kalerkantho


লেবার ভিসার প্রলোভনে ভ্রমণ ভিসায় প্রতারণার শিকার এই যুবক

জামালপুর প্রতিনিধি   

১৯ জানুয়ারি, ২০১৮ ১৫:০৫



লেবার ভিসার প্রলোভনে ভ্রমণ ভিসায় প্রতারণার শিকার এই যুবক

জামালপুরের মেলান্দহের দুরমুঠ ইউনিয়নের রুকনাই গ্রামের ভুয়া আদম বেপারী মিলনের প্রতারণায় নি:স্ব হয়েছে ইসলামপুরের লাউদত্ত গ্রামের নিরীহ যুবক আব্দুল মজিদ খান। আদম বেপারী মিলন ৫ লক্ষ টাকার বিনিময়ে আব্দুল মজিদকে তিন বছরের লেবার ভিসার প্রলোভন দেখিয়ে তিন মাসের ভ্রমণ ভিসায় একটি এজেন্সির মাধ্যমে কুয়েত পাঠায়। এ প্রতারণায় মজিদ কুয়েতে দীর্ঘদিন শারিরিক নির্যাতনের শিকার হয়ে ৬ দিন কারাভোগের পর সম্প্রতি দেশে ফিরে আসেন এবং ৫ লাখ টাকা হারিয়ে নিঃস্ব হয়েছেন। 

অভিযোগ জানা গেছে, তিন বছরের লেবার ভিসার প্রলোভন দেখিয়ে ইসলামপুরের লাউদত্ত গ্রামের আব্দুল মজিদ খানকে ৫ লক্ষ টাকার বিনিময়ে ২০১৬ সালের ২৩ অক্টোবর তিন মাসের ভ্রমণ ভিসায় কুয়েতে পাঠায় মেলান্দহের দুরমুঠ ইউনিয়নের রুকনাই গ্রামের মো: খলিলের পুত্র ভুয়া আদম বেপারী মো: মিলন। এ ঘটনায় ভুয়া আদম বেপারী মো: মিলনের প্রতারণার শিকার হয়ে আব্দুল মজিদ খান কুয়েতে দীর্ঘদিন পালিয়ে বেড়ানোসহ শারিরিক নির্যাতন শেষে কারাভোগের পর সম্প্রতি দেশে ফিরেন। এতে আব্দুল মজিদ খানকে প্রতারণনামূলকভাবে কুয়েতে নির্যাতনের মুখে ঠেলে দেওয়াসহ মজিদের পরিবারের নিকট থেকে ৫ লক্ষ টাকা হাতিয়ে নেওয়া হয়েছে। এ ঘটনার বর্ণনায় নির্যাতনের শিকার আব্দুল মজিদ খানের স্ত্রী নাজমা খানম গত ১০ অক্টোবর মেলান্দহের দুরমুঠ ইউনিয়ন পরিষদে গিয়ে ইউপি সৈয়দ খালেুজ্জামান জুবেরীর নিকট লিখিত অভিযোগ দায়ের পূর্বক বিচার প্রার্থনা করেন। এরপর ইউপি চেয়ারম্যান পরপর তিন দফা নোটিশ করে উভয় পক্ষের বক্তব্য শুনে বাদীর সপক্ষে শালিশ নামা প্রতিবেদন  দাখিল করেছেন। 

ইসলামপুরের লাউদত্ত গ্রামের নির্যাতিত আব্দুল মজিদ খান জানান, ভুয়া আদম বেপারী মিলনের প্রলোভনে প্রতারণামূলক ভিসায় কুয়েতে যাওয়ার কারণে তাকে দীর্ঘদিন সীমাহীন শারিরিক নির্যাতনে হাত-পা ভাঙ্গা অবস্থায় একটি ঘরের কোণে কুকুরের মতো পড়ে থেকে খাদ্য কষ্ট ভোগ করতে হয়েছে। এ ছাড়াও একাধারে তিন মাস পালিয়ে বেড়ানোসহ কুয়েতে ৬ দিন কারাভোগও করতে হয়েছে এবং মিলনের প্রতারণায় ৫ লক্ষ টাকা খোয়া যাওয়ায় তার পরিবার আজ নি:স্ব হয়েছে।

মেলান্দহের দুরমুঠ ইউপি চেয়ারম্যানের কাছে দাখিল করা লিখিত প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, রুকনাই গ্রামের মো: খলিলের পুত্র মো: মিলন একজন ভুয়া আদম বেপারী। সে একজন শঠ, প্রতারক, প্রবঞ্চক ও অর্থলোভী লোক বটে। ভুয়া আদম বেপারী মো: মিলন ৫ লক্ষ টাকার বিনিময়ে ইসলামপুরের লাউদত্ত গ্রামের আব্দুল মজিদ খানকে তিন বছরের লেবার ভিসার প্রলোভন দেখিয়ে তিন মাসের ভ্রমণ ভিসায় ২০১৬ সালের ২৩ অক্টোবর কুয়েত পাঠিয়েছিল। এতে আব্দুল মজিদ খানকে প্রতারণনামূলকভাবে কুয়েতে নির্যাতনের মুখে ঠেলে দেওয়াসহ মজিদের পরিবারের নিকট থেকে ৫ লক্ষ টাকা হাতিয়ে নেওয়া হয়েছে। তাই ভুয়া আদম বেপারী মো: মিলনের বিরুদ্ধে আইনগত ব্যবস্থা গ্রহণের জন্য ইউনিয়ন পরিষদে সর্বসম্মত সিদ্ধান্ত গৃহীত হয়েছে।



মন্তব্য