kalerkantho


জেএমবির চার অভিযুক্ত সদস্য গ্রেপ্তার

আঞ্চলিক প্রতিনিধি, চাঁপাইনবাবগঞ্জ    

১৫ অক্টোবর, ২০১৮ ১৫:২১



জেএমবির চার অভিযুক্ত সদস্য গ্রেপ্তার

চাঁপাইনবাবগঞ্জের নাচোলে শিবগঞ্জ ও গোমস্তাপুরের চার জেএমবি সদস্যকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে বলে দাবি করেছে র‌্যাব।

গতকাল রবিবার (১৪ অক্টোবর) গভীর রাতে নাচোল উপজেলার আমলাইন এলাকার একটি পেয়ারা বাগানে অভিযান চালিয়ে তাদেরকে গ্রেপ্তার করা হয়। এ সময় তাদের কাছে থাকা কিছু জিহাদি বই, হ্যান্ডনোট ও লিফলেট এবং তাদের ব্যবহার্য জিনিসপত্র উদ্ধার করা হয় বলে জানিয়েছে র‌্যাব।

গ্রেপ্তাররা হলেন শিবগঞ্জ উপজেলার কানসাট ইউনিয়নের রাঘবপুর গ্রামের মৃত ফজর আলী মণ্ডলের ছেলে তৌফিকুল ইসলাম ওরফে তৌফিক ডাক্তার ও একই ইউনিয়নের কাইঠ্যাপাড়া গ্রামের রুহুল আমীনের ছেলে সুলাভ ওরফে সানাউল্লাহ, গোমস্তাপুর উপজেলার চৌডালা ইউনিয়নের নন্দলালপুর গ্রামের হারুনুর রশিদের ছেলে মনিরুল ইসলাম ওরফে লাদেন ও একই ইউনিয়নের বেনীচক গ্রামের মুজিবুর রহমানের ছেলে জিয়াউর রহমান ওরফে জিয়া।

র‌্যাব-৫ এর উপ-অধিনায়ক মেজর শিবলী মোস্তফা সোমবার সাংবাদিকদের বলেন, গোপন সংবাদের ভিত্তিতে নাচোল থানার আমলাইন এলাকার একটি পেয়ারা বাগানে অভিযান চালানো হয়। এ সময় সেখানে গোপন বৈঠকে থাকা অবস্থায় নিষিদ্ধ ঘোষিত জঙ্গি সংগঠন জেএমবির সক্রিয় সদস্য জিয়াউর রহমান, সুলাভ ও তৌফিকুলকে গ্রেপ্তার করা হয়। পরে তাদের দেওয়া তথ্যের ভিত্তিতে অপর জেএমবি সদস্য মনিরুলকে তার বাড়ি থেকে গ্রেপ্তার করা হয়। এ সময় তাদের কাছে থাকা কিছু উগ্র জিহাদি বই ও ব্যবহার্য জিনিসপত্র উদ্ধার করা হয়। 

আটক সুলাভ ওরফে সানাউল্লাহর মা সোনাভান বেগম আজ সোমবার (১৫ অক্টোবর) দুপুরে বলেন, 'আমার ছেলে কসমেটিকসের দোকান করে ব্যবসার পাশাপাশি মোবাইল ফ্লেক্সিলোড ও বিকাশে টাকা লেনদেনের বৈধ ব্যবসা করতো। গত ৯ সেপ্টেম্বর বাড়ি থেকে দোকান পৌঁছানোর আগেই রাস্তা থেকে কে বা কারা তাকে তুলে নিয়ে যায়। এরপর থেকে তার কোন খোঁজ না পাওয়ায় গত ১৮ সেপ্টেম্বর শিবগঞ্জ থানায় জিডি (নম্বর ৯৩৮) করার পাশাপাশি র‌্যাব অফিস ও থানাসহ জেলখানা ও আদালতে দিনের পর দিন ছুটোছুটি করেও কোনো খোঁজ পাইনি।'  

 



মন্তব্য