kalerkantho


ভারতে কারাভোগের পর ১৪ বাংলাদেশি নারী ও শিশুকে হস্থান্তর

বেনাপোল প্রতিনিধি    

৫ জানুয়ারি, ২০১৮ ১৬:৫৭



ভারতে কারাভোগের পর ১৪ বাংলাদেশি নারী ও শিশুকে হস্থান্তর

ভারতে দেড় বছর কারাভোগের পর ১৪ বাংলাদেশি নারী ও  শিশুকে গতরাতে বেনাপোল চেকপোস্ট  দিয়ে বাংলাদেশের  ইমিগ্রেশন পুলিশের কাছে হস্তান্তর করেছে ভারতীয় পুলিশ।

দুই বছর আগে ভালো চাকরির আশায় ভারতে গিয়ে কলকাতার শিয়ালদহ স্টেশন থেকে পুলিশের হাতে আটক হয় তারা। দেড় বছর সাজা হওয়ার পর তাদেরকে পাঠনো হয় জেল হাজাতে। পরে কলকাতা 'লিলুয়া শেল্টার হোম' নামের একটি এনজিও সংস্থা সেখান থেকে তাদেরকে নিয়ে যান নিজেদের হেফাজতে।

ফেরত আসা নারী ও শিশুরা হলো সাথী আক্তার (২৫), মুক্তা আক্তার (২০), সেলিম শেখ (৯), আঁখি খাতুন (১৮), আবুল হোসেন (৭), হালিমা খাতুন (২১), সালমা আক্তার (১৯), শিরিনা খাতুন (১৭), আকলিমা খাতুন (২০), শিমু বিশ্বাস (৬), ইস্রাফিল (৭), মমিনুর রহমান (১০), নুসাইবা (১৮) ও হায়দার আলী (৮)। এদের বাড়ি বাগেরহাট ও সাতক্ষীরা জেলার বিভিন্ন এলাকায়।

বাংলাদেশ জাতীয় মহিলা আইনজীবী সমিতির কো-অর্ডিনেটর মুহিত হোসেন বলেন, 'দুই দেশের স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের হস্থক্ষেপে স্বদেশ প্রত্যাবর্তন আইনের মাধ্যমে তাদরকে দেশে ফেরত আনা হয়।'

বেনাপোল চেকপোস্ট পুলিশ ইমিগ্রেশনের ওসি তরিকুল ইসলাম বলেন, 'ফেরত আসা বাংলাদেশি নারী ও শিশুদের বেনাপোল পোর্ট থানায় সোপর্দ করা হয়েছে। পরে কাগজপত্রের আনুষ্ঠানিকতা শেষে বাংলাদেশ জাতীয় মহিলা আইনজীবী সমিতি ও রাইটস যশোর তাদেরকে গ্রহণ করে পরিবারের কাছে বুঝিয়ে দেবেন।' 



মন্তব্য