kalerkantho


কুড়িগ্রামে ৬ মাদ্রাসাছাত্রকে বলাৎকার : সুপারসহ ২ শিক্ষকের নামে মামলা

কুড়িগ্রাম প্রতিনিধি   

১৭ মে, ২০১৮ ২২:০৭



কুড়িগ্রামে ৬ মাদ্রাসাছাত্রকে বলাৎকার : সুপারসহ ২ শিক্ষকের নামে মামলা

কুড়িগ্রামের রাজারহাটে কওমী মাদ্রাসার ৬ ছাত্রকে বলাৎকারের ঘটনায় ওই মাদ্রাসার সুপারসহ ২ শিক্ষকের নামে মামলা হয়েছে। এ ব্যাপারে গতকাল বুধবার রাতে মাদ্রাসা পরিচালনা কমিটির সভাপতি ও সদর ইউপি চেয়ারম্যান মোঃ এনামুল হক বাদী হয়ে থানায় একটি মামলা দায়ের করেন। এদিকে এ ঘটনার পর থেকে ওই দুই শিক্ষক পলাতক রয়েছেন। 

মামলার বিবরণে জানা গেছে, রাজারহাট বাজারের সন্নিকটে রাজারহাট কওমী মাদ্রাসার আবাসিক শিক্ষক মাহবুব হোসেন তার আবাসিক ভবনের ৫ ছাত্রকে পর্যায়ক্রমে বলাৎকার করে আসছিল। বিষয়টি প্রকাশ না করার জন্য তাদের হুমকি দেয় ওই শিক্ষক। কিন্তু গত ১০ মে রাতে আবারো ওই আবাসিক ভবনের আরেক ছাত্রকে(৮) জোরপূর্বক বলাৎকার করে। পরদিন বলাৎকারের শিকার ওই ছাত্র ঘটনাটি তার বাবা-মাকে জানালে অভিভাবক ও এলাকাবাসী ওই মাদ্রাসায় আসার পূর্বেই মাদ্রাসার সুপার আশরাফুল ইসলাম ও শিক্ষক মাহবুব পালিয়ে যায়। এ ঘটনার পর মাদ্রাসাটির অভিভাবকরা তাদের সন্তানদের নিয়ে যায়। এর পর থেকে মাদ্রাসাটির অচলাবস্থার সৃষ্টি হলে প্রতিষ্ঠান পরিচালনা কমিটির সভাপতি সদর ইউপি চেয়ারম্যান এনামুল হক একাধিকবার অভিযুক্ত ২ শিক্ষককে তলব করলেও তারা উপস্থিত হয়নি। অবশেষে বুধবার রাতে সভাপতি বাদী হয়ে রাজারহাট থানায় একটি মামলা দায়ের করেন। বিষয়টি নিয়ে গোটা উপজেলাজুড়ে দারুণ চাঞ্চল্যের সৃষ্টি হয়েছে। 

এ ব্যাপারে মামলার তদন্তকারী কর্মকর্তা ও ওসি তদন্ত পলাশ চন্দ্র দেব বলেন, অভিযুক্তরা ন্যাক্কারজনক ঘটনা ঘটিয়েছে। তাদের দ্রুত গ্রেপ্তারে পুলিশি অভিযান চলছে। 


মন্তব্য