kalerkantho


'নিজের গবেষণালব্ধ জ্ঞানকে দেশের কাজে লাগাতে চাই'

সজীব রায়   

১৭ জানুয়ারি, ২০১৮ ২০:১৯



'নিজের গবেষণালব্ধ জ্ঞানকে দেশের কাজে লাগাতে চাই'

প্রাচ্যের অক্সফোর্ড খ্যাত ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় একটি স্বপ্নের নাম। স্বপ্নের এই বিদ্যাপীঠে নিজের লক্ষ্যকে ঠিক রেখে ছোট ছোট স্বপ্নকে লালন করে  নিজেকে নিয়েছেন সেরাদের তালিকায়। নিজ বিভাগে এখন পর্যন্ত সর্বোচ্চ সিজিপিএ পাওয়ার জন্য স্বীকৃতিস্বরূপ অর্জন করেছেন ডিনস অ্যাওয়ার্ড।

মেধাবী এই শিক্ষার্থীর নাম আনিকা ইন্তিসার। ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের নৃবিজ্ঞান বিভাগ থেকে  সর্বোচ্চ সিজিপিএ ৩.৮৬ (স্নাতক) এবং ৩.৯৪ (স্নাতকোত্তর) পেয়ে প্রথম হওয়ার গৌরব অর্জন করেন।

আনিকার শৈশব কাটে ঢাকাতেই। ঢাকার ওয়াই ডাব্লিউ সি এ গার্লস হাই স্কুল থেকে মাধ্যমিক পরীক্ষায় ব্যবসায় শিক্ষা বিভাগে জিপিএ ৫.০ অর্জন করেন। এরপর ভিকারুন্নেসা কলেজ থেকে মানবিক বিভাগে জিপিএ ৫.০ পেয়ে ভর্তি হন স্বপ্নের বিদ্যাপীঠ ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ে। এইচএসসি পরীক্ষায় ঢাকা বোর্ডে ৬৪তম স্থান লাভ করেন।

আনিকা বলেন, বিশ্ববিদ্যালয় জীবনের প্রথম থেকেই আমার লক্ষ্য ছিল ভাল কিছু করার। নিয়মিত ক্লাস করা এবং ক্লাস নোট ঠিক মতো নেওয়ায় মনোযোগী ছিলাম। সব সময় বই নিয়ে বসে থাকার অভ্যাস আমার কখনোই ছিল না। আমি নির্দিষ্ট রুটিন মেনে পড়াশুনা করতাম। নির্দিষ্ট পাঠ্যপুস্তকের পাশাপাশি বিভিন্ন ধরনের বই পড়তাম। এছাড়াও বিতর্ক, খেলাধুলা ও সাহিত্য চর্চার  সাথে যুক্ত ছিলাম। বিশ্বসাহিত্য কেন্দ্রের পুরস্কারসহ বেশ কিছু স্বীকৃতি অর্জন করি। বিভিন্ন পত্রিকা, ম্যাগাজিন ও  সাময়িকীতে লেখালেখি করা হত।এছাড়াও সুন্দর হাতের লেখার জন্যও সম্মাননা লাভ করি।'

পরিবারের দুই ভাইবোনের মধ্যে আনিকা বড়। বাবা এম.আনিসুজ্জামান নোবেল বিজয়ী প্রতিষ্ঠান গ্রামীণ ব্যাংকের আইটি স্পেশালিস্ট। মা ড. শাহিদা আকতার যুগ্মসচিবের দায়িত্ব পালন করছেন। সম্প্রতি তিনি ঢাকা বিভাগে শিক্ষা ও চাকুরী ক্ষেত্রে 'শ্রেষ্ঠ জয়িতা' পদক লাভ করেন। একমাএ ছোট ভাই ২০১৫ সালের এসএসসি পরীক্ষায় ঢাকা বোর্ডে ১৮তম হওয়ারগৌরব অর্জন করে।

আনিকা বর্তমানে বঙ্গবন্ধু বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ে লেকচারার হিসাবে নিযুক্ত আছেন। এছাড়া শেখ রেহানা হলের এসিস্ট্যান্ট প্রভোস্ট হিসেবেও দায়িত্ব পালন করছেন।

নিজের ভবিষ্যৎ পরিকল্পনা নিয়ে জানান জ্ঞানের পরিধি শুধু জাতীয় নয় বরং আন্তর্জাতিক ক্ষেত্রে বিস্তৃত করতে চাই। ইচ্ছা আছে আমেরিকা বা জাপানের স্বনামধন্য কোন বিশ্ববিদ্যালয় থেকে পিএইচ ডি ডিগ্রি অর্জন করার।

অদূর ভবিষ্যতে বাংলাদেশকে ধনীদেশের কাতারে দেখতে চাই।বাংলাদেশকে উন্নতির রোল মডেল হিসাবে বিশ্বের দরবারে প্রতিষ্ঠিত হবে- এই স্বপ্ন দেখি। ভবিষ্যতে নিজের গবেষণালব্ধ জ্ঞানকে দেশের কাজে লাগাতে চাই।

 

 



মন্তব্য