kalerkantho


চকলেট খেয়ে দুই সপ্তাহে ৫ কেজি ওজন কমালেন পৌরবী

কালের কণ্ঠ অনলাইন   

৩ জানুয়ারি, ২০১৮ ২০:৩২



চকলেট খেয়ে দুই সপ্তাহে ৫ কেজি ওজন কমালেন পৌরবী

কলকাতার ধারাবাহিক মহাপ্রভু’-তে ‘মা লক্ষ্মী’ আর ‘ভক্তের ভগবান শ্রীকৃষ্ণ’-তে তিনি ‘শ্রেয়া’। পৌরবী সেনগুপ্ত-কে দর্শক প্রথম দেখেছিলেন ‘দুগ্গা দুগ্গা’ ধারাবাহিকে। তার পরেই ‘মেমবউ’— ঘরোয়া মিষ্টি বউয়ের চরিত্রে দারুণ মানিয়েছিল এই অষ্টাদশী সুন্দরীকে।

এখন অবশ্য বয়স ১৯ বছর। কিন্তু এই বয়সেই প্রচণ্ড ফিগার কনশাস সুন্দরী। সম্প্রতি মাত্র দু’সপ্তাহে ৫ কেজি ওজন কমিয়েছেন। ছিলেন প্রায় ৫০ কেজি। এখনকার ওজন ৪৪ কেজি।

মেমবউ যখন করতাম তখন তো আরও বেশি ছিল, ৫৩ কেজি,’ বললেন পৌরবী। কিন্তু এত কমদিনে কীভাবে কমালেন ওজন— চকোলেট আর টক দই, বলেই হেসে কুটিপাটি। এমন আশ্চর্য ডায়েটের কথা কে-ই বা কোনদিন শুনেছে?

আসলে আমি টক দই খেতে খুব ভালোবাসি। আমাকে ১০ বাটি দিয়ে দিলেও খেয়ে নেব। ‘মহাপ্রভু’-র সেটে ঢুকলেই সবাই বলত, ‘ওই তো টক দই এসে গেছে’! আমি শ্যুটিংয়ে দুপুরবেলা রোজ দেড় বাটি টক দই খেতাম আর একথালা শশা-পেয়ারা। বাড়ি থেকে সকালে একটু জুস খেয়ে যেতাম। তার পর সারাদিনে শুধু ব্ল্যাক টি আর চকোলেট!’

চকোলেট খেয়ে ওজন কমানোর দৃষ্টান্ত সত্যিই বিরল কিন্তু এক্ষেত্রে সেটা সম্ভবত ব্যালেন্স হয়ে গিয়েছে অন্য কারণে— কাজের চাপ! পৌরবী জানালেন যে চকোলেট হলো তাঁর স্ট্রেসবাস্টার। দিনে অন্তত একটি করে সেলিব্রেশন তাঁর চাই। এক সপ্তাহও হয়নি ১৫ প্যাকেট সেলিব্রেশন কিনেছিলেন। এখন সব শেষ।

তবে ওজন কমানোর পিছনে আরও একটি ফ্যাক্টর কাজ করেছে। নিয়ম করে এক্সারসাইজ।  আমি প্রতিদিন নিয়ম করে মেডিটেশন, কপালভাতি করেছি। আর রোজ ৬০০ মিটার দৌড়েছি। আমার কোমর ৩৪ থেকে ২৮ হয়ে গিয়েছে...।’

এই কঠিন পরিশ্রম করে ওজন কমানোর পিছনে কিন্তু একটি বিশেষ কারণ রয়েছে যা শেষমেশ বলেই ফেললেন সুন্দরী। ‘সামনেই একটা বিয়ের নিমন্ত্রণ রয়েছে। আর আমি ডিজাইনার লেহঙ্গা পরতে চাই!

আসলে ওজন কমানো বা ফিগার ঠিক রাখার বিষয়টা ভীষণ ভাবে ইচ্ছাশক্তির উপর নির্ভরশীল এবং কথায় আছে ইচ্ছে থাকলে তবেই উপায় হয়। সূত্র-এবেলা



মন্তব্য