kalerkantho


মাহির মামলায় শাওনকে অব্যাহতির সুপারিশ

কালের কণ্ঠ অনলাইন   

২ ফেব্রুয়ারি, ২০১৭ ১৭:২০



মাহির মামলায় শাওনকে অব্যাহতির সুপারিশ

অভিনেত্রী মাহিয়া মাহির দায়ের করা তথ্য প্রযুক্তি আইনের মামলায় তার স্বামী দাবিদার শাহরিয়ার ইসলাম শাওনকে অব্যাহতির সুপারিশ করে আদালতে প্রতিবেদন দিয়েছে পুলিশ। ঢাকার মুখ্য মহানগর হাকিমের আদালতে বৃহস্পতিবার এ প্রতিবেদন দাখিল করেন উত্তরা পশ্চিম থানার এসআই সোহরাব মিয়া  আগামী ৭ মার্চ এই প্রতিবেদন ঢাকার সাইবার অপরাধ ট্রাইব্যুনালে তোলা হবে।

 

আদালত সূত্রে জানা গেছে, তদন্ত প্রতিবেদনে মাহির প্রথম বিয়ে ও নিয়ম অনুযায়ী ডিভোর্সের বিষয়টি রয়েছে।

২০১৫ সালের ২৭ মে রাজধানীর উত্তরা পশ্চিম থানায় তথ্যপ্রযুক্তি আইনের ৫৭/২ ধারায় মামলাটি করেন মাহি। পরের দিন সকালে দক্ষিণ বাড্ডার বাসা থেকে শাওনকে গ্রেপ্তার করা হয়। মাহির আসল নাম শারমিন আক্তার নীপা। গত বছরের ২৫মে সিলেটের ব্যবসায়ী পারভেজ মাহমুদ অপুর সাথে বিয়ে বন্ধনে আবদ্ধ হন।   এর পর থেকেই শাওনের সঙ্গে তার কিছু অন্তরঙ্গ ছবি কয়েকটি  ছবি সোশ্যাল মিডিয়ায় ছড়িয়ে পড়ে,। যার জন্য শাওনকে অভিযুক্ত করেন মাহি।   ঘটনার সঙ্গে শাওন ছাড়াও তার বন্ধু হাসান, আল আমীন, খাদেমুল এবং শাওনের খালাত ভাই রেজওয়ান জড়িত বলে মামলায় উল্লেখ করা হয়।   এসব অভিযোগ প্রত্যাখ্যান করে শাওনের পক্ষ থেকে বলা হয়, মাহির সঙ্গে শাওনের বিয়ে হয়েছিল।

তা বলবৎ থাকা অবস্থাতেই মাহি অন্য একজনকে বিয়ে করেন।   মাহির মামলায় শাওনকে গ্রেপ্তারের পর তাকে জিজ্ঞাসাবাদের জন্য দুইদিনের হেফাজতে পায় পুলিশ। পরে ২০১৬ সালের ১৬ জুন এক লাখ টাকা মুচলেকায় জামিন পান শাওন।

 নায়িকা মাহিয়া মাহি ও তাঁর স্বামী দাবিদার শাহরিয়ার ইসলাম ওরফে শাওনের পরিবারের মধ্যে সমঝোতা হয়েছে। সমঝোতা শর্ত অনুযায়ী, মাহি শাহরিয়ারের বিরুদ্ধে করা মামলাটি প্রত্যাহার করে নেবেন। অন্যদিকে শাহরিয়ার জেল থেকে বের হয়ে মাহির বিরুদ্ধে কোনো মামলা করতে পারবেন না এবং মাহির ক্ষতি হয়, এমন কোনো আচরণ করতে পারবেন না বলে সমঝোতায় উল্লেখ করা হয়েছে।


মন্তব্য