kalerkantho


ফ্লোরিডার স্কুলে হামলার কথা স্বীকার করেছে ক্রুজ

সঙ্গে বাড়তি গুলি রেখেছিল সে

কালের কণ্ঠ ডেস্ক   

১৭ ফেব্রুয়ারি, ২০১৮ ০০:০০



ফ্লোরিডার স্কুলে হামলার কথা স্বীকার করেছে ক্রুজ

যুক্তরাষ্ট্রের ফ্লোরিডার হাই স্কুলে গুলি চালিয়ে ১৭ জনকে হত্যার কথা স্বীকার করেছে সন্দেহভাজন নিকোলাস ক্রুজ। পুলিশ এ কথা জানিয়েছে। বৃহস্পতিবার তাকে আদালতে হাজির করা হয়। ওই সময়ই পুলিশ তার স্বীকারোক্তি দেওয়ার কথা জানায়। ক্রুজের বিরুদ্ধে পরিকল্পিত হত্যার অভিযোগ আনা হয়েছে।

১৯ বছর বয়সী নিকোলাস ক্রুজ বুধবার স্কুল ছুটির কিছু সময় আগে পার্কল্যান্ড শহরের মারজরি স্টোনম্যান ডগলাস হাই স্কুলে ঢুকে এলোপাতাড়ি গুলি চালিয়ে ১৪ শিক্ষার্থী ও আরো তিনজনকে হত্যা করে। প্রায় তিন মিনিট ধরে সে গুলি করে। এর কিছু সময় পর তাকে আটক করা হয়। নিহত ১৪ শিক্ষার্থীদের বয়স ১৪ থেকে ১৮ বছরের মধ্যে। ২০১২ সালের পর যুক্তরাষ্ট্রের স্কুলগুলোতে যতগুলো হত্যার ঘটনা ঘটেছে তার মধ্যে বুধবারের হত্যাকাণ্ডটিকে সবচেয়ে রক্তক্ষয়ী বলা হচ্ছে।

আদালতের নথিতে বলা হয়েছে, ‘নিকোলাস ক্রুজ নিজেকেই বন্দুকধারী হিসেবে পরিচয় দিয়েছে। সে একটি এআর-১৫ বন্দুক নিয়ে স্কুল ক্যাম্পাসে ঢুকে হলওয়েতে এবং মাঠে যাকে পেয়েছে তার দিকেই গুলি ছুড়েছে।’

নথিতে আরো বলা হয়, ‘বন্দুক ছাড়াও নিকোলাস ক্রুজ ব্যাকপ্যাক ও কালো ডাফেল ব্যাগে অতিরিক্ত গুলি নিয়ে গিয়েছিল। গুলির পর পালানোর উদ্দেশ্যে সে অন্য শিক্ষার্থীদের সঙ্গে স্কুল ভবন ছাড়ে। কাছাকাছি ওয়ালমার্ট ও ম্যাকডোনাল্ডসের দোকানে ঢুকলেও কিছুক্ষণের মধ্যেই পুলিশ তাকে গ্রেপ্তার করে।’

কেন্দ্রীয় গোয়েন্দা সংস্থা এফবিআই জানায়, গত বছর একটি ইউটিউব মন্তব্যের সূত্র ধরে বেন বেনিংটন নামে এক ব্যবহারকারী এফবিআইকে ১৯ বছর বয়সী নিকোলাস ক্রুজ সম্পর্কে সতর্ক করেছিল। স্কুলের বহিষ্কৃত ছাত্র নিকোলাস ক্রুজের ব্যাপারে শিক্ষকদেরও ই-মেইল পাঠিয়ে সতর্ক করেছিল স্কুল কর্তৃপক্ষ।

স্কুলে গুলির ঘটনায় বৃহস্পতিবার নিহতদের পরিচয়ও প্রকাশ করেছে পুলিশ। এদের মধ্যে স্কুলের সহকারী ফুটবল কোচ অ্যারন ফিস, অ্যাথলেটিক পরিচালক ক্রিস হিক্সন ও শিক্ষক স্কট বিগেলও আছেন।

বৃহস্পতিবার মোমবাতি জ্বালিয়ে নিহতদের স্মরণ করেছে হাজারো ফ্লোরিডাবাসী। যুক্তরাষ্ট্রের ভেতর অস্ত্র আইন আরো কঠোর করারও দাবি জানিয়েছে তারা। সূত্র : এএফপি, সিএনএন।


মন্তব্য