চৌধুরী বলেন, ‘সেপ্টেম্বরের মধ্যেই মিস ওয়ার্ল্ড প্রতিযোগিতায় নাম পাঠাতে হয়। তাই আমরা এর মধ্যেই অনুষ্ঠান শেষ করে এনেছি। আর এবার সব প্রস্তুতি দারুণ। বিশ্বসেরার মুকুটের জন্য আমরাও দুর্দান্তভাবে লড়তে চাই।’



মন্তব্য