kalerkantho


চালকের কারণেই মৃত্যু হয় কালিকা প্রসাদের!

কালের কণ্ঠ অনলাইন   

১৩ মার্চ, ২০১৭ ২০:২২



চালকের কারণেই মৃত্যু হয় কালিকা প্রসাদের!

প্রয়াত সঙ্গীত শিল্পী কালিকা প্রসাদ ভট্টাচার্যের গাড়ির চালককে গ্রেপ্তার করল পুলিশ। দক্ষিণ কলকাতা থেকে গ্রেপ্তার করা হয় তাঁকে।   ধৃতের বিরুদ্ধে অনিচ্ছাকৃত খুনের মামলা দায়ের করা হয়েছে।

জানা গেছে, গাড়ি চালকের গাফিলতির জেরেই সেদিন দুর্ঘটনা ঘটে। আর সেই কারণেই অকালে চলে যেতে হয় সঙ্গীত শিল্পী কালিকা প্রসাদকে।   প্রাথমিক তদন্তের পর, এ বিষয়ে প্রায় নিশ্চিত পুলিশ। আর তারপরই দক্ষিণ কলকাতা থেকে গ্রেপ্তার করা হয় কালিকা প্রসাদের গাড়ির চালককে।

গত মঙ্গলবার দুপুরে দোহারের অনুষ্ঠান ছিল সিউড়ি কলেজে। একটা টয়োটা ইনোভা গাড়িতে করে সেদিকে ‌যাচ্ছিলেন দলের ৫ সদস্য। ছিলেন কালিকাপ্রসাদও। দুর্গাপুর এক্সপ্রেসওয়ে দিয়ে ঝড়ের বেগে ছুটছিল গাড়ি।

হঠাৎই বিকট শব্দে সেতু থেকে নীচে নয়ানজুলিতে পড়ল সেটি। কী হয়েছে দেখতে ছুটে এলেন পাশেই মাঠ চাষের কাজে ব্যস্ত মানুষজন। খবর দেওয়া হয় পুলিশে। কালিকাপ্রসাদকে উদ্ধার করে বর্ধমান মেডিক্যাল কলেজে নি‌য়ে ‌যেতে ‌যেতেই সব শেষ।

গাড়ির চালক দাবি করেন, হঠাৎই গাড়িটির নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে যায় ‌যান্ত্রিক ত্রুটির কারণে। অনেক চেষ্টাতেও গাড়ির নিয়ন্ত্রণ ফেরাতে পারেননি তিনি। গাড়ি গিয়ে প্রথমে ধাক্কা মারে সেতুর রেলিংয়ে। তার পর মরণঝাঁপ দেয় নীচে নয়ানজুলিতে। শীতের শেষে গরম পড়তে চললেও, নয়ানজুলিতে ফুট খানেক পানি ছিল। সেই পানি কাদার মধ্যে উলটো হয়ে পড়ে গাড়িটি। কিন্তু, দুর্ঘটনায় কালিকাপ্রসাদের মৃত্যু হলেও, বেঁচে যান চালক। এরপর থেকেই শুরু হয় তদন্ত। ফরেনসিক রিপোর্টের সঙ্গে গাড়ির চালকের বয়ানের মিল না পাওয়ায়, পুলিশের সন্দেহ আরও বেড়ে যায়।

নিয়ন্ত্রণ হারানোর পর পেছনে থেকে কোনও গাড়ি ধাক্কা মারলে, তার প্রমাণ পাওয়া যেত বলে পুলিশের অনুমান। এরপরই হুগলি পুলিশ গ্রেপ্তার করে কালিকা প্রসাদের গাড়ির চালককে।


মন্তব্য