kalerkantho


ভোলার মেঘনায় ১৬ জেলের কারাদণ্ড

ভোলা প্রতিনিধি    

১৯ মার্চ, ২০১৮ ১৫:২৩



ভোলার মেঘনায় ১৬ জেলের কারাদণ্ড

ইলিশের অভায়শ্রমে ভোলার মেঘনায় নিশেধাজ্ঞা অমান্য করে ইলিশ ধরার অপরাধে ১৬ জেলেকে দুই মাস করে বিনাশ্রম কারাদণ্ড দিয়েছেন ভ্রাম্যমাণ আদালত।

গতকাল রবিবার রাত ১০টার দিকে ভ্রাম্যমাণ আদালতের নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট ও উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মৃধা মো.  মোজাহিদুল ইসলাম এ রায় দেন।

দণ্ডপ্রাপ্তরা হলেন আলমগীর, রিয়াজ, রাশেদ, নাজিম, মাসুদ, আবু তাহের, সাইফুল, রফিক, সাজাহান, করিম, মারুফ, বাচ্চু, রাসেল, রশিদ মাঝি, রশিদ রাঢী ও সুজন। তাদের সবার বাড়ি ভোলা সদর উপজেলার রাজাপুর ইউনিয়নের রামদাসপুর গ্রামে।

ভোলা সদর উপজেলা জ্যেষ্ঠ মৎস্য কর্মকর্তা মোহাম্মদ আসাদুজ্জামান জানান, ইলিশের অভায়শ্রমে ইলিশ সংরক্ষণের লক্ষ্যে উপজেলা প্রশাসন ও মৎস্য বিভাগের নেতৃত্বে পুলিশ ও নৌপুলিশ নিয়ে যৌথ অভিযান  পরিচালনা করা হয়। এ সময় তিনটি ট্রলার নিয়ে ইলিশ ধরার অপরাধে মেঘনার রামদাসপুরসহ বিভিন্ন স্থান থেকে পাঁচ হাজার মিটার কারেন্ট জালসহ ১৬ জেলেকে আটক করা হয়। পরে তাদেরকে ভ্রাম্যমাণ আদালতে সোপর্দ করা হলে আদালতের নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট প্রত্যেককে দুই  মাসের কারাদণ্ড প্রদান করেন। এ সময় তাদের কাছ থেকে পাঁচ হাজার মিটার কারেন্ট জাল জব্দ করা হয়। আটক জাল মেঘনায় তীরে পুড়িয়ে নষ্ট করে দেওয়া হয়েছে।

একই সময় অপর এক অভিযানে কোস্টগার্ড দক্ষিণ  জোনের একটি দল রামদাসপুর এলাকায় অভিযান চালিয়ে প্রায় ১৩ কোটি টাকার কারেন্ট জালসহ বিভিন্ন ধরনের জাল জব্দ করেছে। পরে তা জনসমক্ষে পুড়িয়ে নষ্ট করা হয়।

উল্লেখ্য, ইলিশের অভায়াশ্রমে মেঘনা ও তেতুরিয়া নদীর ১৯০ কিলোমিটার এলাকায় মার্চ-এপ্রিল দুই মাস ইলিশসহ সব ধরনের মাছ ধরায় নিশেধাজ্ঞা জারি করেছে মৎস্য বিভাগ। 



মন্তব্য