kalerkantho


ভুয়া প্রশ্নপত্র প্রদান ও ফলাফল পরিবর্তনকারী হৃদয় মিয়া গ্রেপ্তার

জামালপুর প্রতিনিধি   

২৬ এপ্রিল, ২০১৮ ২৩:৪৪



ভুয়া প্রশ্নপত্র প্রদান ও ফলাফল পরিবর্তনকারী হৃদয় মিয়া গ্রেপ্তার

ছবি: কালের কণ্ঠ

জামালপুরে র‌্যাবের অভিযানে ভুয়া প্রশ্নপত্র আদান-প্রদান এবং পরীক্ষার ফলাফল পরিবর্তনকারী প্রতারক চক্রের সদস্য হৃদয় মিয়া (১৮) নামের এক যুবককে গ্রেপ্তার করা হয়েছে। জামালপুর সদর উপজেলার দিগপাইত ইউনিয়নের ছোনটিয়া বাজার এলাকার ডোয়াইলপাড়া গ্রামের মো. হবিবর রহমানের ছেলে তিনি। বৃহস্পতিবার সন্ধ্যা সোয়া ৬টার দিকে জামালপুর সদরের জামতলি যাত্রী ছাউনি থেকে তাকে গ্রেপ্তার করা হয়। তার কাছ থেকে একটি ল্যাপটপ, তিনটি মুঠোফোন সেট ও ছয়টি সিমকার্ড উদ্ধার করা হয়েছে।

র‌্যাব-১৪ সূত্রে জানা গেছে, র‌্যাব তথ্য ও প্রযুক্তির সহায়তায় সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম তদারকি করে ভুয়া প্রশ্নপত্র আদান-প্রদান ও ফলাফল পরিবর্তনকারী চক্রের সদস্যদের গ্রেপ্তারের চেষ্টা করে আসছিল। বৃহস্পতিবার র‌্যাব-১৪ জামালপুর ক্যাম্পের কম্পানি কমান্ডার অতিরিক্ত পুলিশ সুপার রাজীব কুমার দেব এবং স্কোয়াড কমান্ডার সহকারী পুলিশ সুপার জুয়েল চাকমার নেতৃত্বে জামালপুর-মধুপুর সড়কের জামতলী বাজার এলাকায় অভিযান চালানো হয়। 

এ সময় সন্ধ্যা সোয়া ৬টার দিকে র‌্যাবের দলটি স্থানীয় জামতলী বাজারের রাস্তার পূর্বপাশে যাত্রী ছাউনির সামনে পাকা রাস্তা থেকে প্রশ্নপত্র ফাঁস এবং পরীক্ষার ফলাফল পরিবর্তনকারী প্রতারক চক্রের সদস্য হৃদয় মিয়াকে গ্রেপ্তার করতে সক্ষম হয়। তার কাছ থেকে একটি ল্যাপটপ, তিনটি মুঠোফোন সেট ও ছয়টি সিমকার্ড উদ্ধার করা হয়েছে। প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে হৃদয় মিয়া প্রশ্নপত্র ফাঁস এবং পরীক্ষার ফলাফল পরিবর্তনকারী প্রতারক চক্রের সঙ্গে সংশ্লিষ্টতার কথা স্বীকার করেছে।

হৃদয় মিয়াকে গ্রেপ্তারের পর র‌্যাব নিশ্চিত হয়েছে যে, এর আগেও সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমের বিভিন্ন এ্যাপস্ ব্যবহার করে এসএসসি এবং এইচএসসি পরীক্ষার ভূয়া প্রশ্নপত্র ফাঁসে চক্রটি কাজ করেছিল। আসন্ন এইচএসসি পরীক্ষাকে পুঁজি করেও প্রশ্নপত্র ফাঁস সংক্রান্ত প্রতারক চক্রটি বিভিন্ন ধরনের প্রতারণামূলক কার্যক্রমে লিপ্ত ছিল। 

র‌্যাবের জামালপুর ক্যাম্পের কম্পানি কমান্ডার অতিরিক্ত পুলিশ সুপার রাজীব কুমার দেব কালের কণ্ঠকে বলেন, ভুয়া প্রশ্নপত্র আদান-প্রদান চক্রের বাকি সদস্যদের অবিলম্বে গ্রেপ্তারের জন্য র‌্যাবের অভিযান অব্যাহত রয়েছে। গ্রেপ্তারকৃত আসামি হৃদয় মিয়া ও অন্যান্য সহযোগীদের বিরুদ্ধে জামালপুর সদর থানায় একটি মামলা দায়ের করা হয়েছে। 


মন্তব্য