kalerkantho


ব্রেক্সিট প্রক্রিয়া শুরু হচ্ছে আজ থেকে

কালের কণ্ঠ ডেস্ক   

১৯ জুন, ২০১৭ ০০:০০



ব্রিটেনের ইউরোপীয় ইউনিয়ন (ইইউ) ছেড়ে যাওয়া অর্থাৎ ব্রেক্সিট প্রসঙ্গে আলোচনা শুরু হচ্ছে আজ সোমবার থেকে। ব্রেক্সিট প্রশ্নে গত বছরের জুন মাসে গণভোট হওয়ার এক বছর পর বিচ্ছেদ প্রক্রিয়াবিষয়ক চূড়ান্ত আলোচনা শুরু হতে যাচ্ছে।

একের পর এক হামলা আর দুর্ঘটনার মধ্যেই এই আলোচনায় বসতে যাচ্ছে ব্রিটেন। সর্বশেষ লন্ডনের একটি টাওয়ার আগুন ধরে অর্ধলক্ষাধিক মানুষ নিহত হয়।

ব্রাসেলসে ইইউর সদর দপ্তরে জোট ত্যাগের প্রক্রিয়ার জটিল বিষয়গুলো নিয়ে ব্রিটিশ ব্রেক্সিটবিষয়ক মন্ত্রী ডেভিড ডেভিস ও ইইউর পক্ষে সংস্থার প্রধান আলোচক মিশেল ব্রানিয়ার এই আলোচনায় অংশ নেবেন। ১৯৭৩ সালে ব্রিটিশ প্রধানমন্ত্রী এডওয়ার্ড হিথের নেতৃত্বে ব্রিটিশ সরকার ইউরোপীয় ইউনিয়নে যোগ দেয়। ৪৪ বছর পর ব্রিটিশ জনগণ গণভোটের মাধ্যমে এই জোট ত্যাগের পক্ষে রায় দেয় গত বছর। মূলত অভিবাসীদের ব্রিটেনে ঢোকা বন্ধ এবং সার্বভৌমত্ব রক্ষার দোহাই দিয়েই ব্রেক্সিটের পক্ষে ভোট দেয় ব্রিটিশরা। যদিও ওই সময় ব্রিটেনের রক্ষণশীল সরকার ব্রেক্সিটের বিরুদ্ধে প্রচার চালায়।

ব্রিটেনে গত বছর গণভোট হওয়ার পর গত ২৯ মার্চ ব্রাসেলসে জোটের বিধি অনুযায়ী টেরেসা মের সরকার জোট থেকে বের হয়ে যাওয়ার চিঠি দাখিল করেছিলেন। ইউরোপীয় জোটের নিয়মানুযায়ী, আগামী দুই বছর (২০১৯ সালের মার্চ) মধ্যে দুই পক্ষের দেনা-পাওনা মিটিয়ে ফেলতে হবে।

আজ থেকে শুরু হতে যাওয়া আলোচনায় আপাতত বিচ্ছেদবিষয়ক মূল কর্মসূচি নির্ধারণ করা হবে। জোটের গঠনতন্ত্র অনুযায়ী কোনো সদস্য রাষ্ট্র জোট ছাড়ার ক্ষেত্রে ২০ হাজার শব্দের যে আইনবিষয়ক বিধি আছে, তা নিয়ে আলোচনা হবে। যেমন, ইউরোপীয় ইউনিয়নে কর্মরত এক হাজার ৮০০ ব্রিটিশ কর্মকর্তার পেনশনের দায়িত্ব কারা বহন করবে, ইউনিয়নভুক্ত দেশগুলোতে ও যুক্তরাজ্যে বসবাসরত ইউরোপীয় ইউনিয়নের সদস্য দেশগুলোর নাগরিকদের অবস্থান এবং চাকরির বিষয়।

বর্তমান সময়ে ইউনিয়নভুক্ত সদস্য রাষ্ট্রগুলোর প্রায় ৩২ লাখ নাগরিক যুক্তরাজ্যে, অন্যদিকে ১২ লাখ যুক্তরাজ্যের নাগরিক ইউরোপীয় ইউনিয়নভুক্ত দেশগুলোতে বাস করছে। এই নাগরিকদের বাস ও চাকরির ক্ষেত্রে সীমাবদ্ধতার আইনি বিষয়গুলো নিয়ে আলোচনা হবে। এ ছাড়া ইউরোপীয় মুক্তবাজারে যুক্তরাজ্যের থাকা না-থাকা নিয়ে দরকষাকষি হবে এবং উভয় পক্ষের লেনদেন নিয়ে কথা হবে।

গত ৩১ মার্চ ইউরোপীয় কাউন্সিলের প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড টাস্কের সভাপতিত্বে সদস্য দেশগুলো ব্রাসেলসে ব্রেক্সিট নিয়ে যুক্তরাজ্যের সঙ্গে সমঝোতার খসড়া রূপরেখা অনুমোদন করতে একটি খসড়া প্রস্তুত করেছে। ব্রেক্সিট-বিচ্ছেদ প্রক্রিয়া আলাপ-আলোচনার মাধ্যমে ৪৪ বছরের সম্পর্ক চুকিয়ে ফেলার ব্যাপারটিতে আগে দুই পক্ষই শক্ত অবস্থান থেকে কথা বলেছে।

সূত্র : এএফপি।



মন্তব্য