kalerkantho


বিএনপি গণতন্ত্রকে হত্যা করে দিবস পালন করছে: শিল্পমন্ত্রী

ঝালকাঠি প্রতিনিধি    

৫ জানুয়ারি, ২০১৮ ২২:১০



বিএনপি গণতন্ত্রকে হত্যা করে দিবস পালন করছে: শিল্পমন্ত্রী

'৫ জানুয়ারি নির্বাচন না হলে বাংলাদেশ সাংবিধানিক সংকটে পড়তো। তখন অপশক্তি ক্ষমতায় আসতে পারতো। এমনকি বিদেশিরাও বাংলাদেশের ক্ষমতা কেড়ে নিতে পারতো। সংবিধান রক্ষার জন্য শেখ হাসিনা নির্বাচন দিয়েছিলেন, আর বিএনপি চেয়েছিল নির্বাচন বানচাল করতে। বিএনপি-জামায়াত এ দেশের গণতন্ত্রকে হত্যা করে আবার দিবস পালন করতে চায়, তাদের লজ্জা নেই।' 

আজ শুক্রবার বিকেলে ঝালকাঠির নলছিটি উপজেলার সিদ্ধকাঠি ইউনিয়নের নেতাকর্মীদের সঙ্গে মতবিময় সভায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে এসব কথা বলেন শিল্পমন্ত্রী আমির হোসেন আমু। স্থানীয় গোছরা মাধ্যমিক বিদ্যালয় মাঠে এ মতবিনিময় সভা অনুষ্ঠিত হয়।

ইউনিয়নের কর্মীরাই দলের প্রাণ উল্লেখ করে শিল্পমন্ত্রী বলেন, 'ইউনিয়নভিত্তিক দল সুসংগঠিত থাকলে দলের কার্যক্রম গতিশীল থাকে।' আগামী দিনে নৌকায় ভোট দিয়ে আওয়ামী লীগের প্রার্থীকে জয়ী করার আহ্বান জানান শিল্পমন্ত্রী। তিনি  বলেন, 'বঙ্গবন্ধুকে হত্যার পর ২১ বছর যারা ক্ষমতায় ছিলেন  তারা কোনো উন্নয়ন করেননি। এ কারণে দেশ পিছিয়ে গিয়েছিল। শেখ হাসিনা ক্ষমতায় আসার পর দেশ আবার সামনের দিকে এগিয়ে যাচ্ছে। পদ্মাসেতু ও পায়রা বন্দরের কাজ চলছে। সেখানে অসংখ্য মানুষের কর্মসংস্থানের সৃষ্টি হবে। দক্ষিণাঞ্চল হবে দক্ষিণ পূর্ব এশিয়ার সবচেয়ে বড় অর্থনৈতিক অঞ্চল।

সিদ্ধকাঠি ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সভাপতি ছোহরাব হোসেনের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি ছিলেন নলছিটি উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি ও পৌর মেয়র তছলিম উদ্দিন চৌধুরী, সাধারণ সম্পাদক ও উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান ইউনুস লস্কর, সাংগঠনিক সম্পাদক এইচ এম আখতারুজ্জামান বাচ্চু, মুক্তিযোদ্ধা মজিবুর রহমান খন্দকার ও ইউনিয়ন পরিষদ চেয়ারম্যান কাজী জেসমিন ওবায়েদ। অন্যদের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন জেলা আওয়ামী লীগের সহসভাপতি সিদ্দিকুর রহমান, ঝালকাঠি প্রেস ক্লাবের সাবেক সভাপতি চিত্তরঞ্চন দত্ত, সাধারণ সম্পাদক মো. আক্কাস সিকদার প্রমুখ। 



মন্তব্য