kalerkantho


শেরপুরে সড়ক ও জনপথের অভিযানে ৫০টি অবৈধ স্থাপনা উচ্ছেদ

শেরপুর প্রতিনিধি    

১৫ মার্চ, ২০১৯ ০৪:০৯



শেরপুরে সড়ক ও জনপথের অভিযানে ৫০টি অবৈধ স্থাপনা উচ্ছেদ

শেরপুরে সড়ক ও জনপথ বিভাগের (সওজ) বেদখল হওয়া প্রায় আড়াই কোটি টাকা মূল্যের ৬০ শতাংশ জমি উদ্ধার করা হয়েছে।

বৃহস্পতিবার দুপুরে শহরের নতুন বাস টার্মিনাল এলাকার সওজ কার্যালয় থেকে গৌরীপুর জামুর দোকান এলাকা পর্যন্ত ভ্রাম্যমাণ আদালতের মাধ্যমে উচ্ছেদ অভিযান চালিয়ে ওই জমি উদ্ধার করা হয়। একইসাথে ধ্বংস করা হয় প্রায় ৫০টি অবৈধ দেয়াল, কাঁচা-পাকা স্থাপনা ও ২টি অবৈধ বিলবোর্ড।

কালেক্টরেটের নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট মোস্তাফিজুর রহমান শাওন এবং সড়ক ও জনপথ বিভাগের উপ-বিভাগীয় প্রকৌশলী মোবাশ্বেরা সাদিয়া হকের নেতৃত্বে এ উচ্ছেদ অভিযান চালানো হয়।

সওজ কর্মকর্তারা জানান, শেরপুর শহরের গৌরীপুর নতুন বাস টার্মিনাল সড়ক এলাকায় স্থানীয় শতাধিক ব্যক্তি সড়ক ও জনপথ বিভাগের জায়গায় ঘর ও দেয়াল নির্মাণ করে অবৈধ দখল করে রেখেছিল। কর্তৃপক্ষ গত কয়েকদিন ধরে বেদখল হওয়া সরকারি জমি উদ্ধারে পরিমাপসহ স্থাপনা সরিয়ে নেওয়ার পরামর্শ দেন। অনেকেই তাদের স্থাপনা সরিয়ে নিলেও কেউ কেউ তাদের স্থাপনা সরিয়ে না নেওয়ায় বৃহস্পতিবার দুপুর থেকে বিকেল পর্যন্ত ভ্রাম্যমাণ আদালতের মাধ্যমে অভিযান চালিয়ে অবৈধ দেয়াল, কাঁচা-পাকা স্থাপনা ও বিলবোর্ডসহ কমপক্ষে ৫০টি অবৈধ স্থাপনা উচ্ছেদ করে প্রায় ৬০ শতাংশ সরকারি জমি উদ্ধার করা হয়। যার বাজার মূল্য আনুমানিক আড়াই কোটি টাকা।

অভিযানকালে সওজের সার্ভেয়ার এনামুল হক, জেলা ফায়ার সার্ভিস ও সিভিল ডিফেন্সের স্টেশন অফিসার সুবল চন্দ্র দেবনাথ, সদর থানার উপ-পরিদর্শক (এসআই) আনছার আলী এবং জেলা প্রশাসন, সওজ ও আইন-শৃঙ্খলা বাহিনীর অন্যান্য সদস্যরা উপস্থিত ছিলেন।

এ ব্যাপারে নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট মোস্তাফিজুর রহমান শাওন বলেন, মহাসড়ক যানজটমুক্ত রাখতে এবং সড়ক প্রশস্তকরণের জন্য সরকারি জমি থেকে অবৈধ স্থাপনা উচ্ছেদ কার্যক্রম চালানো হচ্ছে। জনস্বার্থে এ অভিযান অব্যাহত থাকবে।



মন্তব্য