kalerkantho


'আমি স্বীকার করেছি, এটা বড় বিষয়'

কালের কণ্ঠ অনলাইন   

৫ ফেব্রুয়ারি, ২০১৭ ১৩:১০



'আমি স্বীকার করেছি, এটা বড় বিষয়'

বছর দুই আগে ধর্ষণের কথা সর্বসমক্ষে স্বীকার করেন স্বপ্না ভবানী। জানান, তাঁর যখন ২৪ বছর বয়স, তখন ধর্ষিত হয়েছিলেন তিনি। এবার তিনি জানালেন, সবাইকে ধর্ষণের কথা জানানো খুব একটা সহজ ছিল না। এই পদক্ষেপ তাঁর জীবনে সবচেয়ে বড় ঘটনা।

২০১৫ সালের জুলাই মাসে হেয়ারস্টাইলিশ স্বপ্না ভবানী জানিয়েছিলেন, যখন তাঁর ১৪ বছর বয়স তখন থেকেই ছেলেদের সঙ্গে মিশতেন তিনি। খেলা করতেন, সাইকেল চালাতেন। তারপর বাবা মারা যাওয়ার পর শিকাগোতে আসেন তাঁরা। সেখানেই ক্রিসমাসের রাতে তিনি নেশার ঘোরে বাড়ি ফিরছিলেন। তখন তাঁর বয়স ছিল ২৪ বছর। সেই সময় কয়েকজন যুবক তাঁর মাথায় বন্দুক ঠকিয়ে তাঁকে ধর্ষণ করে। গানপয়েন্টে ধর্ষিতা হওয়ার পর মানসিকভাবে ভেঙে পড়েছিলেন স্বপ্না।

স্বাভাবিক অবস্থায় ফিরতে তাঁর সময় লেগেছিল।

সম্প্রতি তিনি জানিয়েছেন, আমার মনে হয় গণধর্ষণের কথা স্বীকার করা বড় বিষয়। আমি এতদিন যা করছি, এটা সবচেয়ে বড়। কিন্তু আমাকে আরোগ্যের পথে সাহায্য করেছে যোগা।

ল্যাকমে ফ্যাশন উইকের সামার কালেকশনে র‍্যাম্পে হেঁটেছেন স্বপ্না। সেখানে তিনি জানান, আমদের অভ্যাস হলো আশা নিয়ে পুরুষের দিকে তাকিয়ে থাকা। ভাবটা এইরকম, আমরা মহিলা। পুরুষ আমাদের জন্য কিছু করবে। প্রধানমন্ত্রী ও অন্য মন্ত্রীদের দিকেও আমদের তাকিয়ে থাকাটা অভ্যাসে দাঁড়িয়ে গেছে। কিন্তু ক্ষমতা আসে নিজের ভিতর থেকেই। প্রতিদিন তুমি তোমার মতো করেই হাঁটবে।

তিনি এও বলেছেন, মানুষের মধ্যে পরিবর্তন আসা দরকার। তার একটাই পথ। পুরুষ বা নারী, যারাই যখন শ্লীলতাহানির শিকার হবে, তারা যেন বলে। এক্ষেত্রে আরও একটি সমস্যার কথা বলেছেন তিনি। যখন মানুষ ভাবে, কোনও শক্তধাতের মানুষ ভেঙে পড়বে না, তখন এমন পরিস্থিতি আসে সেই মানুষটি ভেঙে পড়ে। কিন্তু যখন ভেঙে পড়ার পর আবার সে উঠে দাঁড়ায়, তখন সে আরও শক্ত হয়ে যায়।


মন্তব্য