kalerkantho


বিশ্ব সাহিত্য

একমাত্র কবিতাই পারে যুদ্ধ থামাতে

৭ অক্টোবর, ২০১৬ ০০:০০



একমাত্র কবিতাই পারে যুদ্ধ থামাতে

সিরিয়ায় পাঁচ বছর ধরে চলা সংঘাতে মারা গেছে তিন লাখেরও বেশি মানুষ। ধ্বংস হয়েছে দেশটির বহু জনপদ।

পশ্চিমা দেশগুলো এ সংঘাত নিরসনে তেমন আন্তরিক নয়। এ অবস্থায় ‘কবিতায়’ ভরসা দেখছেন দেশটির প্রখ্যাত কবি আদোনিস। তিনি বলেছেন, একমাত্র কবিতাই পারে আরব বিশ্বকে রক্ষা করতে। সাহিত্যে নোবেল পুরস্কারের জন্য মনোনীত ব্যক্তিদের আলোচনায় প্রতিবছরই আদোনিসের নাম উঠে এলেও এখন পর্যন্ত পুরস্কারটি পাননি তিনি। ১৯৮৫ সাল থেকে প্যারিসে নির্বাসনে রয়েছেন এই কবি। সম্প্রতি সুইডেনের গুটেনবার্গের বইমেলায় এক সাক্ষাত্কারে সিরিয়ার সমস্যা সম্পর্কে আদোনিস বলেন, ‘আমেরিকানরা সমস্যার সমাধান চায় না। তারা সমস্যা জিইয়ে রাখতে চায়। রাশিয়াও তাই। এরা নিজেদের স্বার্থ নিয়েই আছে। ’ তিনি আরব নেতাদের রাষ্ট্র থেকে ধর্মকে আলাদা করার আহ্বান জানান। তাঁর মতে এই কাজটিতে গুরুত্বপূর্ণ অবদান রাখতে পারে কেবল কবিতা। তিনি বলেন, ‘কবিতা কোনো শিশুর গলা কাটতে পারে না, পারে না কোনো মানুষকে হত্যা করতে কিংবা জাদুঘর ধ্বংস করতে। ’ তাঁর মতে, আরব বিশ্বের ভবিষ্যৎ ধর্ম নিরপেক্ষতায়। আর কারো পক্ষেই উপাসনালয় থেকে ধর্মনিরপেক্ষতার আন্দোলন করা সম্ভব নয়। কারণ বিপ্লব এক জিনিস, আর উপাসনালয় আরেক জিনিস।


মন্তব্য