kalerkantho


‘অসচ্ছল মুক্তিযোদ্ধাকে ১৫ লাখ টাকা ব্যয়ে ঘর দেওয়া হবে’

কালের কণ্ঠ অনলাইন   

১৪ সেপ্টেম্বর, ২০১৮ ২৩:৩১



‘অসচ্ছল মুক্তিযোদ্ধাকে ১৫ লাখ টাকা ব্যয়ে ঘর দেওয়া হবে’

ছবি: কালের কণ্ঠ

দেশের সকল অসচ্ছল মুক্তিযোদ্ধাকে ১৫ লাখ টাকা ব্যয়ে একটি করে ঘর নির্মাণ করে দেবে সরকার। ইতিমধ্যে সরকার মুক্তিযোদ্ধাদের ৮০ ভাগ দাবি পূরণ করেছে আগামীতে সরকার গঠন করে বাকী ২০ ভাগ চাহিদাও পূরণ করবে সরকার বলে মন্তব্য করেছে মুক্তিযোদ্ধা বিষয়ক মন্ত্রী বীর মুক্তিযোদ্ধা আ ক ম মোজাম্মেল হক। তিনি বৃহস্পতিবার বিকেলে শেরপুরের নালিতাবাড়ীর উপজেলার নব নির্মিত মুক্তিযোদ্ধা কমপ্লেক্স ভবনের উদ্ভোধন কালে প্রধান অতিথি হিসেবে এসব কথা বলেন।

তিনি বলেন, আগামী নির্বাচনে সিদ্ধান্ত নিতে হবে কে দেশ পরিচালনা করবে, স্বাধীনতা বিরোধী চক্র না মুক্তিযোদ্ধের চেতনায় বিশ্বাসী দল? এই সিদ্ধান্ত আপনাদের নিতে হবে। দেশের সমস্ত রাস্তা ঘাট মুক্তিযোদ্ধাদের নামে করা হবে। এ বিষয়ে স্থানীয় সরকার মন্ত্রণালয় ইতিমধ্যে সাকুর্লার দেওয়া হয়েছে। সকল মুক্তিযোদ্ধাদের আহবান করা হয়েছে, সভা করে তালিকা করার জন্য। কোনো রাস্তা কোন মুক্তিযোদ্ধার নামে হবে। সেই তালিকা উপজেলা অফিসে দেওয়ার জন্য বলা হয়েছে।

পরে উপজেলা পরিষদ মুক্ত মঞ্চে সন্ত্রাস, জঙ্গিবাদ ও মাদকবিরোধী সমাবেশ ও সোহাগপুর বিধবা পল্লীর শহীদ জায়াদের সংবর্ধনা অনুষ্ঠানে প্রধান বক্তা হিসেবে কৃষিমন্ত্রী বেগম মতিয়া চৌধুরী বলেন, এই রোহিঙ্গা ১৯৭৮ সালেও আসছিল জিয়াউর রহমান ফিরেও থাকাননি। ১৯৯৩ সালেও আসছিল রোহিঙ্গা কিন্তু খালেদা জিয়া কক্সবাজারে যান নাই। কিন্তু দেশনেত্রী শেখ হাসিনা তাদের আশ্রয় দিয়েছেন। আর ৭৮ এবং ৯৩ তারা যা পারে নি কিন্তু শেখ হাসিনার কারণে আজকে আন্তর্জাতিক বিশ্বে রোহিঙ্গা ইস্যু নিয়ে ঝাঁকি দিয়েছে।

এ সময় ময়মনসিংহ রেঞ্জের ডিআইজি নিবাস চন্দ্র মাঝি, জেলা প্রসাশক আনারকলি মাহবুব, শেরপুর পুলিশ সুপার কাজী আশরাফুল আজীমসহ স্থানীয় আওয়ামী লীগের নেতাকর্মীরা উপস্থিত ছিলেন।



মন্তব্য