kalerkantho


সেন্সর বোর্ড 'পদ্মাবত'-এর অপরিমেয় ক্ষতি করেছে!

কালের কণ্ঠ অনলাইন   

২৪ জানুয়ারি, ২০১৮ ১০:৪৯



সেন্সর বোর্ড 'পদ্মাবত'-এর অপরিমেয় ক্ষতি করেছে!

নানা ধরনের হুমকি আর বিতর্কের মাঝেই অবশেষে মুক্তি পেতে যাচ্ছে সঞ্জয় লীলা বনসালির বহু প্রতীক্ষিত ছবি 'পদ্মাবত'। আগামীকাল ২৫ জানুয়ারি ভারতজুড়ে এবং বিশ্বব্যাপী মুক্তি পাবে ছবিটি। এর আগে ভারতের রাজধানী নয়া দিল্লিতে সাংবাদিকদের জন্য ছবিটির একটি আগাম প্রদর্শনী হয়ে গেল। 

এই আগাম প্রদর্শনী ছবিটিতে রণবীর সিং, শহিদ কাপুর ও দীপিকা পাডুকোনের অভিনয়ের প্রশংসা করেন সাংবাদিকমহল। যদিও সেন্সর বোর্ডের সুপারিশ বাস্তবায়ন করতে গিয়ে ছবিটির কাহিনিতে যেটুকু পরিবর্তন করা হয়েছে তা ন্যায্য হয়নি বলেও মন্তব্য করেছেন অনেক সিনে সাংবাদিক।

আরো পড়ুন : 'পদ্মাবত' দেখে মুগ্ধ সমালোচকরা

সেন্সর বোর্ডের পরিবর্তন কতটা গ্রহণযোগ্য জানতে চাইলে একজন জ্যেষ্ঠ চলচ্চিত্র সাংবাদিক বলেন, আমি এই ধরনের পরিবর্তনের ঘোর বিরোধী। এই পরিবর্তন ছবিটির কাহিনি বা 'স্টোরি-টেলিং লাইন'কে মারাত্মকভাবে ক্ষতিগ্রস্ত করেছে। যা ছবিটির অপরিমেয় ক্ষতি করেছে। পদ্মাবত-এর কাহিনি ও নির্মাণ সুন্দর, বেশ ভালোও। ছবিটি যদি আমি সেন্সর ছাড়া দেখতাম, তবে এটিকে আমি ৫-এ ৪ দিতাম।  

আর একজন জ্যেষ্ঠ সিনে সাংবাদিক বলেন, ছবিটিতে বেশ কিছু পরিবর্তন করা হয়েছে। এতে নষ্ট হয়েছে বেশ কিছু রেফারেন্স, যা ছবিটির জন্য প্রয়োজন ছিল। এতে দুর্বল হয়েছে কাহিনির ধারাবাহিকতা। এ ধরনের পরিবর্তন কাম্য নয় বলেও মনে করেন এই গণমাধ্যমকর্মী।

আরো পড়ুন : রণবীরকে যে কারণে এত বেশি পছন্দ, ফাঁস করলেন দীপিকা!

প্রদর্শনীতে থাকা আরো অনেক সংবাদকর্মী মনে করেন, ছবিটিতে এমন কিছু নেই বা থাকার কথা নয় যা রাজপুত সম্প্রদায়ের অনুভূতিকে আঘাত হানতে পারে। এটা এক ধরনের উসকানি এবং এটা পরিকল্পিত। 

কেউ কেউ মন্তব্য করেন, ছবিটি রাজপুত সম্প্রদায়ের পক্ষে তৈরি করা হয়েছে, তাদের বিরুদ্ধে নয়।
সূত্র : এএনআই



মন্তব্য