kalerkantho

মঙ্গলবার । ৬ ডিসেম্বর ২০১৬। ২২ অগ্রহায়ণ ১৪২৩। ৫ রবিউল আউয়াল ১৪৩৮।


আমেরিকার ছোটপর্দায় হিট যে ভারতীয়রা

কালের কণ্ঠ অনলাইন   

১১ সেপ্টেম্বর, ২০১৬ ২৩:১১



আমেরিকার ছোটপর্দায় হিট যে ভারতীয়রা

কিছু চেনা নাম, কিছু বা অচেনা- বলিউডের চেনা গণ্ডি ছাড়িয়ে আটলান্টিকের ওপারে পা রেখেছেন বহু অভিনেতা। ছকবাঁধা অভিনয় ছেড়ে মার্কিন মুলুকের ছোটপর্দায় রীতিমতো সাড়া জাগিয়েছেন তাঁরা।

এই চেনা-অচেনা অভিনেতাদের নিয়েই আজকের প্রতিবেদন, যাঁরা আমেরিকার টেলিভশন সিরিজে চুটিয়ে অভিনয় করেছেন।

* মার্কিন মুলুকে নিজের প্রথম টেলিভিশন সিরিজেই মাত করেছেন বলিউড-বেব প্রিয়াঙ্কা চোপড়া। ‘কোয়ান্টিকো’র অ্যাকশনপ্যাকড থ্রিলারে এফবিআই রিক্রুট অ্যালেক্স পারিশের চরিত্রে হলিউডের নজর কেড়েছেন পিগি চপ্‌স।

* প্রিয়াঙ্কার মতোই আমেরিকায় তাঁরও প্রথম টিভি সিরিজ ‘২৪’। সিরিজের অষ্টম মরসুমে কামিস্তানের প্রেসিডেন্ট ওমর হাসানের ভূমিকায় শুরুতেই সাড়া জাগিয়েছেন চিরনবীন অনিল কাপূর।

* ‘দ্য বিগ ব্যাং থিয়োরি’র বুদ্ধিদীপ্ত জোকসে মন খুলে হাসেননি এমন দর্শক কমই রয়েছেন। সিরিজের সঙ্গে সঙ্গে সুপারহিট ব্রিটিশ-ভারতীয় অভিনেতা কুণাল নায়ার। গত বছরে তো রোজগারের দিক থেকেও মার্কিন মুলুকের তিন নম্বর ‘বিগ ব্যাং’য়ের রাজেশ কুথরাপ্পলি থুড়ি কুণাল।

* মীরা নায়ারের ‘কামসূত্র: আ টেল অব লভ’এর নায়িকা ইন্দিরা বর্মা ‘গেম অব থ্রোনস’তেও আগুনে অভিনয় করছেন।

* জন্ম ব্রিটেনের মাটিতে। বড় হয়ে ওঠা থেকে পড়াশোনাও সেখানে। আর্চি পঞ্জাবি হলিউডে নজর কেড়েছেন ‘দ্য গুড ওয়াইফ’ সিরিজে। আর্চির ঝুলিতে রয়েছে ২০১০-এ এমি অ্যাওয়ার্ড।

* মীরা নায়ারের ‘দ্য নেমসেক’এর গোগোল মানে কাল পেন কেরিয়ারের শুরুর দিকেও বেশ কয়েকটি জনপ্রিয় টিভি সিরিজে মুখ দেখিয়েছেন। ‘হাউ আই মেট ইউর মাদার’ বা ‘হাউস’-এর মতো সিরিজে তাঁর অভিনয় ভোলার নয়।

* থিয়েটার-বলিউড ফিল্মের পাশাপাশি ‘হোমল্যান্ডে’র মতো প্রথম সারির সুপারহিট সিরিজে চুটিয়ে অভিনয় করছেন ‘দ্য লাঞ্চবক্স’ খ্যাত নিমরত কউর।

* প্রিয়াঙ্কা-নিমরতের বহু আগে আমেরিকা মাতিয়েছিলেন কবীর বেদী। নব্বইয়ের দশকে ‘দ্য বোল্ড অ্যান্ড দ্য বিউটিফুল’ সিরিজে প্রিন্স ওমর শেরিফের চরিত্রে কবীর আজ স্মরণীয়।

* ‘আর্থ’ বা ‘ওয়েক আপ সিড’এ কম সময়ের জন্য হলেও পর্দায় তাঁর উপস্থিতি মনে রাখার মতো। বিনোদ খন্নার ছেলে রাহুল খন্না নজর কেড়েছেন ‘২৪’ ও ‘দ্য আমেরিকানস’এর মতো হিট সিরিজেও।


মন্তব্য