kalerkantho


শত্রুতা জমি নিয়ে

বাঘায় দিনে-দুপুরে ১৩ আমগাছ কেটে ফেলল প্রতিপক্ষরা

নিজস্ব প্রতিবেদক, রাজশাহী   

১৮ ফেব্রুয়ারি, ২০১৮ ০১:১৪



বাঘায় দিনে-দুপুরে ১৩ আমগাছ কেটে ফেলল প্রতিপক্ষরা

ছবি: কালের কণ্ঠ

রাজশাহীর বাঘায় জমিজমা নিয়ে বিরোধের জের ধরে দিনে-দুপুরে জোরপূর্বক ১৩টি আমগাছ কেটে সাবাড় করে দেওয়া হয়েছে। গতকাল শনিবার সকাল সাড়ে ১১টার দিকে উপজেলার বাউসা ইউনিয়নের মাঝপাড়া গ্রামের এনামুল মোল্লার ২০ বছর আগে লাগানো আমগাছগুলো কেটে ফেলে প্রতিপক্ষরা। গাছ পীরগাছা গ্রামের টেনু মন্ডলের লোকজন গাছগুলোর ডালপালা কেটে সাবাড় করে দিয়েছে বলে অভিযোগ করা হয়েছে।

এনামুল মোল্লা অভিযোগ করে জানান, তিনি এবং প্রতিপক্ষ টেনু মোল্লা মামাত-ফুফাত ভাই। তাঁদের মধ্যে দীর্ঘদিন ধরে জমি নিয়ে দ্বন্দ্ব চলছিল। এরই জের ধরে মামাত ভাই এনামুল মোল্লার দখলকৃত পৈত্রিক জমিতে লাগানো হিমসাগর ও লকনা জাতের ১৩টি আমগাছের ডালপালা ফুফাত ভাই টেনু মন্ডল তার লোকজন নিয়ে গতকাল সকাল থেকে কাটতে শুরু করে। এ ঘটনার পরে ১৪ জনের বিরুদ্ধে এনামুল মোল্লা বাঘা থানায় একটি অভিযোগ দায়ের করেন।

এনামুল বলেন, 'যে জমির আমগাছ কেটে ফেলা হয়েছে। সেই জমি আমার বাবার। এই জমিতে তাদের কোনো অংশ নেই। এ ছাড়া মাস চারেক আগে ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যানসহ এলাকার স্থানীয়দের নিয়ে শালিস বৈঠকেও বিষয়টি সমঝোতা হয়েছে; কিন্তু তারপরেও দিনে-দুপুরে জোর করে আমার আমগাছগুলো কেটে সাবাড় করা হয়েছে। এর ফলে ওই গাছগুলোতে আর সহজে আম আসবে না। গাছগুলোই হয়তো মরে যাবে।

বাঘা থানা অফিসার ইনচার্জ (তদন্ত) ধীরেন্দ্রনাথ প্রামাণিক জানান, এ বিষয়ে একটি লিখিত অভিযোগ পেয়েছি। তদন্ত সাপেক্ষে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেয়া হবে।



মন্তব্য