kalerkantho


যে কারণে বন্ধ হয়ে গেল অমিতাভ-শ্বেতার সেই বিজ্ঞাপন

কালের কণ্ঠ অনলাইন   

২৩ জুলাই, ২০১৮ ২১:২২



যে কারণে বন্ধ হয়ে গেল অমিতাভ-শ্বেতার সেই বিজ্ঞাপন

ব্যাংক ইউনিয়নের চাপে পড়ে অমিতাভ বচ্চন এবং শ্বেতা নন্দার সাম্প্রতিক একটি গয়নার বিজ্ঞাপনের সম্প্রচার বন্ধ করতে বাধ্য হলেন নির্মাতারা।

ভারতের কেরলের একটি গয়না প্রস্তুতকারক সংস্থার দেড় মিনিটের ওই বিজ্ঞাপনে দেখা যায়, মেয়েকে সঙ্গে নিয়ে পেনশনের জন্যে ব্যাংকে গিয়েছেন এক অবসরপ্রাপ্ত ভদ্রলোক। 'রিয়েল লাইফ' বাবা-মেয়ে এবার বাস্তবেও বাবা মেয়ে। মেয়ের চরিত্রে দেখা গেছে শ্বেতাকে ও বাবা অমিতাভ বচ্চন। তবে ভদ্রলোক পেনশন তুলতে ব্যাঙ্কে যাননি, পেনশন ফেরত দিতে গেছেন।

কারণ, এক বারের জায়গায় তাঁর অ্যাকাউন্টে দু’বার পেনশনের টাকা ঢুকেছে। আর সেই টাকা ফেরত দিতে গিয়েই হয়রানি! একেবারে শেষে ব্রাঞ্চ ম্যানেজারের টেবিলে হাজির বাবা আর মেয়ে। টাকা ফেরত নিতে অনেক সমস্যা, তাই টাকাটা বাড়ি ফেরত নিয়ে যেতে বলছিলেন ব্রাঞ্চ ম্যানেজার। আর তখনই রেগে যান ওই ব্যক্তি।

এখানেই ঘোরতর আপত্তি জানিয়েছে ব্যাংক ইউনিয়নগুলো। 'অল ইন্ডিয়া ব্যাংক অফিসারস কনফেডারেশনস'-এর পক্ষ থেকে জানানো হয়েছে, ওই বিজ্ঞাপনে দেশের ব্যাংকগুলোকে খারাপ ভাবে দেখানো হয়েছে। ব্যাংকের প্রতি মানুষের আপত্তি ভাঙার চেষ্টা করা হচ্ছে। আর সেই আপত্তির কারণেই বিজ্ঞাপনের সম্প্রচার বন্ধ করতে বাধ্য হলেন নির্মাতারা।

এআইবিওসির সাধারণ সম্পাদক সৌম্য দত্ত বলেছেন, আমরা কল্যাণ জুয়েলার্স এবং বচ্চন পরিবারের এ কাজের বিরুদ্ধে অসন্তোষ প্রকাশ করছি। এর প্রতিবাদ জানাচ্ছি। আমরা মনে করি, তাঁরা ব্যক্তিগত উদ্দেশ্য হাসিলের জন্য ব্যাংকের বিরুদ্ধে এমন নেতিবাচক ও মিথ্যা গল্প প্রচার করছেন। তাঁদের এই কর্মকাণ্ড ব্যাংকের জন্য অবশ্যই মানহানিকর। এই বিজ্ঞাপনচিত্র প্রত্যাহার করা না হলে এর সঙ্গে সংশ্লিষ্ট ব্যক্তিদের বিরুদ্ধে আইনি ব্যবস্থা নেওয়া হবে।র কাছে এটা আবেগঘন মুহূর্ত৷ যতবার দেখছি, চোখে জল চলে আসছে। কন্যাসন্তানই সেরা।’

 



মন্তব্য